Naya Diganta

মহিলা ক্রিকেটে অলিম্পিক পদক সম্ভব : সাবের

১৯৮৪ লস অ্যাঞ্জেলস অলিম্পিক দিয়ে নিজেদের অলিম্পিক যাত্রা শুরু করে বাংলাদেশ। এখন পর্যন্ত নিয়মিতভাবে ১০টি অলিম্পিক আসরে অংশ নিয়েছে লাল-সবুজের অ্যাথলেটরা। মনের কোণে থাকে অংশগ্রহণই বড় কথা। তাতে পদকের সাথে দূরত্ব যোজন যোজন। তবে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সাবেক সভাপতি সাবের হোসেন চৌধুরী মনে করেন, অলিম্পিকে বাংলাদেশের পদক পাওয়া সম্ভব। আর সে পদকের আক্ষেপ ঘুচবে মহিলা ক্রিকেটের হাত ধরে।
গতকাল রাজধানীর ঢাকা ক্লাবে সাবেক ক্রিকেটার ও সংগঠক মনোয়ার আনিস খান মিনুর মহিলা ক্রিকেটারদের পথচলা নিয়ে গ্রন্থ ‘মেয়েরাও পারে’ এর মোড়ক উন্মোচন হয়। সেখানে আমন্ত্রিত অতিথি হয়ে আসেন সাবের হোসেন। পরে সংবাদ মাধ্যমের এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, ‘অলিম্পিকে এখনো পর্যন্ত আমরা কোনো পদক পাইনি। আমরা বোধহয় ১০টা অলিম্পিকে অংশ নিয়েছি। একটাতেও কোনো পদক পাইনি। আমি মনে করি মহিলা ক্রিকেটারদের হাত ধরে আমরা অলিম্পিকে প্রথম পদকটা পেতে পারি।’
বাংলাদেশ ক্রিকেট ইতিহাসে সর্বপ্রথম বৈশ্বিক সাফল্য আসে মহিলা ক্রিকেটের হাত ধরে। ২০১৮ সালে ভারতকে তিন উইকেটে হারিয়ে বাংলাদেশ প্রথমবারের মতো এশিয়া কাপ শিরোপার স্বাদ পায়। সাবের হোসেন আশার কথা শুনালেও অলিম্পিকে ক্রিকেটের কোনো ইভেন্ট নেই। আইসিসি চাইছে ২০২৮ লস অ্যাঞ্জেলস অলিম্পিকে ক্রিকেট ফেরাতে। এ জন্য অলিম্পিক কর্তৃপক্ষের সাথে চলছে পর্যাপ্ত এবং জোর আলোচনা।
সাবের হোসেনও জানিয়েছেন, অলম্পিকে মহিলা ক্রিকেট দিয়ে পদক আনতে গেলে এখন থেকেই হাতে নিতে হবে বেশকিছু পদক্ষেপ, ‘এখন থেকে যদি আমরা পরিকল্পনাগুলো হাতে নেই, বিশেষ করে স্কুল পর্যায়ে মহিলা ক্রিকেটটাকে যদি প্রতিষ্ঠিত করা সম্ভব হয়। তাহলে আমার মনে হয় অনেক বড় একটা সম্ভাবনা আছে। সঠিক পরিকল্পনা থাকলে অবশ্যই সম্ভব।’