১৯ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪২৯, ১২ জিলহজ ১৪৪৫
`

আইপিএল ফাইনালে বৃষ্টির শঙ্কা, রিজার্ভ ডে না থাকায় চ্যাম্পিয়ন নিয়ে প্রশ্ন?

আইপিএল ফাইনালে বৃষ্টির শঙ্কা, রিজার্ভ ডে না থাকায় চ্যাম্পিয়ন নিয়ে প্রশ্ন? - ছবি : সংগৃহীত

মাত্র কয়েক ঘণ্টার অপেক্ষা, এরপরই পর্দা নামতে যাচ্ছে আইপিএলের এবারের আসরের। শিরোপার লড়াইয়ে যেখানে মাঠে নামবে চেন্নাই ‍সুপার কিংস ও গুজরাট টাইটান্স। শিরোপা নির্ধারণী এই ম্যাচকে কেন্দ্র করে সমগ্র ক্রিকেট বিশ্বের চোখ এখন আহমেদাবাদে৷ তবে এই ম্যাচ মাঠে গড়ানো নিয়ে আছে শঙ্কা, আছে বৃষ্টির সম্ভাবনা।

প্রায় দুই মাসব্যাপী চলতে থাকা আইপিএল উন্মাদনা শেষ হচ্ছে রোববার (২৮ মে)। শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে আহমেদাবাদের বিখ্যাত নরেন্দ্র মোদি স্টেডিয়ামে রাত ৮টায় শুরু হবে শিরোপা লড়াই। তবে ভারতীয় আবহাওয়া অধিদফতর জানাচ্ছে, শিরোপার লড়াইয়ে জল ঢালতে পারে বৃষ্টি।

আবহাওয়ার পূর্বাভাস অনুযায়ী, আহমেদাবাদের আবহাওযয়া দিনে রৌদ্রোজ্জ্বল থাকলেও সন্ধ্যা নাগাদ তা মেজাজ বদলে যাবে। এই সময় কালো মেঘে ঢেকে যাবে আকাশ। বলা হচ্ছে সন্ধ্যায় ৬৮ শতাংশ বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। যেখানে ৫০ কিলোমিটার বেগে বাতাস বইতে পারে বলেও ধারণ করা হচ্ছে। এছাড়া ৭৮ শতাংশ মেঘলা আকাশ থাকবে এবং ৬৩ শতাংশ আর্দ্রতার সম্ভাবনা রয়েছে।

এদিকে এবাররের আইপিএলে রাখা হয়নি কোনো রিজার্ভ ডে। তাই ম্যাচ বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত হলে কী সিদ্ধান্ত নেয়া হবে, তা নিয়েই ভক্তদের জল্পনা-কল্পনা। যদি বৃষ্টিতে ভেস্তে যাবার আগ পর্যন্ত অন্তত ৫ ওভার করে খেলা যায়, তবুও খেলা হবে। যার শেষ সময়সীমা ১১টা ৫৬ মিনিট পর্যন্ত।

এই সময়ের পরেও বৃষ্টি অব্যাহত থাকলে আম্পায়াররা সুপার ওভারে যাবেন। এক ওভার করে খেলেই খুঁজে নেয়া হবে শিরোপার দাবীদার। অন্যথায় যদি মাঠে নামা যাই যায়, অর্থাৎ সুপার ওভারের জন্য সময় না থাকলে লিগ পর্বের পয়েন্ট টেবিলের ভিত্তিতে চ্যাম্পিয়ন দল নির্ধারণ করা হবে।

আর যদি তাই হয় তবে চেন্নাইকে পেছনে ফেলে শিরোপা জিতে যাবে গুজরাট। কারণ গ্রুপ পর্বে তারা পয়েন্ট টেবিলে সবার ওপরে ছিল। ২০ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে থেকে কোয়ালিফায়ারে আসে তারা। এদিকে দ্বিতীয় অবস্থানে ছিল ধোনির চেন্নাই। তাই বৃষ্টি অব্যাহত থাকলে চেন্নাইয়ের কপাল পুড়তে পারে, তা তো বলাই যায়।


আরো সংবাদ



premium cement