১৩ মে ২০২১
`

পুলিশের কাছে স্বীকারোক্তি : দত্তক না পেয়ে শিশু সিয়ামকে হত্যা করেন নানী

পুলিশের কাছে স্বীকারোক্তি : দত্তক না পেয়ে শিশু সিয়ামকে হত্যা করেন নানী - ছবি : নয়া দিগন্ত

দত্তক নিতে না পেরে নাতি সিয়ামকে (৭) গলা কেটে হত্যা করেছেন আনজুয়ারা (৪৫) ওরফে মালতি বেগম। তিনি সম্পর্কে সিয়ামের নানী।

গ্রেফতারের পর পুলিশের কাছে হত্যার দায় স্বীকার করেছেন মালতি বেগম। পুলিশ তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে রক্তমাখা ছুরি উদ্ধার করেছে। তিনি শাজাহানপুর থানার পলিপালাশ গ্রামের মুসলিম উদ্দিনের স্ত্রী।

বগুড়ার পুলিশ সুপার আলী আশরাফ বিপিএমবার জানান, নিহত সিয়াম পার্শ্ববর্তী নন্দীগ্রাম উপজেলার তীতলা গ্রামের মৃত নজরুল ইসলামের ছেলে।

মঙ্গলবার দুপুরে বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলার পানিহালী গ্রামের ধানক্ষেতের ড্রেনের পানি থেকে সিয়ামের গলা কাটা লাশ উদ্ধার করে থানা পুলিশ। এরপর দেশীয় ধারালো ছুরিসহ আনজুয়ারাকে গ্রেফতার করা হয়। তিনি হত্যার দায় স্বীকার করেছেন।

পুলিশ সুপার আলী আশরাফ আরো জানান, গত কয়েক দিন আগে নানী মালতি বেগম সিয়ামকে দত্তক নিতে চান। কিন্তু না দিলে তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে হত্যার পরিকল্পনা করেন।

এলাকাবাসী জানায়, নিহত সিয়ামের বাবা কয়েকবছর আগে এক দুর্ঘটনায় নিহত হলে তার মা আরেকটি বিয়ে করে সেখানে চলে যান। মা-বাবাহীন শিশুটি মানবেতর জীবনযাপন করছিল। এমন পরিস্থিতিতে তার নানীর বোন আনজুয়ারা বোরকা পরে মঙ্গলবার দিন দুপুরে সিয়ামকে প্রলোভন দিয়ে ধানক্ষেতে নিয়ে যান। বিকেলে আনজুয়ারা একা বাড়ি ফিরে এলে প্রতিবেশীরা এতিম শিশু সিয়ামের বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। তাকে কোথায় রেখে এসেছে জানতে চান। তিনি সিয়ামকে সাথে নেয়নি বলে জানান। একপর্যায়ে প্রতিবেশীরা ক্ষিপ্ত হলে আনজুয়ারা এলোমেলো কথা বলতে থাকেন।

এ দিকে শিশু হত্যার সংবাদ পেয়ে পুলিশ, পিবিআই ও সিআইডি চারিদিকে হত্যাকারীর অনুসন্ধান করতে থাকে। একপর্যায়ে আনজুয়ারার বাড়িতে গিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তিনি হত্যার দায় স্বীকার করেন। পরে আনজুয়ারার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে হত্যাকাণ্ডে ব্যবহার করা রক্তমাখা ছুরিটি উদ্ধার করা হয়।



আরো সংবাদ


ধামরাইয়ে কোসটাল ওয়েলফেয়ারের উদ্যোগে ঈদ সামগ্রী বিতরণ এখনো মূল ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবহার করিনি : হামাস ইসরাইলি আরবরা নিজ দেশে যেভাবে বৈষম্যের শিকার ইসরাইলের পক্ষে দাঁড়াল ভারত, জাতিসঙ্ঘে ফিলিস্তিনের ‘বিশেষ নিন্দা’ কোভিডে একের পর এক অধ্যাপকের মৃত্যু, আলিগড় মুসলিম বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে আতঙ্ক কোম্পানীগঞ্জে বাদলের অনুসারীদের লক্ষ্য করে মির্জা অনুসারীদের গুলি, পালাতে গিয়ে আহত ৫ হাজারতম ম্যাচে হারলেন সেরেনা নিখোঁজ অমিত শাহ’র খোঁজে দিল্লি পুলিশের কাছে মিসিং ডায়েরি মাগুরায় ২ মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে নিহত ২, আহত ১ বাউফলে গভীর নলকূপ স্থাপন ও দুস্থদের মাঝে ঈদ সামগ্রী বিতরণ করলেন ড. মাসুদ ইসরাইলি সন্ত্রাস বন্ধে পদক্ষেপ নিতে বিশ্ব সম্প্রদায়ের প্রতি বাবুনগরীর আহ্বান

সকল