১৪ নভেম্বর ২০১৯

বাগদাদির স্ত্রীকেও আটক করেছে ‍তুরস্ক

আবু বকর আল বাগদাদি - ছবি : সংগৃহীত

চরমপন্থী গোষ্ঠি আইএসের নেতা আবু বকর আল বাগদাদির এক স্ত্রীকে আটক করেছে তুরস্ক। প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান বুধবার এই খবর জানিয়েছেন। এছাড়া বাগদাদির বোন ও জামাতা ও তাদের পুত্রবধূকেও আটক করেছে তুরস্ক কর্তৃপক্ষ। উত্তর সিরিয়ার একটি এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়।

কয়েক ঘণ্টা আগে একটি সূত্র জানিয়েছিল যে বাগদাদির এক বোনসহ কয়েকজনকে আটক করেছে তুর্কি সেনারা। এরপরই তার  স্ত্রীকে আটকের খবর দিলেন এরদোগান।

আলজাজিরার খবরে বলা হয়েছে প্রেসিডেন্ট এরদোগান বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্র বলছে টানেলে বাগদাদি নিজেকে বিস্ফোরণে উড়িয়ে দিয়েছে। তারা বিষয়টি নিয়ে ব্যাপক প্রচারণা চালাচ্ছে। আমি এখন প্রথমবারের মতো ঘোষণা করছি, আমরা তার স্ত্রীকে আটক করেছি। কিন্তু আমরা তাদের মতো এ নিয়ে হইচই করছি না। এছাড়া আমরা সিরিয়া থেকে একইসঙ্গে বাগদাদির বোন ও জামাতাকেও আটক করেছি।’

বুধবার আঙ্কারা বিশ্ববিদ্যালয়ে এক বক্তৃতায় তিনি এই ঘোষণা দেন। তবে এ নিয়ে আর কোনো বিস্তারিত তথ্য জানাননি এরদোগান।

তুরস্কের এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা এর আগে জানান, তুরস্ক বাগদাদির বোন ও তার স্বামী এবং পুত্রবধূকেও আটক করেছে। আর এর মাধ্যমে তারা ইসলামিক স্টেট সম্পর্কে আরও গোপন তথ্য উদ্ধার করতে সক্ষম হবে। তবে আঙ্কারা সংগঠনির কার্যক্রম সম্পর্কে তাদের হাতে আসা কোনো এখনো জানায়নি।

গত সপ্তাহে আইএস প্রধান আবু বকর আল বাগদাদি যুক্তরাষ্ট্রের অভিযানের মুখে বিস্ফোরক দিয়ে নিজেকে উড়িয়ে দিয়েছেন। এর কয়েকদিন পরই সিরিয়ায় অবস্থানরত তুর্কি সেনারা বাগদাদির স্ত্রীসহ পরিবারের আরো কয়েকজনকে ধরার খবর দিল।


আরো সংবাদ