২৩ অক্টোবর ২০২০

১৯ বছর ধরে দেখাশোনার পরও নারীর হাত-পাঁজর ভাঙল গোরিলা

১৯ বছর ধরে দেখাশোনার পরও নারীর হাত-পাঁজর ভাঙল গোরিলা - সংগৃহীত

টানা ১৯ বছর ধরে মালাবোর দেখাশোনা করছেন তিনি। কিন্তু রোববার সকালে রুটিনমাফিক পরিস্কার ও খাওয়ানোর সময় কী এমন হল যার কারণে মহিলা জু কিপারের উপর আচমকা আক্রমণ করল ২৯ বছর বয়সি পুরুষ গোরিলা!

মাদ্রিদ চিড়িয়াখানা ও জরুরি পরষেবা থেকে জানানো হয়েছে, গোরিলার হামলায় ৪৬ বছরের ওই মহিলা কর্মীর অবস্থা গুরুতর। তার দুটি হাত ভেঙে গিয়েছে, বুকের পাঁজরও ভেঙে গিয়েছে। মাথায় গুরুতর চোট পেয়েছেন তিনি। মাদ্রিদ জুয়ের তরফে জানানো হয়েছে, প্রতিদিনের মতো রোববার ওই মহিলাকর্মী সকালের খাবার খাওয়াতে গিয়েছিলেন মালাবোকে। তার কেবিন পরিস্কারেরও কাজ করে সে। সেই সময়ই শক্তিশালী গোরিলা ওই মহিলা কর্মীর উপর হামলা করে।

গোরিলার হামলা লক্ষ্য করতেই সেই কেবিনে প্রবেশ করে অতিকষ্টে ওই মহিলাকে ক্ষুব্ধ গোরিলার হাত থেকে বের করতে আনতে পেরেছেন অন্য চিড়িয়াখানার কর্মীরা। পরে পশুচিকিত্‍সকরা ওই গোরিলাকে থামাতে অজ্ঞান করার ওষুধ গুলি করে। সে শান্ত হওয়ার পরই তার কাছে যেতে পেরেছেন বিশেষজ্ঞরা।

তবে তিনটি গেট পেরিয়ে কীভাবে ওই গোরিলা এনক্লোজারে প্রবেশ করল, সে বিষয়ে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ ও চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষ।

চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, গত ১৯ বছর ধরে ওই মহিলা এখানে কাজ করছেন। বলতে গেলে জন্মের পর থেকেই রক্ষণাবেক্ষণকারীদের মালাবো দেখে এসেছে। এতদিন কিছু করে নি সে। তবে গোরিলারা যে ভালোবাসার মানুষের কাছে যেতে পছন্দ করে। এরকমটাই হয়তো হয়েছিল। ওই মহিলার কাছে এসেছিল স্বভাববশতই। তবে ২০০কেজি ওজনের একটি গোরিলার আক্রমণে ওই মহিলা কর্মীর শারীরিক অবস্থা বেশ শোচনীয় হয়ে পড়েছে। তাকে স্থানীয় হাসপাতালের জরুরি বিভাগে ভর্তি করা হয়েছে। সূত্র: এই সময়


আরো সংবাদ