২৫ অক্টোবর ২০২১, ৯ কার্তিক ১৪২৮, ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরি
`

ভারতের অন্ধ্র ও উড়িষ্যা উপকূলে গুলাবির আঘাত, ব্যাপক ক্ষতির আশঙ্কা


বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় গুলাবি আঘাত হেনেছে ভারতের আন্ধ্র ও উড়িষ্যা রাজ্যের উপকূলে। রোববার সন্ধ্যা ৬টার দিকে ঘূর্ণিঝড় গুলাবি উপকূলে আঘাত হানতে শুরু করে বলে দেশটির গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়।

রোববার রাতে আনন্দবাজারের প্রতিবেদনে বলা হয়, গুলাবির প্রভাবে ঝড়ো হাওয়া ও বৃষ্টির দাপট বাড়ছে অন্ধ্র ও ওড়িষ্যা উপকূলে। সন্ধ্যা ৬টা থেকে ঘূর্ণিঝড় গুলাবি আছড়ে পড়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়। দক্ষিণ উড়িষ্যা ও উত্তর অন্ধ্র উপকূলে এই ঝড় আছড়ে পড়বে।

সবশেষ আপডেট রাত ১১টার দিকে গণমাধ্যমটির খবরে বলা হয়, অন্ধ্র উপকূল থেকে ক্রমে পশ্চিমে সরছে গুলাব, চলছে বৃষ্টি। এতে আরো বলা হয়, গুলাব ক্রমশ পশ্চিম দিকে সরতে শুরু করেছে। আপাতত উত্তর অন্ধ্রপ্রদেশের উপকূল অঞ্চলে অবস্থান করছে ঘূর্ণিঝড়টি। হাওয়ার গতিবেগ ঘণ্টায় ৬৫ থেকে ৭৫ কিলোমিটার। দমকা হাওয়ায় যা সর্বোচ্চ গতিবেগ হতে পারে ৮৫ কিলোমিটার। কয়েক ঘণ্টায় সামান্য কমতে পারে হাওয়ার গতিবেগ। তবে এর ফলে বৃষ্টি বাড়বে দুই রাজ্যে।

এর আগে খবরে বলা হয়, ১৬ হাজার মানুষকে উড়িষ্যার উপকূল এলাকা থেকে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে জানায় স্থানীয় প্রশাসন। একইসাথে ত্রাণ শিবিরে উপকূল এলাকার বাসিন্দারা আশ্রয় নিতে শুরু করেছে বলে খবরে বলা হয়।

স্থলভাগে ঘূর্ণিঝড় গুলাবি আছড়ে পড়ার প্রক্রিয়া শুরু হওয়ার পর থেকেই অন্ধ্রের শ্রীকাকুলামে শুরু হয়েছে ঝড়ের দাপট। কলিঙ্গপত্তনমের জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, মোট ৬১টি ত্রাণ শিবির তৈরি করা হয়েছে। সেখানে আশ্রয় নিয়েছেন ১১ শ’ মানুষ।

এর আগে রোববার অন্ধ্রপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রীর সাথে কথা বললেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ঘূর্ণিঝড় গুলাব মোকাবিলার ক্ষেত্রে কতটা প্রস্তুত রয়েছে অন্ধ্রপ্রদেশ, সেই নিয়ে প্রধানমন্ত্রী মোদি অন্ধ্রের মুখ্যমন্ত্রী জগনমোহন রেড্ডির সাথে এই বৈঠক করেন।
আশঙ্কা করা হচ্ছে, প্রাণহানি কমিয়ে আনা গেলেও গুলাবির আঘাতে ভারতের দুই রাজ্যে বাড়িঘর, বিদ্যুতের লাইন, রাস্তাঘাট ও গাছপালাসহ সম্পদের ব্যাপক ক্ষতি হবে গুলাবির তাণ্ডবে।

এ দিকে বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার (বাসস) এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ঘূর্ণিঝড় ‘গুলাব’ মধ্য রাতে ভারতের উত্তর অন্ধ্র প্রদেশ-দক্ষিণ উড়িষ্যা উপকূল অতিক্রম করবে। ওই প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, ঘূর্ণিঝড় ‘গুলাব’ রোববার মধ্য রাতে আরো পশ্চিম-উত্তরপশ্চিম দিকে অগ্রসর হয়ে ভারতের উত্তর অন্ধ্র প্রদেশ- দক্ষিণ উড়িষ্যা উপকূল অতিক্রম করতে পারে।

বাংলাদেশ পরিস্থিতি কী?
ঘূর্ণিঝড় গুলাবির প্রভাবে রোববার রাত ৮টার দিকে রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় বৃষ্টি হয়েছে। আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মোংলা ও পায়রা সমুদ্র বন্দরকে দু’নম্বর দূরবর্তী হুঁশিয়ারি সঙ্কেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। আবহাওয়াবিদ এ কে এম নাজমুল হক জানিয়েছেন, গুলাবি বাংলাদেশের উপকূলে আঘাত করার আশঙ্কা নেই। তবে দেশের দক্ষিণাঞ্চলের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী বর্ষণ হতে পারে।

তিনি বলেন, যেহেতু ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৫৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ৬২ কিলোমিটার, যা দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়ার আকারে ৮৮ কিলোমিটার পর্যন্ত বাড়ছে। ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের কাছে সাগর খুবই উত্তাল রয়েছে। সেহেতু উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি থেকে সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে। একইসাথে জেলেদের গভীর সাগরে বিচরণ না করতে বলা হয়েছে।

উত্তরপশ্চিম বঙ্গোপসাগর ও এর কাছাকাছি পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগর এলাকায় অবস্থানরত ঘূর্ণিঝড় ‘গুলাব’ আরো পশ্চিম দিকে অগ্রসর হয়ে একই এলাকায় (১৮ থেকে ৪০ উত্তর অক্ষাংশ এবং ৮৬ দশমিক ২০ পূর্ব দ্রাঘিমাংশ) অবস্থান করছিল রোববার দুপুরে। এ সময় চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ৭৫০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ৭২৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ৫৯০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে ও পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ৬০৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে অবস্থান করছিল। এটি আরো পশ্চিম-উত্তরপশ্চিম দিকে অগ্রসর হয়ে ভারতের উত্তর অন্ধ প্রদেশ- দক্ষিণ উড়িষ্যা উপকূল অতিক্রম করতে পারে রাতে।

রোববার সন্ধ্যা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও ঢাকা বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং রংপুরে, রাজশাহী, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের দু-এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। একইসাথে দেশের দক্ষিণাঞ্চলের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী বর্ষণ হতে পারে। পরবর্তী দু’দিনে বৃষ্টিপাতের প্রবনতা বাড়তে পারে। পরের পাঁচ দিনে আবহাওয়ার অবস্থায় বলা হয়েছে, এ সময় সামান্য পরিবর্তন হতে পারে। এ ছাড়া সারাদেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা ১ থেকে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস কমতে পারে।

সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা ও বাসস



আরো সংবাদ


বাংলাদেশ দখলের হুমকি দিয়ে লাভ কার (৫৬২৬১)অভাবের তাড়নায় ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে আত্মহত্যা করলেন বিজিবি সদস্য! (১৭৫২২)ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করলেন আন্তর্জাতিক তায়কোয়ান্দোর রেফারি ড. পেটেল (১৫৭৭১)গেইলের প্রয়োজন ৯৭ রান, সাকিবের ১ উইকেট (৯১৫৯)প্রতিরক্ষার মতোই যোগাযোগ অন্যের হাতে রাখতে পারি না : এরদোগান (৬৬৫৫)মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলে ব্যাপক সৈন্য সমাবেশ, গণহত্যার আশঙ্কা জাতিসঙ্ঘের (৬৬০৪)ভারতের বিরুদ্ধে দলে যাদের রেখেছে পাকিস্তান (৬৩২১)সিরিয়ায় ইসরাইলি বিমান হামলায় বাধা দিবে না রাশিয়া (৬২২৬)আজ থেকে সুপার লিগ : সুপার টুয়েলভের কখন কোন দলের খেলা (৫৮৭৪)পাকিস্তানের আকাশসীমা ব্যবহারের বিষয়ে চুক্তির দ্বারপ্রান্তে যুক্তরাষ্ট (৫৭৭৯)