২১ সেপ্টেম্বর ২০২০

কোম্পানী (সংশোধন) বিল পাস সংসদে

সংসদ প্রতিবেদক - ছবি : সংগৃহীত

ব্যবসা-বাণিজ্য সহজীকরণে ‘কোম্পানী (সংশোধন) বিল-২০২০’ নামে একটি বিল মঙ্গলবার জাতীয় সংসদে পাস করা হয়েছে। বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুন্সি বিলটি পাসের প্রস্তাব উত্থাপন করলে কণ্ঠভোটে পাস হয়। এরআগে বিলটির উপর বিরোধী দল জাতীয় পার্টি ও বিএনপি সদস্যদের আনা জনমত যাচাই ও বাছাই কমিটিতে পাঠানোর প্রস্তাব নাকোচ হয়ে যায়।

স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিতে বৈঠকে বিলটি পাসের প্রস্তাব করলে বিরোধীতা করে জনমত যাচাই ও বাছাই কমিটিতে পাঠানোর প্রস্তাব করেন বিরোধী দল জাতীয় পার্টির সদস্য মো. ফখরুল ইমাম, কাজী ফিরোজ রশীদ, মুজিবুল হক, শামীম হায়দার পাটোয়ারী ও পীর ফজলুর রহমান এবং বিএনপি’র ব্যারিষ্টার রুমিন ফারহানা। কিন্তু তাদের প্রস্তাবের বিরোধীতা করে বিলপি পাসের অনুরোধ জানান মন্ত্রী। পরে বিরোধী দলের প্রস্তাব কণ্ঠভোটে নাকচ হয়ে যায়। জাতীয় পার্টির ফখরুল ইমাম সংসদীয় কমিটি কর্তৃক বিলটিতে ৪টি নতুন ধারা সংযোজনের আপত্তি জানালে স্পিকার জানান, কার্যপ্রনালী বিধি অনুযায়ী সংসদীয় কমিটির সেই ক্ষমতা রয়েছে।

পাস হওয়া বিলে কোম্পানি রেজিস্ট্রেশনের সময় লোগো রেজিস্ট্রেশনের বিধান তুলে দেয়া হয়েছে। ফলে এখন শুধু কোম্পানি রেজিস্ট্রেশন করলেই চলবে। ফলে সংশোধিত বিলটি পাস হলে কোম্পানীর কমন সিল, সাধারণ সিল ও অফিসিয়াল সিল নিবন্ধনের বিধান বিলোপ হবে।

এরআগে গত ২৩ জানুয়ারি আইনমন্ত্রীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এক মতবিনিময় সভায় কোম্পানি সিল-সংক্রান্ত ধারার সংশোধন প্রক্রিয়ায় অন্তর্ভুক্ত করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। সেই সিদ্ধান্ত অনুয়ায়ী গত ১২ ফেব্রুয়ারী সংসেদ ওই বিলটি উত্থাপন করা হয়। পরে বিলটি অধিকতর পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটিতে পাঠানো হয়।

পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে বিলটি পাসের সুপারিশ করে কমিটি পরদিন সংসদে প্রতিবেদন জমা দেয়ার পর মঙ্গলবার সেটি সংসদীয় কমিটির সুপারিশ আকারে পাস হয়।


আরো সংবাদ