Naya Diganta

বেঁচে থেকেও মৃত আব্দুল সত্তার, ভাতা বঞ্চিত

পটুয়াখালীর মির্জাগঞ্জে জীবিত থেকেও বয়স্ক ভাতা থেকে বঞ্চিত হয়েছেন আব্দুল সাত্তার নাম। ৮২ বছরের জীবিত আব্দুল সাত্তারকে মৃত দেখানোয় ভাতা বঞ্চিত হচ্ছেন তিনি। এতে বিপাকে পড়েছেন ওই বৃদ্ধ।

আব্দুল ছত্তার উপজেলার মজিদ বাড়িয়া ইউনিয়নের দক্ষিণ মজিদ বাড়িয়া গ্রামের মৃত হজরত আলীর ছেলে।

তিনি জানান, ২০১৯ সালে জুলাই মাসে বয়স্ক ভাতায় তার নাম চূড়ান্ত তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হয়। এরপর থেকে ২০২০ সালের জুন মাস পর্যন্ত এক বছরের ভাতা উত্তোলন করেন তিনি। ২০২০ সালের জুলাই মাস থেকে বয়স্ক ভাতাভোগীদের নাম অনলাইনে অন্তর্ভুক্ত করার পর তিনি জীবিত থাকলেও তাকে নির্বাচন কমিশনার ভোটার আইডি কার্ড অনলাইনস্ট্যাটাসে মৃত দেখানো হয়। এরপর থেকে তিনি দীর্ঘ ১১ মাস ভাতার টাকা উত্তোলন করতে পারেননি।

সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো: গোলাম সরোয়ার কিচলু বলেন, ‘আব্দুল সত্তার জীবিত আছেন। আমার কাছে এসে তিনি জীবিত থাকার প্রত্যয়নপত্র নিয়েছেন।’ ভুলবশত এমনটা হতে পারে বলে তিনি মনে করেন।

উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা মো: হেমায়েত উদ্দিন জানান, গত বছরের জুলাই মাস থেকে জাতীয় পরিচয়পত্রের মাধ্যমে বয়স্ক ভাতাভোগীদের নাম অনলাইনে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। এ সমস্যাটি নির্বাচন অফিসের সাথে সম্পর্কিত। এখানে আমাদের কিছুই করার নেই। নির্বাচন অফিস থেকে তার আইডি কার্ড সংশোধন করা হলে তিনি পুনরায় ভাতার টাকা উত্তোলন করতে পারবেন।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো: শাহাদৎ হোসেন জানান, সংশোধনের জন্য তিনি লিখিত আবেদন করলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।