১৮ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১, ১১ মহররম ১৪৪৬
`

ইউক্রেনে হামলায় জ্বালানি স্থাপনা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে

ইউক্রেনে হামলায় জ্বালানি স্থাপনা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে - ছবি : সংগৃহীত

ইউক্রেনের মধ্য ও পশ্চিমাঞ্চলে রাতভর ড্রোন হামলায় দেশটির জ্বালানি স্থাপনা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। অন্যদিকে রাশিয়ার আজভ শহরে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা দ্বিতীয় দিনের মতো একটি তেলের ডিপোতে লেগে যাওয়া আগুন নেভানোর চেষ্টা করছেন।

ইউক্রেনের জ্বালানি মন্ত্রণালয় জানায়, যন্ত্রপাতি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এবং সহায়তার জন্য পুলিশের জরুরি পরিষেবাকে ডাকা হয়েছে। ইউক্রেন দেশজুড়ে ব্ল্যাকআউট চালানোর ঘোষণা দেয়ার পর এ হামলা চালানো হলো।

পোল্যান্ড সীমান্তের কাছে ইউক্রেনের পশ্চিমাঞ্চলের শহর লেভিভের মেয়র বলেন, মালেখিভ গ্রামে একটি ড্রোন হামলায় দু’জন আহত হয়েছে, একটি বহুতল আবাসিক ভবন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এবং আশপাশের কয়েক কয়েকটি ভবনের জানালা ভেঙে গেছে।

মেয়র আন্দ্রি সাদোভি টেলিগ্রাম মেসেজিং অ্যাপে লেখেন, ৭০ বছর বয়সী একজন ও ৪৭ বছর বয়সী একজন আহত হয়েছেন।

এদিকে রোস্তভ অঞ্চলে রাশিয়ার একটি তেল সংরক্ষণাগারে ড্রোন হামলার ২৪ ঘণ্টারও বেশি সময় পরও আগুন জ্বলছে।

ইউক্রেনের একজন কর্মকর্তা গণমাধ্যমকে বলেন, এটি ইউক্রেনের নিরাপত্তা বাহিনীর বিশেষ একটি অভিযান। ইউক্রেন অতীতেও রাশিয়ার যুদ্ধ প্রচেষ্টাকে আঘাত করার উপায় হিসেবে এর জ্বালানি অবকাঠামোকে লক্ষ্যবস্তু করেছে।

কর্মকর্তারা বলেন, ২২টি তেলের মজুদ সম্বলিত দু’টি ডিপোতে এ হামলা চালানো হয়। রাশিয়ার দক্ষিণাঞ্চলের বোস্তভ অঞ্চলে আজভ সাগর থেকে প্রায় ১৬ কিলোমিটার দূরে ডন নদীর তীরে অবস্থিত।

এর আগে, ইউক্রেনে বিদ্যুৎকেন্দ্রে রাশিয়ার হামলার কারণে দেশজুড়ে ব্ল্যাকআউট শুরু হয়।

মঙ্গলবার ইউক্রেনের প্রসিকিউটররা রাশিয়ার সেনাদের বিরুদ্ধে ডনেটস্ক অঞ্চলে ইউক্রেনের এক সেনা সদস্যের শিরশ্ছেদ করার অভিযোগ করেছেন।

ইউক্রেনের প্রসিকিউটর জেনারেল অ্যান্ড্রি কোস্টিনের কার্যালয় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট করে জানায়, ‘ডনেটস্ক অঞ্চলের একটি সমর অবস্থানে বিমান পুনরুদ্ধার পরিচালনা করার সময় ইউক্রেনের সামরিক বাহিনী ইউক্রেনীয় প্রতিরক্ষা বাহিনীর একটি ক্ষতিগ্রস্ত সাঁজোয়া যান আবিষ্কার করেছে। এতে একজন ইউক্রেনীয় ডিফেন্ডারের কাটা মাথা ছিল।’
সূত্র : ভয়েস অব আমেরিকা


আরো সংবাদ



premium cement