০৫ ডিসেম্বর ২০২০

করোনা আক্রান্ত চার ফুটবলার

-

বাফুফের কর্মকর্তা এবং কর্মচারীদের পর এবার করোনা ছোবল মারল জাতীয় ফুটবল দলের উপর। ৮ অক্টোবর থেকে শুরু বাংলাদেশ দলের কাতার বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের ম্যাচ। এ জন্য গতকাল থেকে শুরু হয়েছে ফুটবলারদের রিপোর্টিং। এর আগে সব ফুটবলারকে যার যার মতো করে করোনা টেস্ট করাতে বলা হয়েছিল। এতে করোনাভাইরাসের অস্তিত্ব ধরা পড়ে বিশ্বনাথ ঘোষের শরীরে। আর গতকাল বাফুফের উদ্যোগে করা টেস্টে করোনা পজিটিভ হয় প্রথমবারের মতো ডাক পাওয়া এম এস বাবলু, সুমন রেজা ও নাজমুল ইসলাম রাসেলের। এই তিন ফুটবলারকে রেখেই গত রাতে অন্য ফুটবলারদের নিয়ে ক্যাম্প করতে সারাহ রিসোর্টে চলে গেছেন কোচ মাসুদ পারভেজ কায়সার। এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বাবলু, রাসেল ও সুমনরা ছিলেন বাফুফে ভবনে ম্যানেজার সত্যজিৎ দাস রুপু এবং ডা: ইমরানের তত্ত্বাবধানে।
বিশ্বনাথ দুই দিন আগে অ্যাপোলো হাসপাতালে করোনা টেস্ট করিয়ে পজিটিভ প্রমাণিত হন। গত পরশু তিনি ফের আনোয়ার খান মর্ডান হাসপাতালে টেস্ট করান। সেই রিপোর্ট এখনো হাতে পাননি তিনি। বসুন্ধরা কিংসের এই রাইটব্যাক তার নিজ বাসায় আইসোলেশনে আছেন। সাথে তার স্ত্রীও করোনায় আক্রান্ত। গত পরশু রাতে তার করোনা পজিটিভ হওয়ায় গতকাল বাফুফের ক্যাম্পে আর আসেননি। জানান জাতীয় দলের সহকারী কোচ মাসুদ পারভেজ কায়সার। কায়সারের দেয়া তথ্য, চার ফুটবলারের ফের করোনা টেস্ট হবে এক সপ্তাহ পর। তখন রিপোর্ট নেগেটিভ হলে আরো এক সপ্তাহ আইসোলেশনে থাকার পর পুরোপুরি সুস্থ হলে তবেই জাতীয় দলের ক্যাম্পে যোগ দেবেন।
বিশ্বনাথ ছাড়া গতকাল অন্য ১১ ফুটবলার বাফুফে ভবনে আসেন। তাদের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে করোনা টেস্ট করানো হয়। আগে তাদের রিপোর্ট নেভেটিভ ছিল। তারা হলেনÑ পাপ্পু হোসেন, নাজমুল ইসলাম রাসেল, এম এস বাবলু, নাজমুল ইসলাম রাসেল, ফয়সাল আহমেদ ফাহিম, মনজুরুর রহমান মানিক, আবদুল্লাহ, ইয়াসিন আরাফাত, বিপলু আহমেদ ও মাহাবুবুর রহমান সুফিল। আজ আসার কথা আনিসুর রহমান জিকো, সুশান্ত ত্রিপুরা, রবিউল হাসান, আরিফুর রহমান, শহীদুল আলম সোহেল, সাদ উদ্দিন, সোহেল রানা, ইব্রাহিম, রহমত মিয়া, রিয়াদুল হাসান, রাকিব হোসেন ও টুটুল হোসেন বাদশাদের। আগামীকাল যোগ দেবেন তৌহিদুল আলম সবুজ, তপু বর্মণ, মামুনুল ইসলাম মামুন, আশরাফুল ইসলাম রানা, রায়হান হাসান, ইয়াসিন খান ও নাবিব নেওয়াজ জীবন।
এখনো ক্যাম্পে না আসা অন্য ফুটবলাররা নিজ উদ্যোগে করা করোনা টেস্টের রিপোর্টও গতকাল রাতে পাওয়ার কথা। আর কারো করোনা রিপোর্ট পজিটিভ হয় কি না তা নিয়ে উদ্বিগ্ন দেখা গেছে ম্যানেজার রূপুকে।


আরো সংবাদ

বায়তুল মোকাররমের সামনে ভাস্কর্যবিরোধীদের মিছিলে লাঠিচার্জ (৮৮৪৯)রাজধানীতে সমাবেশের অনুমতি পায়নি সম্মিলিত ইসলামী দলগুলো (৭৩৮৯)ইরানি বিজ্ঞানী হত্যাকাণ্ডের পর এই প্রথম মুখ খুললেন বাইডেন (৬৮৫৩)কোনো মুসলিম হিন্দু নারীকে বিয়ে করতে পারে কিনা (৬৭৫১)মানুষের মতো দেখলেও তাকে যে কারণে জঙ্গলে ফল-ঘাস খেয়ে থাকতে হয় (৫৭০১)ভাস্কর্য, মহাকালের প্রেক্ষাপট (৫১২৬)আওয়ামী লীগের আপত্তি, মামুনুল হকের মাহফিল বাতিল (৪৯৯০)নাগর্নো-কারাবাখে জয় পেতে কত সৈন্য হারাতে হলো আজারবাইজানকে? (৪৯৫৮)আঘাত করলে পাল্টা আক্রমণ হবে : ওবায়দুল কাদের (৩১৮৪)নতুন পরমাণু কেন্দ্রে জ্বালানী ঢোকানোর কাজ শুরু করেছে পাকিস্তান (২৭৮৮)