Naya Diganta

ভারতীয় ব্যাটিং যুদ্ধে শেষ দিকে খেলছে ‘বৃষ্টি’

খেলার ৪৬.৪ ওভারে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচে হানা দিয়েছে বৃষ্টি। বৃষ্টি বন্ধ হলে আবার খেলা শুরু হবে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ভারতের সংগ্রহ ৪ উইকেটে ৩০৫ রান।

পান্ডিয়ার পর মহেন্দ্র সিং ধোনির উইকেটও তুলে নিলেন আমির। এক রান করে সারফরাজকে ক্যাচি দিয়ে ফেরেন ধোনি।

হার্দিক পান্ডিয়াকে ফেরালেন মোহাম্মদ আমির। ১৯ বলে ২৬ রান করে বাবর আজমকে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন পান্ডিয়া।

বিধ্বংসী রোহিত শার্মাকে ফেরালেন হাসান আলি। ১৪০ রান করে হাসানের বলে ওয়াহাব রিয়াজকে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন রোহিত।

ভারতের ব্যাটিং লাইন আপে প্রথম আঘাত হানলেন পাক পেসার ওয়াহাব রিয়াজ। দুর্দান্ত এক ডেলিভারিতে লোকেশ রাহুলকে বাবর আজমের ক্যাচ বানিয়ে ফেরালেন ওয়াহাব।

ক্রিকেট ময়দানে ব্যাট-বলের যুদ্ধে হাইভোল্টেজ ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে দুর্দান্ত সূচনা করে ভারত। 

হাইভোল্টেজ ম্যাচ। একটু পা ফসকালেই শেষ! দুই দল হয়তো সেটি মনে রেখেই শুরু করেছে ওল্ড ট্রাফোর্ডের আজকের ম্যাচ। পাকিস্তান শুরুতেই আক্রমণে এনেছে দলের সেরা অস্ত্র বামহাতি পেসার মোহাম্মাদ আমিরকে। আবার ভারতের ব্যাটসম্যানরাও করেছে সাবধানী শুরু। কোন তাড়াহুড়ো না করে ভালো বলকে যথাযথ সম্মান দিচ্ছেন, আবার খারাপ বল পেলেই বুঝিয়ে দিচ্ছেন যোগ্য পাওনা।

মোহাম্মাদ আমির শুরু থেকেই এদিন দুর্দান্ত বোলিং করছেন। ইনিংসের প্রথম ওভারটি দিয়েছেন মেডেন। চার ওভারের প্রথম স্পেলে দিয়েছেন মাত্র ৮ রান। তবে ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা আক্রমণের জন্য এদিন বেছে নিয়েছেন বিকল্প পন্থা। অপর প্রান্ত দিয়ে বোলিং করা হাসান আলীকে তারা আক্রমণ করেছেন। প্রথম ৩ ওভারে ২৬ রান দিয়েছেন হাসান আলী। যে কারণে তাকে বোলিং থেকে সড়িয়ে নিতে বাধ্য হয়েছেন পাকিস্তান অধিনায়ক।

ওয়াহাব রিয়াজের করা দশম ওভারের প্রথম বলেই ভুল বোঝাবুঝিতে রানআউটের সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল; কিন্তু পাকিস্তানি ফিল্ডার ফখর জামানের ভুলে জীবন পেয়ে যান রোহিত শর্মা।