১৪ জুলাই ২০২০

বাসে ২৫-৩০ শতাংশ আসন খালি রাখতে হবে : কাদের

ওবায়দুল কাদের - সংগৃহীত

সীমিত আকারে গণপরিবহন চালু হলেও করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে বাসে ২৫ থেকে ৩০ শতাংশ আসন খালি রাখতে হবে বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

শুক্রবার বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) কার্যালয়ে গণপরিবহন চালুর বিষয়ে পরিবহন মালিক এবং শ্রমিক সংগঠনগুলোর সাথে এক সভায় ভিডিও কনফারেন্সে সংযুক্ত হয়ে তিনি এ কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, দাঁড়িয়ে কোনো যাত্রী নেয়া যাবে না। যাত্রীদের গাড়িতে ওঠার সময় লাইনে তিন ফুট দূরত্ব বজায় রাখতে হবে।

ভাড়ার বিষয়ে তিনি জানান, ভাড়া নির্ধারণের জন্য বিআরটিএতে কমিটি আছে। কমিটি আলোচনা করে একটি যৌক্তিক ভাড়া নির্ধারণ করে দেবে।

‘প্রতিটি বাস যাত্রী পরিবহনের আগে এবং পরে জীবাণুনাশক দিয়ে পরিষ্কার করতে হবে। যাত্রী, চালক ও সহকারীদের অবশ্যই মাস্ক ব্যবহার করতে হবে,’ যোগ করেন মন্ত্রী।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাদের বলেন, ‘লাখ লাখ পরিবহন শ্রমিকের কথা চিন্তা করেই প্রধানমন্ত্রী শর্ত সাপেক্ষে গণপরিবহন চালু করে দিয়েছেন। সেটা বিবেচনায় রেখে মালিক পক্ষকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে গাড়ি চালাতে হবে। ঢালাওভাবে না, নিয়মতান্ত্রিকভাবে গাড়ি চালাতে হবে।’

প্রতিটি টার্মিনালে চালক ও সহকারীদের করোনা বিষয়ে কাউন্সিলিং করতে হবে জানিয়ে তিনি বলেন, করোনার মৃত্যুর মিছিলের মতো যেন দুর্ঘটানায় মৃত্যুর মিছিল না হয়। সে জন্য আইন মেনে গাড়ি চালাতে হবে। এ জন্য বিআরটিএ’র ভ্রাম্যমাণ আদালত অব্যাহত থাকবে বলে তিনি জানান।

সভায় বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শাজাহান খান, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন সমিতির সভাপতি মো. মসিউর রহমান রাঙ্গা, সমিতির মহাসচিব খন্দকার এনায়েত উল্লাহ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
সূত্র : ইউএনবি


আরো সংবাদ