১৯ জানুয়ারি ২০২২
`

দক্ষতার প্রদর্শনী দেখিয়েছে তারা : প্রিন্স

-

প্রথম টেস্ট সেঞ্চুরি পাওয়ার পর হেলমেট খুলে সৃষ্টিকর্তাকে নিঃশব্দে ধন্যবাদ জানান বাংলাদেশের ব্যাটার লিটন দাস। আনন্দে ফেটে পড়ে বাংলাদেশের ড্রেসিংরুম। লিটনের ব্যর্থতার জন্য প্রধান কোচ রাসেল ডোমিঙ্গো, ব্যাটিং কোচ অ্যাশওয়েল প্রিন্স এবং অন্যান্য কোচিং স্টাফদের দিকে আঙুল তোলা হয়েছিল। ব্যর্থতার কারণে অনলাইনে ট্রল ও বিদ্বেষমূলক আচরণের শিকার হন লিটন। তার স্ত্রী এবং পরিবারও সমালোচনার তালিকায় ছিল, যা লিটনকে মানসিক যন্ত্রণা দিয়েছিল। কিন্তু বাংলাদেশের ড্রেসিং রুম সবসময় লিটনের পাশে ছিল।
ব্যাটিং কোচ অ্যাশওয়েল প্রিন্স জানান, তার ১১৩ রানের ইনিংসটি অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছিল, কারণ ইনিংসের শেষ দিকে হাতের ক্রাম্প ও ব্যথা নিয়ে খেলেছিলেন লিটন। কতটা শান্ত এবং সর্তক ছিল, তা দেখে আমি সত্যিই মুগ্ধ। আশা করি আজ রাতে নিজেকে সুস্থ করে তুলবেন এবং আগামীকাল (আজ) দলকে এগিয়ে নিতে পারবেন। লিটন সেঞ্চুরি পাওয়ায় ড্রেসিংরুমের সবাই খুব-ই খুশি।’ তিনি আরো বলেন, ‘লিটনের ব্যাটিং পজিশনে তার দাঁড়ানোর অবস্থার পরিবর্তন করার বিষয় ছিল। মূলত লাইনে তাকে আরো ভালোভাবে দাঁড়াানোর বিষয় ছিল। আমার মনে হয়, সে ক্রিজে ভালোভাবে দাঁড়াতে পেরেছে।’
মুশফিকুর রহীমেরও প্রশংসা করেছেন প্রিন্স, ‘আমি মনে করি, ৪০ রানে চার উইকেট হারানোর পর ছেলেরা নিজেদের সেরাটা এবং দক্ষতার একটি দুর্দান্ত প্রদর্শনী দেখিয়েছে। শুরুতে বেশ ধৈর্যশীল ছিলেন মুশফিক। সে অভিজ্ঞ খেলোয়াড়। সে শান্ত ছিল। দারুণ এক ইনিংস খেলেছেন তিনি।’


আরো সংবাদ


premium cement