১২ এপ্রিল ২০২১
`

শামীমের ঝড়ো ব্যাটিংয়ে দুর্দান্ত জয়

-

শেষ তিন ওভারে জয়ের জন্য দরকার ছিল ৩৪ রান, হাতে মাত্র ৪ উইকেট। চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে আয়ারল্যান্ড উলভসের বিপক্ষে অনানুষ্ঠানিক দ্বিতীয় ওয়ানডেতে কঠিন পরীক্ষার মুখেই পড়ে গিয়েছিল বাংলাদেশ ইমার্জিং দল। তবে মাহমুদুল হাসান জয় ও শামীম পাটোয়ারির দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে শেষ ওভারে এসে জয় তুলে নিয়েছে স্বাগতিকরা। ৪ উইকেট আর দুই বল হাতে রেখেই আয়ারল্যান্ড উলভসকে হারিয়েছে বাংলাদেশ ইমার্জিং দল। এই জয়ে অনানুষ্ঠানিক ৫ ওয়ানডে সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল বাংলাদেশ ইমার্জিং দল। জয় ১৫ রানে ৬.৬ করলেও শামীম ৩৯ বলে ৫২ রান করেন।
সফরকারিদের বিপক্ষে ইমার্জিং দলের প্রথম ওয়ানডে ম্যাচটা মাঝপথে পরিত্যক্ত হয়। উলভস অলরাউন্ডার রুহান প্রিটোরিয়াসের করোনা আক্রান্তের খবর আসার পরে ম্যাচট মাঝপথে বাতিল হয়। দ্বিতীয় ওয়ানডেতে সেই প্রিটোরিয়াস করোনা মুক্ত হয়ে খেললেন। রাকিবুল হাসানের বলে বোল্ড হওয়ার আগে ১২৫ বলে ৯ চার ও ১ ছয়ে করেন ৯০ রান।
গতকাল তার ব্যাটে ভর করে সাগরিকায় পাঁচ ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয়টিতে ৭ উইকেট হারিয়ে ২৬৩ রান তোলে আয়ারল্যান্ড ‘এ’ দল। কিন্তু অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ জিতে ফেরা দুই তরুণ জয় ও শামিমের ব্যাটে জিতেছে বাংলাদেশ ইমার্জিং দল।
দলের জয়ে তিনে নেমে ৬৬ রানের দায়িত্বশীল ইনিংস খেলেন মাহমুদুল জয়। ব্যক্তিগত ১৭ রানে ওপেনার তানজিদ তামিম এবং ৩৬ রানে সাইফ হাসান আউট হওয়ার পরে জয় জুটি গড়েন ইয়াসির আলীর সাথে। ওই জুটি থেকে আসে ৭৭ রান। চারে নামা ইয়াসির ফিরেন ৩১ রান করে। এরপর তৌহিদ হৃদয়ের সাথে জুটি গড়েন জয়। কিন্তু বেশি দূর এগোয়নি। জয় ৯৫ বলে ৬৬ রান করে আউট হন। এরপর ৩১ রান করে ফিরে যান হৃদয়। উইকেটরক্ষক আকবর আলী খালি হাতে সাজঘরে ফিরলে ম্যাচটা কঠিন হয়ে যায় বাংলাদেশের জন্য।
তখনই স্পিন অলরাউন্ডার শামিম দায়িত্ব নিয়ে একপ্রান্ত আগলে রেখে ৩৯ বলে ৫২ রানের হার না মানা দারুণ ইনিংস খেলেন। তার ইনিংসটি সাজানো ছিল তিন চার ও দুই ছক্কায়। চাপের মুখে দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে ম্যাচ সেরাও হয়েছেন তিনি।
বাংলাদেশ ইমার্জিং দলের হয়ে বাঁ হাতি স্পিনার রাকিবুল হাসান ১০ ওভারে ৩৯ রান দিয়ে নেন দুই উইকেট। পেসার সুমন খান ৫১ রান খরচায় নেন দুই উইকেট। একটি করে উইকেট পেয়েছেন মুকিদুল ইসলাম ও শফিকুল ইসলাম।



আরো সংবাদ