Naya Diganta

পাপনের সাথে কথা বলবেন আকরাম, তারপর চূড়ান্ত বিবৃতি

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) ক্রিকেট অপারেশন বিভাগের দায়িত্ব ছাড়ছেন আকরাম খান। গতকাল সোমবার এক ফেসবুক পোস্টের মাধ্যমে বিষয়টি জানিয়েছেন তার সহধর্মিণী সাবিনা আকরাম।

মঙ্গলবার সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হলেও এ বিষয়ে খুব বেশি কথা বলেননি আকরাম। জানিয়েছেন, বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের সাথে আলোচনা করে বুধবার আনুষ্ঠানিক বিবৃতি দেবেন তিনি।

আকরাম খান বললেন, ‘আসলে আমি আজ কথা বলতে চাইনি। আপনারা এখানে চলে এসেছেন, তাই কিছু বলতে হবে। আমরা পারিবারিকভাবে একটি সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমার ব্যাপারে। যেহেতু গত ৮ বছর ক্রিকেট অপারেশন্সের দায়িত্বে ছিলাম। আমাদের মাননীয় বোর্ড সভাপতি, যিনি আমার অভিভাবক, তার কাছ থেকে সবচেয়ে বেশি সহযোগিতা পেয়েছি। যত খারাপ বা ভালো সময় গিয়েছে সবসময় তিনি আমার সাথে ছিলেন। উনার সাথে আলাপ করে কালকের মধ্যে সিদ্ধান্ত জানিয়ে দেব।’

সাথে যোগ করেন আকরাম, ‘বোর্ড সভাপতির সাথে কথা বলার আগে আমি আনুষ্ঠানিকভাবে আপনাদের কিছু বলতে পারব না। আপনারা এখানে এসেছেন, আপনাদের এটাই বলার আছে।’

২০১৪ সালে প্রথমবারের মতো বিসিবির পরিচালক নির্বাচিত হন আকরাম। তখন থেকেই ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্বে দেখা যায় তাকে। যদিও মাঝে একবার কিছুদিনের জন্য এই দায়িত্বে ছিলেন না তিনি। আবার বসেন একই চেয়ারে। কিন্তু গত কিছুদিন ধরেই এই কাজটা ঠিকঠাক উপভোগ করতে পারছিলেন না তিনি। সমালোচনার তোপেও ছিলেন।

সব মিলিয়ে পারিবারিক কারণ দেখিয়ে দায়িত্ব ছাড়তে চাইছেন আকরাম। তার আগে কথা বলতে চান পাপনের সাথে।

আকরাম বলেন, ‘আমি তিনটার দিকে একবার কল করেছি। উনি (পাপন) সাড়া দেননি। হয়ত যে কোনো সময় কল ব্যাক করবেন। কল ব্যাক করলেই আমি আলোচনা করে নেবো। কালকে বোর্ডে তো উনার সাথে দেখা হবেই। হ্যাঁ, পারিবারিক কারণেই। অনেক বছর ধরে এখানে ছিলাম। এখানে মানসিক-শারীরিক স্ট্রেন্থের দরকার আছে। সবকিছু মিলিয়েই একটু ব্রেক চাচ্ছি।’

বোর্ড সভাপতি আকরামকে দায়িত্বে থেকে যেতে বললে কী সিদ্ধান্ত নেবেন তিনি? আকরামের ব্যাখ্যা, ‘এটা উনার সাথে আলাপ করে। এখন এ ব্যাপারে কিছু বলতে চাই না। উনার সাথে আলাপ করেই আপনাদের জানাব।’