০৭ জুলাই ২০২২, ২৩ আষাঢ় ১৪২৯, ৭ জিলহজ ১৪৪৩
`

‘পার্টিগেট’ বিধিভঙ্গ : পদত্যাগ করবেন ব্রিটিশ বিরোধী দলের নেতা!

কায়ার স্টার্মার - ছবি : সংগৃহীত

বিপাকে পড়ে মোক্ষম চাল দিলেন ব্রিটেনের বিরোধী দল লেবার পার্টির অন্যতম নেতা কায়ার স্টার্মার। লকডাউন বিধিভঙ্গে অভিযুক্ত স্টার্মার গতকাল সাংবাদিকদের ডেকে ঘোষণা করলেন, তার বিরুদ্ধে পুলিশ যদি আইনি নোটিস (ফিক্সড পেনাল্টি নোটিস) পাঠায়, তা হলে তিনি পদত্যাগ করবেন।

‘পার্টিগেট’ কেলেঙ্কারিতে দোষী সাব্যস্ত ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের পদত্যাগের দাবিতে সম্প্রতি সরব হয়েছিলেন স্টার্মার। বরিসের বিরুদ্ধেও জারি হয়েছিল এই ফিক্সড পেনাল্টি নোটিস। লকডাউন বিধি ভেঙে পার্টি করায় দোষী সাব্যস্ত বরিসের জরিমানাও হয়েছে। তার পরেই গত রোববার স্টার্মারের বিরুদ্ধে লকডাউন বিধিভঙ্গের অভিযোগ প্রকাশ্যে এসেছে। অভিযোগ, গত বছর এপ্রিলে উপনির্বাচনের প্রচার চলাকালীন কোভিড বিধি ভেঙে এক এমপি-র অফিসে বিয়ার পার্টিতে যোগ দিয়েছিলেন স্টার্মার। ডারাম পুলিশ এর তদন্ত শুরু করেছে।

যে অভিযোগের ফলায় এত দিন স্টার্মার দেশের প্রধানমন্ত্রীকে বিঁধে এসেছেন, এ বার তার বিরুদ্ধেই ওই অভিযোগ ওঠায় ফাঁপরে পড়েছেন লেবার নেতা। লেবার পার্টির ঘনিষ্ঠ সূত্রের খবর, বিষয়টির মোকাবিলায় দলের শীর্ষনেতাদের সাথে বৈঠক করেন স্টার্মার। তার পরে সাংবাদিকদের সামনে বলেন, ‘আমি কোনো নিয়মভঙ্গ করিনি। পুলিশ যদি আমার বিরুদ্ধে ফিক্সড পেনাল্টি নোটিস দেয়, তা হলে আমি পদত্যাগ করব। বিষয়টি দায়বদ্ধতার।’

তিনি আরো বলেছেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে ফিক্সড পেনাল্টি নোটিস জারি করেছে পুলিশ। কর্মক্ষেত্রে কোভিড-বিধি ভাঙায় অন্তত ৫০টি জরিমানা জারি হয়েছে তার বিরুদ্ধে। অথচ তিনি পদত্যাগ করেননি।’

স্টার্মারের দাবি, তিনি বরিসের মতো বিধি ভেঙে পার্টি করেননি। নির্বাচনী প্রচার শেষে এমপি-র দফতরে খাওয়া-দাওয়া সেরেছিলেন। অন্য পাঁচটা দিনের থেকে সে দিনটা আলাদা ছিল না। স্টার্মারের দাবি, কোভিড কালে অন্তত ১০ বার বিচ্ছিন্নবাসে ছিলেন তিনি। এমনকি শাশুড়ি মারা গেলেও তিনি শ্বশুরের সাথে দেখা করতে যেতে পারেননি। বিরোধী নেতার মন্তব্য, ‘মানুষ ভাবেন সব রাজনীতিবিদ এক। কিন্তু আমি বরিসের মতো নই। পুলিশ ওই নোটিস পাঠালে আমি পদত্যাগ করব।’

দলের মুখরক্ষায় যে অভিনব প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন স্টার্মার, বাস্তবে তা কত দূর গড়ায়, তা দেখতে তদন্ত রিপোর্টের অপেক্ষায় ব্রিটেনবাসী।
সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা

 


আরো সংবাদ


premium cement
পদ্মা সেতুর নাট খোলা বায়েজিদের জামিন নামঞ্জুর ফরিদপুর জেলা ছাত্রদল সভাপতির বিরুদ্ধে হত্যা মামলা চিকিৎসার জন্য আবার ব্যাংককে রওশন এরশাদ সিলেটে আবারো বাড়ছে পানি, অবনতি বন্যা পরিস্থিতির লঞ্চে মোটরসাইকেল ১০ দিনের জন্য নিষিদ্ধ ব্রিটেনে ক্ষমতাসীন দলের ভেতরে বিদ্রোহ, কতক্ষণ টিকে থাকতে পারবেন বরিস জনসন ঢাবি অধ্যাপক ড. মোর্শেদের রিট খারিজ করায় উদ্বেগ আগস্টে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে যাবে বাংলাদেশ ‘এ’ দল শিক্ষকদের ওপর হামলা মানে শিক্ষার ওপর হামলা : ইউনিসেফ মানিকনগরে উঠতি মাস্তানদের চাঁদাবাজিতে অতিষ্ঠ ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা রেকর্ড রাজস্ব আদায়ে কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের ভূরিভোজ করালেন মেয়র

সকল