Naya Diganta

ঢাকায় গণপরিবহনে ‘হাফ ভাড়া’ কার্যকরের ঘোষণা মালিকদের

ঢাকায় শিক্ষার্থীদের জন্য বাসে অর্ধেক ভাড়া দেয়ার জন্য শিক্ষার্থীরা গত কিছুদিন ধরে যে দাবি জানিয়ে আসছিল সেটি মেনে নিয়েছে সড়ক পরিবহন মালিক সমিতি।

ঢাকায় এক সংবাদ সম্মেলনে সমিতির সভাপতি খন্দকার এনায়েত উল্যাহ বলেছেন, ছাত্রদের দাবিকে সমর্থন করে আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে বাসে ছাত্রদের জন্য হাফ ভাড়া কার্যকর করা হবে।

বাংলাদেশে সম্প্রতি তেলের দাম বাড়ার প্রেক্ষাপটে বাস ভাড়া বাড়ানোর পর শিক্ষার্থীরা অর্ধেক ভাড়া দেবার দাবিটি সামনে আনেন।

একসময় গণপরিবহনে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অর্ধেক ভাড়া নেবার প্রচলন থাকলেও সাম্প্রতিক বছরগুলোতে আর সেই রীতি অনুসরণ করতে চাইছিলেন না বেশিরভাগ গণপরিবহন মালিকেরা।

এবার তেলের দাম বাড়ানোর পর গণপরিবহনে অর্ধেক ভাড়া, ‘হাফ পাস’এর দাবিতে ঢাকাসহ কয়েকটি এলাকায় প্রতিবাদ, বিক্ষোভ প্রদর্শন করে স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীরা।

শিক্ষার্থীদের টানা বিক্ষোভের মুখে বৃহস্পতিবার এই ইস্যু নিয়ে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের সাথে পরিবহন মালিক-শ্রমিকদের বৈঠক হয়।

খন্দকার এনায়েত উল্যাহ বলেন, ‘ছাত্রদের যে দাবি ছিল তা নিয়ে দফায় দফায় আমরা বৈঠক করেছি। আমরা স্থির করেছি কাল থেকে বাসে হাফ ভাড়া কার্যকর হবে। সব পরিবহন মালিক ও শ্রমিকদের প্রতি আবেদন থাকবে ছাত্ররা যাতে হাফ ভাড়ায় যাতায়াত করতে পারে।

তিনি বলেন, হাফ ভাড়া দেয়ার সময় নিজ প্রতিষ্ঠানের ছবিযুক্ত আইডি কার্ড থাকতে হবে এবং সকাল সাতটা থেকে রাত আটটা পর্যন্ত এটি কার্যকর থাকবে।

তবে সাপ্তাহিক ও মৌসুমি ছুটির সময় হাফ ভাড়া কার্যকর থাকবে না এবং হাফ ভাড়ার এ সিদ্ধান্ত ঢাকার বাইরে প্রযোজ্য হবে না।

‘আশা করি ছাত্ররা এখন থেকে পড়ালেখায় মনোযোগী হবে। রাস্তায় আন্দোলন না করে তারা যেন নিজ প্রতিষ্ঠানে ফেরত যায় সে আবেদন থাকবে,’ বলছিলেন এনায়েত উল্যাহ।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ঢাকা শহরে অতীতে গাড়ীর সংখ্যা যা ছিল তা কমে যাচ্ছে কারণ ঢাকায় গাড়ী ব্যবসা লাভজনক নয়। ঢাকার রাস্তা অনুযায়ী গাড়ি বেশি কিন্তু যাত্রী অনুযায়ী গাড়ি অনেক কম।

সূত্র : বিবিসি