১৮ নভেম্বর ২০১৮

ওভালে কোণঠাসা ভারত

ওভালে কোণঠাসা ভারত - ছবি : সংগৃহীত

ওভালে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ৫ম ও শেষ টেস্টে কোণঠাসা হয়ে পড়েছে ভারত। স্বাগতিকেরা আগেই সিরিজ জয় নিশ্চিত করেছে। এবার তারা ব্যবধান আরো বাড়ানোর স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছে।]

প্রথম ইনিংসে ইংল্যান্ডের ৩৩২ রানের জবাবে ভারত অলআউট হয়ে যায় ২৯২ রানে৷ অর্থাৎ প্রথম ইনিংসের নিরিখে ৪০ রানের ছোটোখাটো লিড পেয়ে যায় ব্রিটিশরা৷ দ্বিতীয় দফায় ব্যাট করতে নেমে ইংল্যান্ড আপাতত তৃতীয় দিনের শেষে দু’উইকেট হারিয়ে ১১৪ রান তুলেছে৷ অর্থাৎ ভারতের থেকে এখনই তারা ১৫৪ রানে এগিয়ে রয়েছে৷

তার আগে দিনের শুরুটা মন্দ হয়নি ভারতীয় ক্রিকেট দলের৷ প্রথমে হনুমা বিহারী ও পরে টেল এন্ডারদের সঙ্গে নিয়ে রবীন্দ্র জাদেজার দুরন্ত লড়াই ওভাল টেস্টে ভাসিয়ে রাখে টিম ইন্ডিয়াকে৷ না হলে একসময় বড় রানে পিছিয়ে পড়ে ম্যাচে ব্যাকফুটে চলে যাওয়ার উপক্রম হয়েছিল ভারতের৷

দ্বিতীয় দিনে ভারতের ষষ্ঠ ব্যাটসম্যান হিসাবে ঋষভ পন্ত যখন সাজঘরে ফেরেন, ভারতের স্কোর ছিল মোটে ১৬০ রান৷ অভিষেককারী হনুমা বিহারীর সঙ্গে জুটি বেঁধে সিরিজে প্রথমবার সুযোগ পাওয়া অলরাউন্ডার রবীন্দ্র জাদেজা ভরাডুবির হাত থেকে রক্ষা করেন ভারতকে৷

আত্মপ্রকাশেই অনবদ্য হাফসেঞ্চুরি করে হনুমা আউট হওয়ার পর টেল এন্ডারদের নিয়ে লড়াই জারি রাখেন জাদেজা৷ বিশেষ করে শেষ উইকেটের জুটিতে জসপ্রীত বুমরাহকে নিয়ে ৩২ রান যোগ করে দলের স্কোর তিনশোরা কাছাকাছি নিয়ে যান তিনি৷ তবে লোয়ার অর্ডার জাদেজাকে পর্যাপ্ত সঙ্গ দিতে না পারায় প্রথম ইনিংসে ভারত অলআউট হয়ে যায় ২৯২ রানে৷

দ্বিতীয় দিনের শেষে ভারত প্রথম ইনিংসে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৭৪ রান তুলেছিল ভারত৷ ক্রিজে অপরাজিত ছিলেন হনুমা ও জাদেজা৷ তার পর থেকে তৃতীয় দিনের খেলা শুরু করে সপ্তম উইকেটের জুটিতে আরও ৬৩ রান যোগ করেন দু’জনে৷ শেষে ব্যক্তিগত ৫৬ রানের মাথায় মঈন আলির বলে বেয়ারস্টোর দস্তানায় ধরা পড়ে যান হনুমা৷

ইশান্ত শর্মাকে সঙ্গে নিয়ে আরো ১২ রান যোগ করেন জাদেজা, যার মধ্যে ভারতীয় পেসারের অবদান ছিল ৪ রান৷ ইশান্তকেও বেয়ারস্টোর দস্তানায় ধরা দিতে বাধ্য করেন মঈন৷ মহম্মদ শামিকে নিয়ে ১১ রান যোগ করলেও তাতে শামির যোগদান মাত্র ১৷ শামিকে ফেরান আদিল রশিদ৷

শেষ উইকেটের ৩২ রানের পার্টনারশিপে বুমরাহ একটিও রান যোগ করতে পারেননি৷ সবটাই আসে জাদেজার ব্যাট থেকে৷ বুমরাহ খাতা খোলার আগেই রানআউট হন৷ জাদেজা অপরাজিত থাকেন ব্যক্তিগত ৮৬ রানে৷ ১৫৬ বলের ইনিংসে তিনি ১১টি চার ও একটি ছক্কা মারেন৷

দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে ইংল্যান্ড তৃতীয় দিনের চায়ের বিরতিতে বিনা উইকেটে ২০ রান তোলে৷ দিনের শেষ সেশনে দু’উইকেট হারাতে হলেও স্কোর বোর্ডে আরো ৯৪ রান যোগ করে ইংল্যান্ড৷ ওপেনার জেনিংসকে অনবদ্য ইনস্যুইঙ্গারে বোল্ড করেন শামি৷ জেনিংস শামির ভিতরে আসা বলে জাজমেন্ট দিয়ে আউট হন৷ আউট হওয়ার আগে ৩৮ বলে ১০ রান করেন তিনি৷

মঈন আলি তিন নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ২০ রান করে জাদেজার শিকার হন৷ দিনের বাকি সময়ে কুকের সঙ্গে জুটি বাঁধেন দলনায়ক রুট৷ তৃতীয় উইকেটের জুটিতে ইতিমধ্যেই ৫২ রান যোগ করেছেন দু’জনে৷ কুক ৪৬ ও রুট ২৯ রানে ব্যাট করছেন৷

এন্ডারসনের জরিমানা
ভারতের বিপক্ষে চলমান টেস্টে আম্পায়ারের সিদ্বান্তে অসন্তোষ প্রকাশ করে অশোভন আচরণ করায় ইংল্যান্ড দলের তারকা পেসার জেমস এন্ডারসনকে জরিমানা করেছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল(আইসিসি)। তার ম্যাচ ফি’র ১৫ শতাংশ জরিমানা করা হয়েছে এন্ডারসনকে। এছাড়া ১টি ডিমেরিট পয়েন্টও দেয়া হয়েছে তাকে।

লন্ডনে সিরিজের পঞ্চম ও শেষ টেস্টের দ্বিতীয় দিন সফরকারী দলের প্রথম ইনিংসের ২৯তম ওভারে ভারত দলপতি বিরাট কোহলির বিপক্ষে লেগ বিফোরের আবেদন রিভিউতে ভেস্তে যায়। বোলার ছিলেন এন্ডারসন। কোহলিকে শিকার করতে না পারায় ক্ষিপ্ত হয়ে উঠেন এন্ডারসন। ওভার শেষে অন-ফিল্ড আম্পায়ার শ্রীলংকার কুমার ধর্মসেনা সাথে তর্ক করেন এবং আম্পায়ারের কাছ থেকে টুপি-জ্যাকেট অশোভন ভাবে কেড়ে নেন তিনি। তাই দিন শেষে অন-ফিল্ড আম্পায়ারদের সহায়তায় এন্ডারসনকে জরিমানা করেন ম্যাচ রেফারি। অবশ্য নিজের দোষ স্বীকার করে নিয়েছেন এন্ডারসন। তাই আর শুনানির প্রয়োজন পড়েনি। এমনকি নিজের শাস্তিও মেনে নিয়েছেন এন্ডারসন।

লন্ডন টেস্টে ভারতের ইনিংসের ৬৮তম ওভার পর্যন্ত বল হাতে দু’উইকেট নিয়েছেন এন্ডারসন। ফলে ১৪৩ টেস্টে তার উইকেট সংখ্যা ৫৬১। আর ২টি উইকেট নিলেই টেস্ট ফরম্যাটে পেসারদের মধ্যে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারে অস্ট্রেলিয়ার গ্লেন ম্যাকগ্রাকে স্পর্শ করবেন এন্ডারসন। ৫৬৩ উইকেট নিয়ে সবার উপরে রয়েছেন এন্ডারসন


আরো সংবাদ

বিদ্রোহ ঠেকাতে যে কৌশল গ্রহণ করেছে বিএনপি আজ প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি শিক্ষা সমাপনী শুরু রাজশাহীর ছয়টি আসনে বিএনপির প্রার্থী কারা? বিএনপির মনোনয়ন : কোন বিভাগের প্রার্থীদের সাক্ষাতকার কখন আওয়ামী লীগ-বিএনপিতে কোন্দল জামায়াত নীরবে চালাচ্ছে তৎপরতা সাদ কান্ধলভির কোনো সিদ্ধান্ত মানা হবে না : শীর্ষ ওলামা নেতৃবৃন্দ নির্বাচনী প্রার্থীদের নদী রার অঙ্গীকার মঙ্গলকর : তথ্যমন্ত্রী ধর্মহীন রাজনৈতিক দলের সাথে জোট করে কল্যাণরাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা সম্ভব নয় : সৈয়দ রেজাউল করীম লাঙ্গল প্রতীকে নির্বাচন করবে জাতীয় পার্টি : মহাসচিব রাষ্ট্রপতি হওয়ার স্বপ্নে বিভোর ড. কামাল : হানিফ নিরপেক্ষ নির্বাচনের পরিবেশ তৈরি হয়নি : বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি

সকল