১৩ মে ২০২১
`

ইসলাম ও নৈতিক শিক্ষা প্রথম অধ্যায় : আকাইদÑবিশ্বাস

-

প্রিয় প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনীর শিক্ষার্থী বন্ধুরা, শুভেচ্ছা নিয়ো। আজ তোমাদের ইসলাম ও নৈতিক শিক্ষা বিষয়ের ‘প্রথম অধ্যায় : আকাইদ-বিশ্বাস’ থেকে আরো ২টি বর্ণনামূলক প্রশ্নœ নিয়ে আলোচনা করা হলো।
প্রশ্ন : আখিরাত জীবনের গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো কী কী?
উত্তর : আখিরাত আরবি শব্দ। এর অর্থ পরের জগৎ। অর্থাৎ মৃত্যুর পরবর্তী জগৎকে আখিরাত বলে।
আখিরাত জীবনের গুরুত্বপূর্ণ বিষয় : আখিরাত জীবনের গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো নিম্নে দেয়া হলোÑ
১. কবরের সওয়াল জওয়াব।
২. কবরে আরাম ও আজাব, অর্থাৎ শান্তি অথবা শাস্তি।
৩. কিয়ামত (মহাপ্রলয়)। ৪. হাশর (বিচারের দিন)।
৫. মিজান (হিসাবের পাল্লা)।
৬. জান্নাত অথবা জাহান্নাম (বেহেশত অথবা দোজখ)।
আখিরাতের জীবন অনন্তকালের জীবন। এ জীবনের শেষ নেই। সুতরাং পৃথিবীর জীবনে যারা পুণ্যের কাজ করবে তাদের পরজগতের জীবন অনন্ত সুখের হবে। তাই পবিত্র কুরআনে বলা হয়েছে, ‘দুনিয়া হলো আখিরাতের কৃষিক্ষেত্র স্বরূপ।’
প্রশ্ন : একজন মুসলিমের চরিত্র কেমন হওয়া উচিত এ সম্পর্কে ১০টি বাক্য লিখ।
উত্তর : আল্লাহ পাক পৃথিবীতে মানবজাতি সৃষ্টি করেছেন। এ মানবজাতির মধ্যে রয়েছে বিভিন্ন ধর্মগত প্রভেদ। এসব ধর্মের মধ্যে ইসলাম হলো অন্যতম। যারা ইসলাম ধর্মের অনুসারী তারাই মুসলিম।
একজন মুসলিমের আচার আচরণ : একজন মুসলিমের আচার আচরণ কেমন হওয়া উচিত তা নিম্নে দেয়া হলোÑ
১. মুসলিমের আচার আচরণ হবে নম্র, ভদ্র ও মার্জিত।
২. সে সত্য কথা বলবে, সৎপথে চলবে।
৩. কাউকে কষ্ট দেবে না ও আঘাত করবে না।
৪. চুরি, ডাকাতি করবে না। সন্ত্রাস সৃষ্টি করবে না।
৫. নিরীহ মানুষের প্রতি জুলুম করবে না। প্রতারণা ও ফাসাদ সৃষ্টি করবে না।
৬. আমানতের খেয়ানত করবে না। গিবত ও পরনিন্দা করবে না।
৭. একমাত্র আল্লাহর ইবাদত করবে। নবীর আদর্শিত পথে চলবে।
৮. বিপদে-আপদে অন্যকে সাহায্য করবে। পিতা-মাতাকে সম্মান করবে।
৯. সর্বদা মানুষের কল্যাণ কামনা করবে।
১০. এক মুসলমান আরেক মুসলমানকে ভাইয়ের মতো দেখতে হবে।
আল্লাহ তায়ালার কাছে একমাত্র মনোনীত দ্বীন বা জীবন বিধান হলো ইসলাম। আর ইসলাম অনুসারীদের বলা হয় মুসলিম। মুসলিমের আচার আচরণ মার্জিত হওয়া উচিত।



আরো সংবাদ