২৯ মার্চ ২০২০

বগুড়ায় হোম কোয়ারেন্টাইনে ৪০৬ জন বিদেশফেরতর

বগুড়ায় হোম কোয়ারেন্টাইনে ৪০৬ জন বিদেশফেরতর - সংগৃহীত

বগুড়ায় বিদেশফেরত প্রবাসিদের হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা মানুষের সংখ্যা বাড়ছেই। বগুড়ায় হোম কোয়ারেন্টইনে ১৪ দিন থাকার পর সুস্থ্য থাকায় তাদের সুস্থ্যতার ছাড়পত্র দিচ্ছে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ। শনিবার জেলায় ৪০৬ জন রয়েছে হোম কোয়ারেন্টিইনে।

শুক্রবার বগুড়া জেলায় বিদেশ ফেরতদের হোম কোয়ারেন্টাইনের সংখ্যা ছিল ৩০৮ জন। ১৪ দিন হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার পর শুক্রবার ও শনিবার ৩০ জনের কোন লক্ষণ না পাওয়ায় তাদের সুস্থ্যতার সনদ দেয়া হয়েছে। সেইসাথে স্বাস্থ্য বিভাগ ছাড়পত্র দেয়া প্রবাসীদের সাবধানতা অবলম্বন করতে পরামর্শ দেয়া হচ্ছে।

বগুড়া জেলা সিভিল সার্জন অফিসের কন্ট্রোল রুমের দায়িত্বে থাকা পরিসংখ্যান কর্মকর্তা সাহারুল ইসলাম জানান, শনিবার হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার সংখ্যা ৪০৬ জন। নতুন করে শনিবার আরো ১৩০ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে নেয়া হয়। যারা ১৪ দিন পার করেছেন তাদের সুস্থ্যতার জন্য ছাড়পত্র দেয়া হয়েছে। তাদের সাবধানতা অবলম্বন করতে বলা হয়েছে।

বগুড়া জেলা ডেপুটি সিভিল সার্জন মোস্তাফিজুর রহমান জানান, জেলার প্রতিটি মানুষকে সতর্ক থাকার অনুরোধ জানানো হয়েছে। কেউ যেন গুজব না ছড়ায় সে বিষয়ে সতর্ক করা হচ্ছে। তবে বিদেশফেরত অনেকেই নিয়ম না মেনে ইচ্ছেমত বাইরে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। ফলে করোনা ভাইরাস ছড়ানোর ঝুঁকি থেকেই যাচ্ছে।

এদিকে শহরে লোকসমাগম আগের তুলনায় অনেকটা কমে গেছে। তবে করোনা নিয়ে আতংকের কারনে বাজারে খাদ্য মজুদের জন্য ভীড় দেখা যাচ্ছে। ফলে চাল, ডাল, পেয়াজ, তেল , লবণ, মাছ, মুরগিসহ নিত্য পন্যের দাম বৃদ্ধি পেয়েছে। শহরের প্রধান বাজার ফতেহ আলী বাজারের গেটে দাম বেশী না রাখা ও বেশী পন্য না কিনতে মাইকিং করা হলেও তা কেউই মানছেন না।


আরো সংবাদ