০৭ আগস্ট ২০২০

ইউএস ওপেনের নতুন রানী

24tkt

২৩টি গ্র্যান্ড স্ল্যামের মালিক যুক্তরাষ্ট্রের সেরেনা উইলিয়ামসকে হারিয়ে মহিলা এককে ইউএস ওপেনের শিরোপা জিতে নিলেন ১৫তম বাছাই কানাডার বিয়াঙ্কা আন্দ্রিস্কু। শনিবার অনুষ্ঠিত ফাইনালে আন্দ্রিস্কু সরাসরি সেটে হারিয়ে দেন অষ্টম বাছাই সেরেনাকে। ১ ঘন্টা ৪০ মিনিট সময় ব্যয় করে ৬-৩ ও ৭-৫ গেমে ম্যাচটি জিতে নেন ১৯ বছর বয়সী আন্দ্রিস্কু।

২৩টি গ্র্যান্ড স্ল্যামের মালিক সেরেনা। আরও একটি শিরোপা জিতলেই সর্বোচ্চ গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ের বিশ্বরেকর্ড স্পর্শ করবেন তিনি। এমন প্রত্যাশা নিয়ে এবারের ইউএস ওপেনের শুরু করেছিলেন সেরেনা। স্বপ্ন পূরণের জন্য শিরোপা মঞ্চে পৌছেও যান তিনি। সেখানে প্রতিপক্ষ হিসেবে পান অনভিজ্ঞ, অপরিপক্ব আন্দ্রিস্কুকে। তাই যেকেউই বাজি ধরেছিলেন সেরেনার পক্ষে। কিন্তু কোর্টের লড়াইয়ে সবাইকে চমকে দিলেন আন্দ্রিস্কু। সেরেনার ২৪তম গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ের সব স্বপ্নকে দুমড়েমুচড়ে দেন আন্দ্রেস্কু।

কানডার প্রথম খেলোয়াগ হিসেবে কোন গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিতলেন আন্দ্রেস্কু। এর আগে ২০১৬ সালে পুরুষ এককে মিলোস রাওনিক ও নারী এককে ২০১৪ সালে ইউজিন বুচার ফাইনালে উঠলেও শিরোপা জিততে পারেননি।
আর ২০০৪ সালের পর সবচেয়ে কম বয়সে ইউএস ওপেন জয়ের রেকর্ডও গড়েন আন্দ্রেস্কু। ২০০৪ সালে সর্বশেষ সবচেয়ে কম বয়সে ইউএস ওপেনের শিরোপা জিতেছিলেন রাশিয়ার সভেৎলানা কুজনেৎসভা।

শিরেপা জয় শেষে আন্দ্রেস্কু বলেন, ‘শিরোপার জয়ের স্বাদ বর্ণনা করা সত্যিই কঠিন। তবে আমি খুবই খুশী ও আনন্দিত। আমি এই মূর্হুতের জন্য সত্যিই অনেক পরিশ্রম করেছি। এই বছর আমার স্বপ্ন পূরণ হয়েছে। এই মঞ্চে টেনিসের কিংবদন্তির বিপক্ষে খেলতে পারাটা সত্যিই অসাধারন।’

তিনি আরও বলেন, ‘আসলে কাজটি সহজ ছিলো না। প্রতি ম্যাচের মত আমি আমার সেরাটা দেয়ার চেষ্টা করেছি। আমি কার সাথে খেলছি, সেদিকে নজর দেয়ার চেষ্টা করিনি। আমি কিভাবে সবকিছু মোকাবেলা করেছি, সেটিই গর্বের বিষয়।’
মনিকা সেলেসের পাশে নাম উঠলো আন্দ্রেস্কুর। ১৯৯০ সালে রোলা গারোতে চতুর্থ মেজর ট্রফি জিতেছিলেন সেলেস। এই যুগে সবচেয়ে দ্রুত প্রথম গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিতলেন আন্দ্রেস্কু।

অন্য দিকে টানা দ্বিতীয়বারের মত ফ্লাশিং মিডোতে ইউএস ওপেনের শিরোপা হাতছাড়া করছেন সেরেনা। কন্যা সন্তানের মা হওয়ার পর থেকে ফাইনাল জিততেই ভুলে গেছেন তিনি। মা হবার পর এই নিয়ে চারবার গ্র্যান্ড স্ল্যামের ফাইনালে হারলেন সেরেনা। গেল বছর জাপানের নাওমি ওকাসার কাছে হেরেছিলেন তিনি। উইম্বলডনে জার্মানির অ্যাঞ্জেলিক কারবারের কাছে, এ বছর উইম্বলডনে রোমানিয়ার সিমোনা হালেপের কাছে গ্র্যান্ড স্ল্যামের শিরোপা হাতছাড়া করেন সেরেনা।

টানা দ্বিতীয়বারের মত ইউএস ওপেন হেরে সেরেনা বলেন, ‘আন্দ্রেস্কু দুর্দান্ত টেনিস খেলেছে। আমি তার জন্য গর্বিত ও খুশী। অবিশ্বাস্য টেনিস খেলেছে সে। ভেনাসের বাইরে কেউ যদি এই শিরোপা জিততে পারে, তবে আমি আন্দ্রেস্কুর জন্য খুশী হবো।’

মহিলা এককে সবচেয়ে বেশি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিতেছেন অস্ট্রেলিয়ার মার্গারেট কোর্ট। ২৪টি। সেরেনার ২৩টি। তাই এবার মার্গারেটকে স্পর্শ করার দারুন এক সুযোগ হাতছাড়া হলো সেরেনার।


আরো সংবাদ