২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩০, ১৪ জিলহজ ১৪৪৫
`

চীনা কোম্পানি থেকে কেনা হচ্ছে ৫২৭ কোটি টাকার প্রি-পেইড মিটার

-

বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের (বিউবো) জন্য আট লাখ ২১ হাজার ৫৪৪টি স্মার্ট প্রি-পেইড মিটার কেনা হচ্ছে। এই মিটারগুলো কিনতে ব্যয় হবে ৫২৬ কোটি ৬৫ লাখ টাকা। মিটারগুলোর প্রায় পুরোটাই চায়নিজ কোম্পানি সরবরাহ করবে। এর মধ্যে চীনা ‘হেক্সিং ইলেক্ট্রিক্যাল কোম্পানি লিমিটেড কোম্পানির কাছ থেকে বেশির ভাগ মিটার কেনা হবে। কোম্পানিটির কাছ থেকে কেনা হবে ৪৩৩ কোটি ৩৩ লাখ টাকার প্রি-পেইড মিটার।

বিউবো কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন ‘স্মার্ট প্রি-পেইড মিটারিং প্রজেক্ট ইন ডিস্ট্রিবিউশন জোন্স অব বিপিডিবি’ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় বিউবোর তিনটি অঞ্চলের জন্য এ মিটারগুলো কেনা হবে। তিনটি পৃথক দরপত্রের মাধ্যমে মিটারগুলো কেনা হচ্ছে বলে জানা গেছে। সরকারি ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির আগামী বৈঠকে এ-সংক্রান্ত তিনটি প্রস্তাব অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হতে পারে।

বিদ্যুৎ বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, বাবিউবোর চারটি জোনের (চট্টগ্রাম, কুমিল্লা, সিলেট ও ময়মনসিংহ) ১৫ লাখ গ্রাহককে স্মার্ট প্রি-পেইড মিটারিং সেবার আওতায় আনার জন্য প্রকল্পটি চারটি প্যাকেজে বিভক্ত করা হয়েছে। প্রকল্পটি বাংলাদেশ সরকার, বিদ্যুৎ বিভাগের নিজস্ব অর্থায়ন ও এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি) অর্থায়নে বাস্তবায়ন করা হবে।

প্রকল্পের চারটি প্যাকেজের মধ্যে প্যাকেজ পিপিএমএস-জি-২-এর আওতায় বিউবো সিলেট জোনের বিদ্যুৎ বিতরণ অঞ্চলের জন্য এক লাখ ১৬ হাজার ২৪৯টি স্মার্ট প্রি-পেইড মিটার কেনা হবে। এর মধ্যে সিঙ্গেল ফেইজ মিটারের সংখ্যা এক লাখ ১১ হাজার ৭৮১টি এবং থ্রি-ফেইজ মিটারের সংখ্যা হচ্ছে চার হাজার ৪৬৮টি। মিটার ক্রয়ে ২০২১ সালের ১৮ আগস্ট এক ধাপ দুই খাম পদ্ধতিতে আন্তর্জাতিক উন্মুক্ত দরপত্র আহ্বান করা হয়। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে চারটি প্রতিষ্ঠান দরপত্র দাখিল করে। সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে স্মার্ট প্রি-পেইড মিটারগুলো সরবরাহের কাজটি পেয়েছে যৌথভাবে- বাংলাদেশের আইডিয়াল ইলেক্ট্রিক্যাল এন্টারপ্রাইজ লিমিটেড এবং চীনের ইনহিমিটার কোম্পানি লিমিটেড। এতে ব্যয় হবে ৭৩ কোটি ৩১ লাখ ৯৮ হাজার টাকা।

সূত্র জানায়, চট্টগ্রাম জোনের জন্য প্রকল্পের আওতায় পিপিএমএস-জি-১ প্যাকেজে তিন লাখ ৯৭ হাজার ৫২৩টি স্মার্ট প্রি-পেইড মিটার কেনা হবে। এর মধ্যে তিন লাখ ৮৭ হাজার ৫৭৪টি সিঙ্গেল ফেইজ এবং ৯ হাজার ৯৪৯ টি থ্রি-ফেইজ স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার। এই প্যাকেজের জন্য আন্তর্জাতিক দরপত্র আহ্বান করা হলে পাঁচটি দরপত্র জমা পড়ে। এর মধ্যে তিনটি দরপত্র নন-রেসপন্সিভ হয়। রেসপন্সিভ দুই দরদাতার মধ্যে ‘হেক্সিং ইলেক্ট্রিক্যাল কোম্পানি লিমিটেড’ সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে মিটারগুলো সরবরাহ করবে। এতে ব্যয় হবে ২৪৩ কোটি ৬৩ লাখ ৬০ হাজার টাকা।

এ ছাড়া একই প্রকল্পের প্যাকেজ পিপিএমএস-জি-৩-এর অধীনে কুমিল্লা জোনের জন্য তিন লাখ সাত হাজার ৭৭২ টি স্মার্ট প্রি-পেইড মিটার কেনা হবে। এর মধ্যে সিঙ্গেল ফেইজ মিটার দুই লাখ ৯৮ হাজার ২২৬টি এবং থ্রি-ফেইজ ৯ হাজার ৫৪৬টি। এই মিটার সংগ্রহের জন্য আন্তর্জাতিক দরপত্র আহ্বান করা হলে পাঁচটি দরপত্র জমা পড়ে। এর মধ্যে তিনটি নন-রেসপন্সিভ হয়। অবশিষ্ট দুই দরদাতার মধ্যে সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে চীনের ‘হেক্সিং ইলেক্ট্রিক্যাল কোম্পানি লিমিটেড’ মিটারগুলো সরবরাহ করবে। এতে ব্যয় হবে ১৮৯ কোটি ৭০ লাখ ৩০ হাজার টাকা।

জানা গেছে, ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে মিটার কেনার চুক্তিটি অনুমোদিত হলে খুব দ্রুত সংশ্লিষ্ট কোম্পানিগুলোর সাথে চুক্তি স্বাক্ষর করা হবে।


আরো সংবাদ



premium cement
বিভিন্ন দেশের আশ্রয় প্রক্রিয়া খতিয়ে দেখবে জার্মানি বান্দরবানে ট্রাক গভীর খাদে পড়ে নিহত ১, আহত ৪ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে বিএনপির ৬ নেতাকে দাওয়াত দিলো আ’লীগ দোয়ারাবাজারে নির্বাচনে পরাজিত হয়েও বন্যাদূর্গতদের পাশে সবার আগে লাইলী আক্তার লাকী একই বৃত্তে ঘুরপাক খাচ্ছে চামড়াশিল্প মেরে ফেললে নয়, জীবিত রাসেল ভাইপার ধরতে পারলে পুরস্কার দেবেন আ.লীগ নেতা বন্যায় বিদ্যুৎহীন সিলেটের ১২ হাজার গ্রাহক সিলেটের বন্যায় সাড়ে ১০ লাখ মানুষ পানিবন্দী আমাদের সকল কাজের মূল উদ্দেশ্য হলো মহান রবের সন্তুষ্টি অর্জন : মাওলানা রফিকুল ইসলাম খান বার বার কারানির্যাতনেই মাখনের অকাল মৃত্যু হয়েছে : রিজভী দেশে দেশে ঘুরে চুক্তি করে লাভ হবে না : খসরু

সকল