১৪ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১, ৭ মহররম ১৪৪৬
`

পর্যটনখাতে অবদানে অ্যাওয়ার্ড দেবে টোয়াব

টোয়াবের সংবাদ সম্মেলন - নয়া দিগন্ত

বাংলাদেশের পর্যটনখাতে অবদানের জন্য ট্যুর অ্যাজেন্সিসহ বিভিন্ন সংগঠন ও সাংবাদিকদের ‘টিটা অ্যাওয়ার্ড’ দেবে দেশের পর্যটন শিল্পের শীর্ষস্থানীয় বাণিজ্য সংগঠন ট্যুর অপারেটরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (টোয়াব)।

সোমবার রাজধানীর একটি তারকা হোটেলে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয়ে বিস্তারিত তুলে ধরা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে ‘টোয়াব’ সভাপতি শিবলুর আযম কোরেশী জানান, আগামী ২৯ মে বনানীস্থ হোটেল শেরাটন ঢাকায় এক জাঁকজমকপূর্ণ অনুষ্ঠানের মাধ্যমে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে এই অ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হবে। বেসরকারি বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রী মুহাম্মদ ফারুক খান এমপি এতে প্রধান অতিথি থাকবেন।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘পর্যটন শিল্পের সাথে জড়িতদের জন্য এ জাতীয় একটি অ্যাওয়ার্ড প্রদান করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আমরা অত্যন্ত আনন্দিত যে দেশের পর্যটন শিল্পের শীর্ষস্থানীয় বাণিজ্য সংগঠন টোয়াবের সবার উদ্যোগে টিটা অ্যাওয়ার্ড প্রদান প্রোগ্রামটি করতে যাচ্ছি। এই অ্যাওয়ার্ড এমন ব্যক্তি, সংস্থা ও উদ্যোগকে সম্মান জানানোর একটি প্ল্যাটফর্ম হিসেবে কাজ করবে যারা স্থানীয় ও বৈশ্বিক পর্যায়ে পর্যটন শিল্পের উন্নয়নে মূল্যবান অবদান রেখে চলেছেন। তাদের যথাযথ স্বীকৃতি প্রদান করাই আমাদের উদ্দেশ্য। প্রথম আসরে প্রায় ২০টি বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে অ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হবে। প্রতিটি ক্যাটাগরিতে পর্যটন সেবার বিভিন্ন খাত অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।’

অনুষ্ঠানে এফবিসিসিআইয়ের সিনিয়র সহ-সভাপতি আমিন হেলালী বলেন, ‘সরকারসহ সবাই ট্যুরিজমের প্রতি ফোকাস করছেন। টোয়াবের নেতারা আছেন যারা এই সেক্টরকে এগিয়ে নিচ্ছেন। আমি মনে করি, এটা আন্তর্জাতিক মানের হওয়া উচিত।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমাদের যে মান তার উন্নয়নে যে উদ্যোগ নেয়া হয়েছে পুরস্কার দিয়ে সেটার স্বীকৃতি প্রদান করবেন। কারা ট্যুরিজমে অবদান রাখছে, কিভাবে তারা কমপ্লায়েন্সে অবদান রাখছে, সব বিষয়ে পুরস্কার থাকবে। আমি অনুরোধ করব, যারা ডেডিকেশন দিয়ে কাজ করছে পুরস্কারের তালিকায় তাদের নাম থাকা উচিত। এর মাধ্যমে সবার মাঝে একটি প্রতিযোগিতা তৈরি হবে। এর ফলে জিডিপিতে এ খাত আরো বেশি অবদান রাখবে।’

ট্যুরিস্ট পুলিশের জনসংযোগ বিভাগের পুলিশ সুপার বদরুল আলম মোল্লা বলেন, ‘আমরা যারা ট্যুরিজম বিভাগে যারা কাজ করি তাদের কিন্তু একটা স্বপ্ন থাকে। যখন কাউকে পুরস্কার দেয়া হয় তখন তার কাজের গতি বেড়ে যায়। এ খাতে আমরা শুধু সেফটি সিকিউরিটি নিয়ে কাজ করি। তবে যারা আমাদের হেল্প করছে তাদের সাথে চুক্তি করছি। রেস্টুরেন্টগুলোতে যাতে নিরাপদ খাবার সরবরাহ নিশ্চিত হয় এবং পর্যটকরা যেন তাদের অভিযোগ জানাতে পারেন সে জন্য ট্যুরিস্ট পুলিশ একটি অ্যাপস তৈরির কাজ করছে।’

বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশনের জনসংযোগ শাখার কর্মকর্তা আকতার আহমেদ বলেন, ‘টোয়াব সবসময় আমাদের নতুন কিছু দেয়। তাদের কাছ থেকে যেসব আইডিয়া আসে সব ইনোভেটিভ আইডিয়া। তবে পর্যটকদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে। এটা প্রশংসনীয় উদ্যোগ।’

টোয়াবের সদ্য সাবেক সভাপতি মো: রাফেউজ্জামান টোয়াব ইন্টারন্যাশনাল ট্যুরিজম অ্যাওয়ার্ড (টিটা) সম্পর্কে আলোচনা করেন।

সংবাদ সম্মেলনে পর্যটন করপোরেশন, ট্যুরিজম বোর্ড, ট্যুরিস্ট পুলিশ, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা ছাড়াও এবং টোয়াব ইন্টারন্যাশনাল ট্যুরিজম অ্যাওয়ার্ড (টিটা) অনুষ্ঠানের টেকনোলজি পার্টনার এম৩৬০ আইসিটির ভাইস প্রেসিডেন্ট চৌধুরী মোস্তাক আহমেদ ও (সিইও) ফাহিম শাহরিয়ার বক্তব্য রাখেন।

সঞ্চালনা করেন টোয়াবের পরিচালক (মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিকেশন) মোহাম্মদ ইউনুছ।


আরো সংবাদ



premium cement