২০ জানুয়ারি ২০২১
`

বাইডেনের প্রতি মার্কিন সামরিক বাহিনীর সমর্থন ঘোষণা

বাইডেনের প্রতি মার্কিন সামরিক বাহিনীর সমর্থন ঘোষণা - ছবি : সংগৃহীত

যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনীর জয়েন্ট চিফস অফ স্টাফ বলেছেন, সশস্ত্র বাহিনীর সদস্য হিসেবে আমাদেরকে জাতির মূল্যবোধ এবং আদর্শকে ধারণ করতে হবে। আমরা আমাদের সংবিধানকে সমর্থন ও এর সুরক্ষা নিশ্চিত করি। সাংবিধানিক প্রক্রিয়ায় বিঘ্ন সৃষ্টি করার যেকোনো কর্মকাণ্ড শুধু যে আমাদের ঐতিহ্য, মূল্যবোধ ও অঙ্গীকারের পরিপন্থী তাই-ই শুধু নয়, এটি আইনের পরিপন্থী।

বার্তা সংস্থা এসোসিয়েটেড প্রেস জানিয়েছে যে যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনীর শীর্ষ নেতারা সকল সদস্যকে একটি লিখিত স্মারকপত্র দিয়েছেন। এতে বলা হয়েছে, গত সপ্তাহে ক্যাপিটলে মারমুখী অভ্যুত্থান ছিল গণতন্ত্রবিরোধী এক অপরাধমূলক তত্পরতা। এতে বলা হয়, অবাধ বক্তব্য রাখার অধিকার কাউকে সহিংসতা করার অধিকার দেয় না। জয়েন্ট চিফস অফ স্টাফের সকল সদস্যের স্বাক্ষরিত এই স্মারক লিপিতে সামরিক বাহিনীর সদস্যদের স্মরণ করিয়ে দেয়া হয় যে জো বাইডেনই হচ্ছেন যথার্থভাবে নির্বাচিত পরবর্তী প্রেসিডেন্ট, তিনি ২০ জানুয়ারি দায়িত্ব গ্রহণ করবেন।

এই স্মারক লিপিটি একটু ব্যতিক্রমী। এতে জয়েন্ট চিফস-এর চেয়ারম্যান মার্ক মিলেসহ সামরিক নেতৃত্ব বাহিনীর সকল সদস্যকে এ কথা স্মরণ করিয়ে দিলেন যে সাংবিধানিক প্রক্রিয়ায় বিঘ্ন সৃষ্টি করা ভুল। বাইডেনের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে নতুন করে সহিংসতা হতে পারে এ রকম আশঙ্কার মধ্যে মঙ্গলবার এই স্মারক লিপিটি পাঠানো হয়।

এ দিকে আইন প্রয়োগকারী দফতরগুলো ক্যাপিটলে এই অপরাধের পরিপূর্ণ বিষয়টি বের করার চেষ্টা করছে এবং এটাও বের করার চেষ্টা করছে যে এর সঙ্গে সামরিক বাহিনীর কোনো বর্তমান কিংবা সাবেক সদস্য জড়িত কিনা। এরই মধ্যে এটা নিশ্চিত করা সম্ভব হয়েছে যে ক্যাপিটলের ওই দাঙ্গায় সামরিক বাহিনীর কিছু সাবেক সদস্যও অংশ নিয়েছিলেন। তবে বর্তমানে সক্রিয় কোনো সামরিক ব্যক্তি ‘এর সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিলেন কিনা সেটা এখনও প্রতিষ্ঠিত নয়।

জয়েন্ট চিফস অফ স্টাফ সরাসরি সামরিক বাহিনীর সম্পৃক্ততার কথা বলেননি। তিনি বলেন, সশস্ত্র বাহিনীর সদস্য হিসেবে আমাদেরকে জাতির মূল্যবোধ এবং আদর্শকে ধারণ করতে হবে। আমরা আমাদের সংবিধানকে সমর্থন ও এর সুরক্ষা নিশ্চিত করি। সাংবিধানিক প্রক্রিয়ায় বিঘ্ন সৃষ্টি করার যে কোন কর্মকান্ড শুধু যে আমাদের ঐতিহ্য, মূল্যবোধ ও অঙ্গীকারের পরিপন্থী তাই-ই শুধু নয়, এটি আইনের পরিপন্থী।
সূত্র : ভোয়া



আরো সংবাদ