১৬ আগস্ট ২০২০

ভারতে এক দিনে ৩২ হাজারের বেশি করোনা পজিটিভ

ভারতে এক দিনে ৩২ হাজারের বেশি করোনা পজিটিভ - ছবি : এনডিটিভি
24tkt

ভারতে এক দিনে করোনা সংক্রমণের নতুন রেকর্ড তৈরি হয়েছে। দেশটির কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বৃহস্পতিবার সকালে দেয়া পরিসংখ্যান অনুসারে গত ২৪ ঘণ্টায় ৩২ হাজার ৬৯৫ জন মানুষের শরীরে করোনার সন্ধান মিলেছে। সব মিলিয়ে মোট ৯ লাখ ৬৮ হাজার মানুষ কোভিড-১৯ আক্রান্ত।

গত ২৪ ঘণ্টায় প্রাণ গেছে আরো ৬০৬ জনের। ফলে মোট মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ২৪ হাজার ৯১৫ জনে। তবে চিকিৎসা সহায়তায় দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠছেন বহু মানুষ। এখন পর্যন্ত ভারতে প্রায় ৬ লাখ ১ হাজার করোনা রোগী সুস্থ হয়ে উঠেছেন। বৃহস্পতিবার সকালে এই পুনরুদ্ধারের হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬৩.২৫ শতাংশে।

এই নিয়ে ভারতে টানা দ্বিতীয় দিন এক দিনের মধ্যে সংক্রমণের নয়া রেকর্ড গড়লো করোনাভাইরাস। তবে এই প্রথমবার মাত্র ২৪ ঘণ্টায় ৩০ হাজারের বেশি মানুষের শরীরে করোনা পজিটিভ ধরা পড়লো। বুধবার ২৯ হাজারের বেশি নতুন সংক্রমণ ধরা পড়েছিল।

খুব স্বাভাবিকভাবেই বাড়ছে করোনা পরীক্ষায় ইতিবাচক রোগীর হার। বুধবার যেখানে ৯.১৯ শতাংশ মানুষ করোনা পজিটিভ হিসাবে ধরা পড়েছিলেন, বৃহস্পতিবার সেখানে সেই হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১০ শতাংশে।

প্রায় ১৩০ কোটি মানুষের দেশে এখন পর্যন্ত প্রায় ১ কোটি ২৭ লাখ মানুষের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে; সবচেয়ে বড় কথা একজন ব্যক্তির করোনা থেকে পুরোপুরি সেরে ওঠার মধ্যে তার আরো বেশ কয়েকবার পরীক্ষা করা হচ্ছে। বুধবার ৩ লাখ ২৬ হাজার ৮২৬ জনের শরীরের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হয়েছে, সরকার জানিয়েছে এক দিনে এই পরীক্ষার সংখ্যা এখন পর্যন্ত সর্বাধিক।

গত ২৪ ঘণ্টায় যে পাঁচটি রাজ্যে সর্বাধিক সংখ্যক নতুন করোনা রোগীর সন্ধান পাওয়া গেছে তার মধ্যে শীর্ষে অবশ্যই মহারাষ্ট্র। সেখানে বুধবার ৭ হাজার ৯৭৫ জন করোনা পজিটিভ হয়েছেন। তারপরেই আছে তামিলনাড়ু, এক দিনে আরো ৪ হাজার ৪৯৬ জন এই রোগে আক্রান্ত হয়েছে। কর্নাটকে নতুন করোনা আক্রান্ত ৩ হাজার ১৭৬, অন্ধ্রপ্রদেশে ২ হাজার ৪৩২ এবং উত্তরপ্রদেশ ১ হাজার ৬৫৯।

পশ্চিমবঙ্গে করোনা সংক্রমণ বাড়ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ১ হাজার ৫৮৯ জন করোনা পজিটিভের সন্ধান মিলেছে। পাশাপাশি বুধবার মারা গেছেন ২০ জন করোনা রোগী। ফলে সব মিলিয়ে এরাজ্যে কোভিড হামলায় মোট ১ হাজার জনের মৃত্যু হয়েছে। রাজ্য স্বাস্থ্য বিভাগের পরিসংখ্যান অনুসারে, মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৩৪ হাজার ৪২৭ জন হয়েছে, যার মধ্যে কিছু মানুষ সুস্থ হয়ে উঠলেও বর্তমানে ওই রোগে ভুগছেন ১২ হাজার ৭৪৭ জন। তবে চিকিৎসা সহায়তায় সেরে উঠে বুধবার রাজ্যের বিভিন্ন হাসপাতাল থেকে ৭৪৯ জনকে করোনা মুক্ত ঘোষণা করে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। এর ফলে রাজ্যে এখন পর্যন্ত মোট ২০ হাজার ৬৮০ জন করোনা রোগী সুস্থ হয়ে উঠেছেন, পুনরুদ্ধারের হার ৬০.০৬%।

সূত্র : এনডিটিভি


আরো সংবাদ