২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩০, ১৩ জিলহজ ১৪৪৫
`

বাংলাদেশীদের মালয়েশিয়ার রাজার ভুয়া দাতুক উপাধির বিষয়ে মাঠে নেমেছে দেশটির পুলিশ

বাংলাদেশীদের মালয়েশিয়ার রাজার ভুয়া দাতুক উপাধির বিষয়ে মাঠে নেমেছে দেশটির পুলিশ - সংগৃহীত

মালয়েশিয়ায় নানা ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অবদানের বীকৃতিস্বরূপ একাধিক বাংলাদেশী প্রবাসীকে দেশটির রাজ পরিবারের সম্মানজনক উপাধি দাতুকে ভূষিত করা হয়েছে। বাংলাদেশী নাগরিক হয়েও সরাসরি সুলতানদের কাছ থেকে দাতুকে ভূষিত হয়েছেন দেশটিতে থাকা বাংলাদেশী প্রবাসী ব্যবসায়ী ও উদ্যোক্তা ও পেশাজীবীরা।

তবে সম্প্রতি কতিপয় বাংলাদেশীদের দেয়া হয়েছে ভুয়া ও জাল দাতুক উপাধি, এই প্রতারণার দায়ে মোহাম্মদ ফরেদ আবদুল গনি নামে এক মালয়েশিয়ান নাগরিককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

মো: ফরেদ আবদুল গনি নিজেকে মালয় রাজ পরিবারের সদস্য পরিচয়ে এক বাংলাদেশীকে দাতু উপাধি দেন। পরে জানা যায় মোহাম্মদ ফরেদ একজন প্রতারক এবং সেকোনো রাজ পরিবারের সদস্য নয়।

মালয়েশিয়ার রাজপ্রাসাদগুলো কেবল এই সম্মানজনক উপাধি দেয়ার অধিকার রাখলেও অর্থের বিনিময়ে দেয়া হয়েছে ভুয়া দাতুক উপাধি এমন অভিযোগ পেয়ে পুলিশ চলতি সপ্তাহে কুয়ালালামপুরের সেতাপাকের জালান গেন্টিং ক্ল্যাং-এর একটি বাড়ি থেকে মোহাম্মদ ফরেদকে গ্রেফতার করা হয়। মালয়েশিয়ার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে একটি ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর, যেখানে দেখা যায় এক বাংলাদেশী নাগরিককে কেলান্তান প্রাসাদ থেকে ‘দাতুক’ উপাধি দেয়া হয়েছে।

কেলান্তান রাজ্য পুলিশ প্রধান মুহাম্মাদ জাকি বলেন, অভিযোগকারী ইউটিউবে ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি দেখার পর ২৮ মে একটি প্রতিবেদন দাখিল করে, যেখানে বাংলাদেশীদের শিরোনাম প্রাপ্ত দেখানো হয়েছে। সন্দেহভাজন ব্যক্তি মোহাম্মদ ফরেদ দ্বারা ব্যবহৃত‘দাতুক' এবং ‘দাতুক সেরি'-এর বিষয়ে তদন্ত করে দেখা গেছে যে এটি জাল ছিল কারণ সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে কখনো এই জাতীয় উপাধি দেয়ার ক্ষমতা দেয়া হয়নি।


আরো সংবাদ



premium cement