২৮ মার্চ ২০২০

এইচ এস সরোয়ারদীর গুচ্ছ কবিতা

-

তুমি আমার হলে

পাহাড়-নদী বলে
তুমি আমার হলে,
চটের বদলে গোলাপ হতো
আদমজীর পাটকলে।

বনের হরিণ বলে
তুমি আমার হলে,
বিলের পদ্ম ফুটত এসে
বুড়িগঙ্গার জলে।

গোলাপ জবা বলে
তুমি আমার হলে,
খুশির হাসি আনন্দের সুর
বাজতো যে বিউগলে।

বন্ধুরা সব বলে
তুমি আমার হলে,
এই প্রেমটি শ্রেষ্ঠ বলে
জানত সকলে।


ভাবছি নতুন করে
নতুন বছর নতুন কিছু
ভাবছি নতুন করে,
দুখীর মুখে অনেক হাসি
দেবো দু’হাত ভরে।

পথের ধারে যারা থাকে
দেবো আদরটুক,
সবার মনে বিলিয়ে দেবো
অনেক অনেক সুখ।

নতুন করে গড়ব এদেশ
সব ভেদাভেদ ভুলে,
নতুন বছর সাজাবো গাঁও
নতুন ফুলে ফুলে।


তীব্র শীতে

হাড়কাঁপুনে তীব্র শীতে
কেমন করে বাঁচি,
আমরা গরিব উদোম গায়ে
অনেক কষ্টে আছি।
শিশিরগুলো টাপুর টুপুর
ঝরছে সারা গাঁয়ে,
হিমেল হাওয়া ঝিরিঝিরি
লাগছে এসে গায়ে।

পৌষ মাসের এমন শীতে
কাঁপছে পেটের নাড়ি,
গরিব বলে এত কষ্ট
সইতে কি আর পারি?


মিষ্টি লাগে
মিষ্টি লাগে তোমার হাসি
তোমার চুলের ঝুঁটি,
মিষ্টি লাগে মায়াভরা
তোমার আঁখি দু’টি।

মিষ্টি লাগে চাঁদনী রাতে
তোমার চোখের ভাষা,
মিষ্টি লাগে তোমার বুকের
উষ্ণ ভালোবাসা।
সোনারগাঁও, নারায়ণগঞ্জ


আরো সংবাদ