২৫ অক্টোবর ২০২১, ৯ কার্তিক ১৪২৮, ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরি
`

অটুট থাকুক ভাই-বোনের বন্ধন

অটুট থাকুক ভাই-বোনের বন্ধন - ছবি সংগৃহীত

পৃথিবীতে মা-বাবার পর আপন হচ্ছে ভাই-বোন। নিঃস্বার্থ এক ভালোবাসার উপমা ভাই-বোনের সম্পর্ক। মা-বাবার পরে যারা পরিবারের জন্য সবচেয়ে বেশি কষ্ট করেন তারা হলেন বড় ভাই-বোন। শত কষ্টের মাঝে থেকেও যারা ছোট ভাই-বোনদের ভালোবাসার চাদরে আগলে রাখেন। নিজেরা ভোগবিলাসে না থেকে ছোট ভাই-বোনের সুখের কথা ভাবেন। তবে বর্তমানে ভাই-বোনের মধুর এ সম্পর্ক যেন ক্রমেই ফিকে হয়ে আসছে। ছোট ভাই লেখাপড়া শেষ করে প্রতিষ্ঠিত হয়। বিয়ের পর স্ত্রী, সন্তান নিয়ে সুখে-শান্তিতে বসবাস করে। আস্তে আস্তে বড় ভাই-বোনকে ভুলে যায়। আবার অনেক সময় বড় ভাই বিয়ের পর পৃথক হয়ে যায় তখন আর ছোট ভাই-বোনের খবর নেয় না। একসময় দেখা যায় ভাইয়ে ভাইয়ে জমি জমা নিয়ে কলহের সৃষ্টি হয়। মামলা-মোকাদ্দমাসহ বিভিন্ন হয়রানির শিকার হতে হয়। রক্তের বাঁধন ছিন্ন করে কেউ কারও সঙ্গে কথা বলে না!

পরিবারে ভাইয়ের মতো বোনের অবদানও কোনো অংশে কম নয়। বোনেরা ভাইদের জন্য সবচেয়ে বেশি ত্যাগ স্বীকার করেন। নিজের কথা না ভেবে ভাইদের নিয়ে বেশি ভাবেন। মা-বাবার অবর্তমানে তাদের অভাব বুঝতে দেন না। কখনো ভাইকে ঠকতে দেন না। অথচ ত্যাগী সেই বোনের বিয়ের পর ভাইয়েরা দূরে সরিয়ে দেয়। অবহেলা করে। অনেক সময় দেখা যায় ভাইয়েরা মা-বাবার ধন-সম্পদ সঠিকভাবে বন্টন করে না। নিজেরা বেশি ভোগ করে। বোনকে পৈতৃক ওয়ারিশ থেকে বঞ্চিত করে। যার ফলে ধীরে ধীরে ভাই-বোনের সম্পর্ক বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। এ সম্পদ আত্মসাৎ করার ফলে একদিকে যেমন পাপের অংশীদারি হতে হচ্ছে, সেই সঙ্গে আত্মীয়তার সম্পর্কও নষ্ট হচ্ছে। হক নষ্ট করা যেমন কবিরা গুনাহ, তেমনি আত্মীয়তার সম্পর্ক ছিন্ন করাও কবিরা গোনাহ। ইরশাদ হয়েছে, ‘যারা আল্লাহর সঙ্গে দৃঢ় অঙ্গীকারে আবদ্ধ হওয়ার পর তা ভঙ্গ করে, যে সম্পর্ক অক্ষুন্ন রাখতে আল্লাহ আদেশ করেছেন, তা ছিন্ন করে এবং পৃথিবীতে অশান্তি সৃষ্টি করে বেড়ায়, তাদের জন্য আছে অভিসম্পাত এবং তাদের জন্য আছে মন্দ আবাস।’ (সূরা রাদ : ২৫)

এজন্য আমাদের দায়িত্ব হচ্ছে ভাই-বোনের হক পুরোপুরি বুঝিয়ে দেয়া। প্রাপ্য হক থেকে কাউকে বঞ্চিত না করা এবং সম্পর্ক ছিন্ন না করা। তাদের সঙ্গে সর্বদা উত্তম আচরণ করা। কখনও মনে আঘাত দিয়ে কথা না বলা। আমরা সবাই যদি ভাই-বোনের সাথে সম্পর্ক বজায় রাখতে পারি তাহলে হয়তো বদলে যাবে সমাজ, দেশ ও জাতির সমাজচিত্র। আমরাও দুনিয়া ও আখিরাত উভয় জাহানে থাকব অনাবিল আনন্দে। তাই যে ভাই-বোন আমাদের আদর-স্নেহ, মায়া-মমতা, ভালোবাসা দিয়ে লালন পালন করেছেন, অটুট থাকুক সেই ভাই-বোনের মধুর বন্ধন।

শিক্ষার্থী, খিয়ংহি সাইবার বিশ্ববিদ্যালয়
সিউল, দক্ষিণ কোরিয়া

 

 



আরো সংবাদ


বাংলাদেশ দখলের হুমকি দিয়ে লাভ কার (৫৬২৬১)অভাবের তাড়নায় ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে আত্মহত্যা করলেন বিজিবি সদস্য! (১৭৫২২)ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করলেন আন্তর্জাতিক তায়কোয়ান্দোর রেফারি ড. পেটেল (১৫৭৭১)গেইলের প্রয়োজন ৯৭ রান, সাকিবের ১ উইকেট (৯১৫৯)প্রতিরক্ষার মতোই যোগাযোগ অন্যের হাতে রাখতে পারি না : এরদোগান (৬৬৫৫)মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলে ব্যাপক সৈন্য সমাবেশ, গণহত্যার আশঙ্কা জাতিসঙ্ঘের (৬৬০৪)ভারতের বিরুদ্ধে দলে যাদের রেখেছে পাকিস্তান (৬৩২১)সিরিয়ায় ইসরাইলি বিমান হামলায় বাধা দিবে না রাশিয়া (৬২২৬)আজ থেকে সুপার লিগ : সুপার টুয়েলভের কখন কোন দলের খেলা (৫৮৭৪)পাকিস্তানের আকাশসীমা ব্যবহারের বিষয়ে চুক্তির দ্বারপ্রান্তে যুক্তরাষ্ট (৫৭৭৯)