২২ জুন ২০২১
`

ভারত থেকে আসা পাঁচ বাংলাদেশী প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে

ফুলবাড়ী থানা - ছবি নয়া দিগন্ত

ভারতের চেন্নাইয়ে চিকিৎসা শেষে কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীর নিজ বাড়িতে ফেরত আসা দু’পরিবারের পাঁচ সদস্যকে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেনটাইনে পাঠিয়েছে পুলিশ।

রোববার স্বাস্থ্য বিভাগ ও পুলিশের যৌথ দল ওই দু’পরিবারের পাঁচ সদস্যকে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে কোয়ারেন্টাইনে পাঠায়।

এর আগে শনিবার সকালে লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী চেকপোস্ট দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেন ওই পাঁচ বাংলাদেশী।

এরা হলেন, উপজলার নাওডাঙ্গা ইউনিয়নের কুরুষা ফেরুষা গ্রামের আব্দুল করিমের ছেলে মমিনুল ইসলাম (৩৫), একই ইউনিয়নের গজেরকুটি গ্রামের মৃত কপুর উদ্দিনের ছেলে বুলবুল ইসলাম (৩৫), একই উপজেলার কাশিপুর ইউনিয়নের আজোয়াটারি গ্রামের আবু তালেব সরকার (৪৫), তার স্ত্রী মাসুদা বেগম (৩৫) এবং মেয়ে তানবিন আক্তার।

এদের মধ্যে মমিনুল ইসলাম কিডনি রোগের চিকিৎসার জন্য ভারতে গিয়েছিলেন। তার সঙ্গে বন্ধু বুলবুল ইসলামও গিয়েছিলেন। আর আবু তালেব-মাসুদা বেগম দম্পতি তাদের মেয়ে তানবিনের চিকিৎসার জন্য ভারত গিয়েছিলেন।

পুলিশ জানায়, ভারতে চিকিৎসা শেষে ওই পাঁচ বাংলাদেশী শনিবার সকালে লালমনিরহাট জেলার বুড়িমারী চেকপোস্ট দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেন। তাদের সকলকে ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনে থাকার জন্য লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে পাঠিয়ে দেয় পুলিশ ও স্থানীয় প্রশাসন। কিন্তু তারা হাসপাতালে না গিয়ে সরাসরি ফুলবাড়ী উপজলায় নিজ বাড়িতে চলে আসেন। পরে লালমনিরহাট পুলিশ বিষয়টি জানতে পেরে উপজলা স্বাস্থ্য বিভাগের উদ্যোগে ওই দু’পরিবারের পাঁচ সদস্যকে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে কোয়ারেন্টাইনে পাঠায়।

ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রাজীব কুমার রায় জানান, ভারত ফেরত পাঁচ বাংলাদশীকে লালমনিরহাট সদর হাসপাতাল কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে। লালমনিরহাট পুলিশ ও স্বাস্থ্য বিভাগের সঙ্গে যোগাযোগ করে তাদরকে কোয়ারেন্টাইনে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হয়েছে।

দেখুন:


আরো সংবাদ