০১ মার্চ ২০২১
`

১১৬ বছর বয়সে করোনাজয়

১১৬ বছর বয়সে করোনাজয় - ছবি : সংগৃহীত

দুনিয়াজুড়ে চলমান কোভিড-১৯ মহামারীকে হার মানিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১১৬ বছর বয়সী ফরাসি নান এবং বৃহস্পতিবার নিজের ১১৭তম জন্মদিন উদযাপন করতে চলেছেন তিনি।

বিশ্বব্যাপী বিভিন্ন ক্ষেত্রে যাচাই-বাছাই করে কমপক্ষে ১১০ বছরের বেশি বয়সীদের নিয়ে সবচেয়ে প্রবীণ ব্যক্তিদের তালিকা তৈরির কাজ করা জেরন্টোলজি রিসার্চ গ্রুপ জানিয়েছে, ফরাসি মহিলা লুসিলে রান্ডনকে বিশ্বের দ্বিতীয় প্রবীণ জীবিত ব্যক্তি হিসেবে তালিকাবদ্ধ করা হয়েছে। জন্ম সনদে তার নাম সিস্টার আন্ড্রে।

ফরাসি গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, ফ্রান্সের দক্ষিণের শহর টুলনে জানুয়ারির মাঝামাঝিতে সিস্টার আন্ড্রের শরীরে করোনাভাইরাস ধরা পড়ে। তবে মাত্র তিন সপ্তাহের মধ্যেই তিনি করোনা থেকে সেরে উঠেছেন বলে জানানো হয়েছে।

ফরাসি পত্রিকা ভার-মতিনকে তিনি বলেন, ‘আমি বুঝতে পারিনি যে আমার শরীরে করোনা বাসা বেধেছিল।’

করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন জানার পরেও বিষয়টি নিয়ে চিন্তিত ছিলেন না অন্ধ এবং হুইলচেয়ারে চলাচল করা সিস্টার আন্ড্রে।

তিনি যে কেয়ার হোমে আছেন সেখানকার কমিউনিকেশন ম্যানেজার ডেভিড তাবেলা বলেন, ‘তিনি তার স্বাস্থ্যের বিষয়ে আমার কাছে কোনো কিছু জানতে চাননি, বরং তার প্রাত্যহিক অভ্যাস সম্পর্কে জানতে চেয়েছেন। তিনি জানতে চেয়েছিলেন তার খাবার বা ঘুমানোর সময়ের কোনো পরিবর্তন হবে কিনা। করোনাকে তিনি ভয় পাননি। তবে, অন্যান্য বাসিন্দাদের বিষয়ে খুব চিন্তিত ছিলেন।’

তবে, কেয়ার হোমের সবার ভাগ্য সিস্টার আন্ড্রের মতো অতো ভালো ছিল না। এতে থাকা ৮৮ জনের মধ্যে ৮১ জনের করোনাভাইরাস ধরা পড়েছিল এবং তাদের মধ্যে থেকে ১০ জন মারা গেছেন বলে ওই প্রতিবেদনে বলা হয়।

চিকিৎসকরা তাকে পুরোপুরি সেরে ওঠার ঘোষণা দিলে তাকে আবার সবার সাথে মেশার অনুমতি দেয়া হয়েছে।



আরো সংবাদ