২১ জানুয়ারি ২০২১
`

জন্মদিনে ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত এমাজউদ্দীন আহমদ

জন্মদিনে ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত এমাজউদ্দীন আহমদ - ছবি : সংগ্রহ

দেশের বরেণ্য রাষ্ট্রবিজ্ঞানী ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি অধ্যাপক ড. এমাজউদ্দীন আহমদের ৮৭তম জন্মদিন আজ। তার জন্মদিন উপলক্ষে রাজধানীর কাঁটাবন ঢালের বাসায় তাকে শুভেচ্ছা জানাতে আসেন বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতা ও প্রতিনিধিবৃন্দ। জন্মদিনে বন্ধুবান্ধব, শুভাকাঙ্ক্ষী ও শুভানুধ্যায়ীদের ভালোবাসা ও ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত হন ড. এমাজউদ্দীন আহমদ। বরেণ্য এই রাষ্ট্র বিজ্ঞানীর ৮৭তম জন্মদিন উদযাপন উপলক্ষে শুভেচ্ছা বিনিময় অনুষ্ঠানের আয়োজন করে স্বাধীনতা ফোরাম।

সংগঠনের সভাপতি ও বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের মুহাম্মদ রহমাতুল্লাহর সভাপতিত্বে কেক কাটা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, সেলিমা রহমান, অর্থনীতিবিদ ড. মাহবুব উল্লাহ, বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, খায়রুল কবির খোকন, কেন্দ্রীয় নেতা শিরিন সুলতানা, শামীমুর রহমান শামীম, বিএনপি নেতা খন্দকার আকবর হোসেন বাবলু, স্বাধীনতা ফোরামের ইশতিয়াক আহমেদ বাবুল, ফারুকুল ইসলাম, হাফিজ ইকরামুল্লাহ, জহির উদ্দিন বাবর, সুমন হোসেন, কামরুল ইসলাম, কাজী মনিরুজ্জামান, ইসমাইল তালুকদার খোকন, মিয়া মোঃ আনোয়ার প্রমুখ।

শুভেচ্ছা বিনিময়কালে ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, আজকে আমাদের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব হুমকির সম্মুখীন। বর্তমানে সংসদীয় ব্যবস্থার সরকার যিনি প্রণয়ন করেছেন সেই নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া আজ মিথ্যা মামলায় কারাগারে বন্দী। অথচ দেশের অনাচার দুর্নীতির দিকে সরকারের কোনো নজর নেই।

ড. মাহবুব উল্লাহ বলেন, দেশের সার্বভৌমত্ব সংকট চরম আকার ধারণ করেছে। আমাদের দেশ নিয়ে বিদেশের পার্লামেন্টে আলোচনা হয়। যা আমাদের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্বের জন্য হুমকিস্বরূপ। অথচ এর বিরুদ্ধে আমরা ন্যুনতম প্রতিবাদ বা কথা বলতে পারছিনা। যা বেদনাদায়ক স্বাধীন জাতি ও রাষ্ট্রের নাগরিক হিসেবে বেঁচে থাকায় কষ্টকর। যখন রাষ্ট্রের বিষয় সামনে আসে তখন সবারই উচিত দলমতের ঊর্ধ্বে উঠে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হওয়া।



আরো সংবাদ