Naya Diganta

ভোলার দুই পৌরসভায় নৌকার প্রার্থী বিজয়ী

ভোলার দুই পৌরসভায় নৌকার প্রার্থী বিজয়ী

ভোলা ও চরফ্যাশন পৌরসভায় মেয়র পদে আওয়ামী লীগ-মনোনীত প্রার্থীরা বিজয়ী হয়েছেন। রোববার সন্ধ্যায় ভোটগণনা শেষে রির্টানিং অফিস থেকে এ তথ্য পাওয়া গেছে।
ভোলা পৌরসভায় মেয়র পদে মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান মনির নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি এ নিয়ে তৃতীয়বারের মতো মেয়র নির্বাচিত হলেন। অন্যদিকে চরফ্যাশন পৌরসভায় প্রথমবারের মতো মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন মোঃ মোরশেদ।

ভোলা পৌরসভায় মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান মনির নৌকা প্রতীকে পেয়েছেন ১৬ হাজার ৯৯ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি বিএনপির প্রার্থী হারুন অর রশিদ ট্রুম্যান পেয়েছেন ২ হাজার ৩৪ ভোট।
চরফ্যাশন পৌরসভায় প্রথম বারের মত মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন মোঃ মোরশেদ। নৌকা প্রতীকে তিনি পেয়েছেন ভোট ১৪ হাজার ৯১৮ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি স্বতন্ত্র প্রার্থী শরীফ হোসেন ৭৮৮ ভোট। এখানে বিএনপির প্রার্থী হুমায়ুন কবির পেয়ছেন ৭৪৬ ভোট।

ভোলার সহকারি রির্টানিং অফিসার মিজানুর রহমান খান বলেন, শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোটগ্রহণ সমাপ্ত হয়েছে। ভোলা পৌরসভায় ৫২ দশমিক ২৭ শতাংশ ভোট কাস্ট হয়েছে।
অন্যদিকে চরফ্যাশন সহকারি রির্টানিং অফিসার রফিকুল ইসলাম বলেন, এ পৌরসভায় ৫৯ দশমিক ৭৪ শতাংশ ভোট কাস্ট হয়েছে।

এদিকে ভোলার পৌরসভায় সাধারণ কাউন্সিলর পদে ১নং ওয়ার্ডে মঞ্জুরুল আলম, ২নং ওয়ার্ডে মিজানুর রহমান, ৩নং ওয়ার্ডে সালাউদ্দিন লিংকন, আসাদ হোসেন জুম্মান, ৪নং ওয়ার্ডে এফরানুর রহমান মিথুন মোল্লা, ৬নং ওয়ার্ডে ওমর ফারুক, ৭নং ওয়ার্ডে শাহে আলম, ৮নং ওয়ার্ডে নাছির উদ্দিন হেলাল ও ৯নং ওয়ার্ডে মাইনুল হোসেন শামিম নির্বাচিত হয়েছে। এছাড়া সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ১,২ ও ৩নং ওয়ার্ডে জোসনা ইয়াসমিন, ৪ ,৫ ও ৬নং ওয়ার্ডে সামসুন নাহার সোনিয়া ও ৭,৮,৯ নং ওয়ার্ডে রাজিয়া সুলতানা নির্বাচিত হয়েছে।

অন্যদিকে চরফ্যাশন পৌরসভায় ১নং ওয়ার্ডে স্বপন চৌধুরী, ২নং ওয়ার্ডে মো: মফিজ, ৩নং ওয়ার্ডে আ: মতিন, ৪নং ওয়ার্ডে আকতারুল আলম সামু, ৫নং ওয়ার্ডে গিয়াস উদ্দিন, ৬নং ওয়ার্ডে মনির হোসেন (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতা), ৭নং ওয়ার্ডে মোস্তাহিদুল হক, ৮নং ওয়ার্ডে ছিদ্দিকুর রহমান ও ৯নং ওয়ার্ডে মিজানুর রহমান মঞ্জু বিজয়ী হয়েছেন। এ পৌরসভায় সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ১, ২ ও ৩নং ওয়ার্ড থেকে ফরিদা পারভিন, ৪,৫ ও ৬নং ওয়ার্ড থেকে রেজোয়ানা পারভীন (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতা) ও ৭,৮ ও ৯নং ওয়ার্ড থেকে জাহানারা বেগম বিজয়ী হয়েছেন।