০৩ জুন ২০২০

যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যু ২ লাখে থাকলেই সন্তুষ্ট ট্রাম্প

বিশ্বে ভয়াবহ সঙ্কট তৈরি করেছে করোনাভাইরাস। যতই দিন যাচ্ছে বিশ্বের নানা প্রান্তে এই প্রাণঘাতী ভাইরাস তাণ্ডব চালিয়ে যাচ্ছে। প্রতিদিনই কেড়ে নিচ্ছে অজস্র প্রাণ। গত ২৪ ঘণ্টায় মহামারীতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ১ লাখ মানুষ আর একদিনেই মৃত্যু হয়েছে ৪ হাজার জনের। বিভিন্ন দেশের অর্ধশতাধিক প্রথম সারির নেতা করোনায় আক্রান্ত।

২০৩টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে করোনা, মৃত্যুর খবর এসেছে ১২০টি দেশ থেকে। বর্তমানে সবচেয়ে নাজুক অবস্থায় আছে শীর্ষ প্রভাবশালী দেশ যুক্তরাষ্ট্র। মৃত্যুর দীর্ঘ মিছিলে হতবাক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পও।

এ পরিস্থিতিতে রোববার এক প্রশ্নের জবাবে তিনি মন্তব্য করেন, মৃত্যুর সংখ্যা ১ থেকে ২ লাখের মধ্যে রাখতে পারাটাই হবে সাফল্য। এ দিকে করোনার সংক্রমণে বিশ্বে মৃত্যুর সংখ্যা ৩৭ হাজার ৭৮০ জন। ৭ লাখ ৮৪ হাজার ৩৯২ জন আক্রান্ত হয়েছেন। একই সাথে সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ৬৫ হাজার ০৩৫ জন।

যুক্তরাষ্ট্রে দুই লাখ মৃত্যুর আশঙ্কা : যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় দুই লাখ মানুষের মৃত্যু হতে পারে বলে আশঙ্কা জানিয়েছেন দেশটির ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব অ্যালার্জি অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজের পরিচালক ডা: অ্যান্থনি ফাউসি। বর্তমান করোনা পরিস্থিতি ও পূর্ববর্তী অভিজ্ঞতার আলোকে তৈরি করা মডেল অনুযায়ী রোববার সিএনএনের স্টেট অব দ্য ইউনিয়ন শীর্ষক টক শোতে এমন আভাস দিয়েছেন তিনি।

ফাউসির আশঙ্কা, যুক্তরাষ্ট্রে ১০ লাখের বেশি মানুষের শরীরে করোনার সংক্রমণ হতে পারে। হোয়াইট হাউজের রোজ গার্ডেনে রোববার সন্ধ্যায় করোনা নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে ডা: ফাউসির মন্তব্যের বিষয়ে প্রশ্নের জবাবে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেন, নভেল করোনায় যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যু ১ লাখ বা তারও বেশি হতে পারে।

তবে এই সংখ্যা ২ লাখের নিচে রাখতে সম্মিলিতভাবে কাজ করা হলে খুব ভালো হবে। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা ও ‘স্টে অ্যাট হোম’ গাইডলাইন আরো ৩০ দিন বাড়িয়ে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। যদি আমরা কিছু না করি তাহলে আক্রান্তের সংখ্যা ২০ লাখ ছাড়িয়ে যেতে পারে।’

মৃত্যুকূপ নিউ ইয়র্ক : যুক্তরাষ্ট্রের ৫০টি অঙ্গরাজ্যেই করোনার প্রকোপ ছড়িয়ে পড়েছে। তবে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে নিউ ইয়র্ক। রোববার সন্ধ্যা পর্যন্ত নিউ ইয়র্ক শহরেই মৃত্যুর সংখ্যা ৭৭৬ জন, আর পুরো নিউ ইয়র্ক অঙ্গরাজ্যে কমপক্ষে ১ হাজার ২৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। অর্থাৎ সেখানে প্রতি ৯ মিনিটে একজন করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যাচ্ছে। সেখানে প্রায় ৬০ হাজার মানুষের দেহে কোভিড-১৯ এর উপস্থিতি শনাক্ত করা হয়েছে।

জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের দেয়া সোমাবারের সর্বশেষ তথ্যে যুক্তরাষ্ট্রে নভেল করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ৪৩ হাজার ২৫ জন, মৃত্যুর সংখ্যা ২ হাজার ৫০৯ এবং সুস্থ হওয়া রোগীর সংখ্যা ৪ হাজার ৮৫৬ জন। তবে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ২ হাজার ৯৭০ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। যুক্তরাষ্ট্রের কারাগারগুলোতে দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে করোনা, জেলখানাগুলোতে প্রায় ২৩ লাখ বন্দী রয়েছেন।


আরো সংবাদ