০১ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০, ১৯ শাবান ১৪৪৫
`

অব্যাহতি নিলেন পাকিস্তান জামায়াতসহ ৩ দলের প্রধান

বায়ে আইপিপির প্রধান জাহাঙ্গীর তারিন এবং ডানে জামাতের আমির সিরাজুল হক - ছবি : দি নিউজ

পাকিস্তানের জাতীয় পরিষদ নির্বাচনের ফল প্রকাশিত হয়েছে আরো তিন দিন আগে। এখনো সরকার গঠন করতে পারেনি দেশটি। এরই মাঝে একের পর এক নেতা রাজনীতি ও দলীয় প্রধানের পদ থেকে অব্যাহতির ঘোষণা দিচ্ছেন।

সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) দেশটির অন্তত তিনটি দলের নেতা দলীয় প্রধানের পদের পাশাপাশি রাজনীতি থেকেও অব্যাহতি নেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন।

অব্যাহতি দেয়া তিন নেতা হলেন ইস্তেহকামে পাকিস্তান পার্টির (আইপিপি) প্রধান পৃষ্ঠপোষক জাহাঙ্গীর তারিন, জামায়াতে ইসলামীর (জেআই) নেতা সিরাজুল হক এবং পাকিস্তান তেহরিকে ইনসাফ পার্লামেন্টারিয়ানসের (পিটিআই-পি) প্রধান পারভেজ খাত্তাক।

পাকিস্তানি গণমাধ্যম ডন জানিয়েছে, নির্বাচনে প্রত্যাশিত ফল না পাওয়ায় দলীয় প্রধানের পদ থেকে অব্যাহতি নিয়েছেন পাকিস্তান জামায়াতে ইসলামির (জেআই) প্রধান সিরাজুল হক। এবারের জাতীয় পরিষদ নির্বাচনে দলটি একটি আসনেও জয় লাভ করেনি। অবশ্য প্রাদেশিক পরিষদের পাঁচটি আসনে তারা জয় পেয়েছে।

ডন আরো জানিয়েছে, ইস্তেহকাম-ই-পাকিস্তান পার্টির (আইপিপি) প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারপারসন জাহাঙ্গীর খান তারিন রাজনীতি থেকে অবসর নেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন। দেশের সবচেয়ে ধনী শিল্পপতিদের একজন তারিন ২০১১ সালে পিটিআইতে যোগ দেন। এরপর তিনি দলটির সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। পিটিআইয়ের ২০১৮ সালের নির্বাচনী সাফল্যে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকাও পালন করেছিলেন তিনি।

তারিনকে পিটিআই নেতা ইমরান খানের নিকটতম সহযোগীদের অন্যতম হিসেবে বিবেচনা করা হতো। ২০২৩ সালে ইমরান খান দল থেকে বেরিয়ে যান তিনি। পরে ওই বছরের জুনে নিজের রাজনৈতিক দল আইপিপি গঠন করেন তিনি। গত বছরের ৯ মের সহিংসতার পর পিটিআই থেকে সরে আসা অনেক রাজনীতিবিদ আইপিপিতে যোগ দেন।

এছাড়া পাকিস্তানের আরেক রাজনৈতিক দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ পার্লামেন্টারিয়ানসের (পিটিআই-পি) প্রধান পারভেজ খাত্তাকও রাজনীতি ছাড়ার ঘোষণা দিয়েছেন। একইসাথে তিনি দলের নতুন চেয়ারম্যান নির্বাচিত করার জন্য পিটিআই-পির কার্যনির্বাহী কমিটির প্রতিও আহ্বান জানান।

সূত্র : ডন, দি নিউজ ও অন্যান্য 


আরো সংবাদ



premium cement