২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩০, ১৩ জিলহজ ১৪৪৫
`

‘বৈশ্বিক মানবিক সঙ্কট : ফিলিস্তিন ও রোহিঙ্গা প্রেক্ষিত’ শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত

‘বৈশ্বিক মানবিক সঙ্কট : ফিলিস্তিন ও রোহিঙ্গা প্রেক্ষিত’ শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত - সংগৃহীত

সামাজিক আন্দোলন নাগরিক বিকাশ ও কল্যাণের (নাবিক) উদ্যোগে তরুণ পেশাজীবীদের সম্মানে ইফতার এবং ‘বৈশ্বিক মানবিক সঙ্কট : ফিলিস্তিন ও রোহিঙ্গা প্রেক্ষিত’ শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সেমিনারে বক্তরা বলেছেন, ‘ফিলিস্তিন ও রোহিঙ্গা- উভয় ক্ষেত্রেই রাষ্ট্রগুলোর এমন আচরণ দেখা যাচ্ছে। আমরা এরূপ আচরণের তীব্র প্রতিবাদ জানাই।’

শনিবার (১৬ মার্চ) রাজধানীর বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রে এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বক্তরা বলেন, ‘রাষ্ট্র হিসেবে বাংলাদেশ শুরু থেকেই ফিলিস্তিনি মজলুম জনগণের পক্ষে ছিল। কিন্তু আমরা অত্যন্ত উদ্বেগের সাথে লক্ষ্য করছি যে বাংলাদেশের পাসপোর্ট থেকে এক্সেপ্ট ইসরাইল শব্দযুগল বাদ দেয়া হয়েছে। যা অবৈধ রাষ্ট্র ইসরাইলের প্রতি একধরনের মৌন স্বীকৃতির সামিল।’

বঙ্গোপসাগরকে ঘিরে ইন্দো-প্যাসিফিকে বিশ্বমোড়লদের যুদ্ধাবস্থার মধ্যে ভূরাজনৈতিকভাবে রোহিঙ্গা সঙ্কট বাংলাদেশকে একটি নতুন সঙ্কট এনে দাঁড় করিয়েছে জানিয়ে বক্তারা বলেন, মানবিক কারণে এক মিলিয়নেরও বেশি রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দিয়েছে বাংলাদেশ। কিন্তু আরাকান রাজ্যের চলমান সঙ্ঘাত বাংলাদেশের জন্য Severe security concern হিসেবে হাজির হয়েছে।

সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন সাউথ এশিয়া ফাউন্ডেশন- বাংলাদেশ চ্যাপ্টারের জেনারেল সেক্রেটারি, লেখক ও গবেষক জাকারিয়া পলাশ।

মূল প্রবন্ধে বলা হয়, ‘আমরা পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে মানবাধিকারের লঙ্ঘনের ঘটনাবলি এড়িয়ে যাচ্ছি। ফিলিস্তিন ও রোহিঙ্গার মতো আঞ্চলিক সঙ্কটের আলোচনার মধ্য দিয়ে আমরা বৈশ্বিক মানবাধিকারের মানদণ্ডের প্রতি সকলের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি। আমরা দেখতে পাচ্ছি, দেশে দেশে জাতিগত সঙ্ঘাত ও জাতিসত্ত্বার অধিকারের প্রশ্নে নানা দেশে, অঞ্চলে সঙ্ঘাত। জাতিসঙ্ঘসহ বিভিন্ন পর্যায়ে মানবিক আবেদন উত্থাপনের পরও যতই দিন যাচ্ছে ততই আগ্রাসী হয়ে উঠছে হিংস্র রাষ্ট্রগুলো।’

বাংলাদেশের নিরাপত্তা ও রোহিঙ্গাদের নিজ ভূখণ্ডে আত্মনিয়ন্ত্রণের অধিকার প্রতিষ্ঠার স্বার্থ বিবেচনায় অবিলম্বে তাদের নিরাপদ প্রত্যাবাসনের জন্য আন্তর্জাতিক মহলের নিকট দাবি জানানো হয় নাবিকের পক্ষ থেকে।

নাবিকের সভাপতি ব্যারিস্টার শিহাব উদ্দিন খানের সভাপতিত্বে সেমিনারে আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চেঞ্জ ইনিশিয়েটিভের চিফ এক্সিকিউটিভ এম জাকির হোসাইন খান, আঙ্কারা ইলদিরিম বায়েজিদ ইউনিভার্সিটির তুরস্ক, এশিয়া ও ইন্দো-প্যাসিফিক স্টাডিজের প্রধান ড. মোহাম্মদ নাজমুল ইসলাম, ব্যারিস্টার মুসতাসীম, কৃষিবিদ এস. তাসাদ্দেক আহমেদ, ঢাকা মেডিক্যাল কলেজে অধ্যয়নরত ফিলিস্তিনি শিক্ষার্থী ইব্রাহিম সেলিম মোহাম্মাদ কিসকু, রোহিঙ্গা একটিভিস্ট মোহাম্মাদ রিজওয়ান (ভার্চুয়ালি), লেখক ও আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিশ্লেষক সোহেল রানা।

স্বাগত বক্তব্য দেন নাবিকের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ হাসান।


আরো সংবাদ



premium cement
কুড়িগ্রামে বিপৎসীমার উপরে বইছে ১৬ নদীর পানি ‘মিয়ানমার থেকে গুলি এলে পাল্টা গুলি চালাবে বাংলাদেশ’ এ বার্তার অর্থ কী রেমিট্যান্স বাড়ায় দেশের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ ১৯.৫৩ বিলিয়ন ডলার চট্টগ্রামে ঝুঁকিপূর্ণ পাহাড় ছাড়তে বিদ্যুৎ-পানি-গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্নের সিদ্ধান্ত রায়গঞ্জে দাদপুর সাহেবগঞ্জ দ্বি-মুখী উচ্চবিদ্যালয়ে ঈদ পূর্ণমিলনী ইসরাইলি কারাগারে নিহত ফিলিস্তিনি বন্দীর সংখ্যা বেড়ে ৫৪ : কমিশন খুলনায় বজ্রপাতে ২ যুবকের মৃত্যু শেখ হাসিনার দিল্লি সফরে যেসব বিষয় আলোচনায় আসতে পারে বাজেট এখনো পাস হয়নি, অনেক কিছু সংশোধন হতে পারে : অর্থমন্ত্রী রামাফোসা দক্ষিণ আফ্রিকার প্রেসিডেন্ট পুনর্নির্বাচিত হওয়ায় প্রধানমন্ত্রীর অভিনন্দন জামায়াতের দায়িত্বশীলদের দেশ পরিচালনার যোগ্যতা অর্জন করতে হবে : মিয়া গোলাম পরওয়ার

সকল