Naya Diganta

পরাধীন

কেউ যখন তার স্বাধীনতার কথা বলে
আমি তখন পরাধীনতার জালে বন্দী
কেউ যখন তার সুখের কথা বলে
আমার মনে দুঃখের সঙ্গীত সুর বাজে
কেউ যখন ভালোবাসার কথা বলে
আমি বলি স্বপ্ন !

আমার বুকের ভেতর উত্তোলিত পতাকা
অকস্মাৎ অগ্নিতে পুড়ে ভস্ম হয় !
আমি স্বপ্নচ্যুত হয়ে পড়ি !

প্রতিটি মানুষের কণ্ঠ হতেই উচ্চারিত হয়
কিছু নিজস্ব ভাব ভাষা অভিব্যক্তি, অথচ
আমার কথারা বন্দী এক অযাচিতের খাঁচায় !
আমার অনুভূতিগুলো বেদনায় আর্তনাদ করে
চাইলেও জীবনের সুখ নির্মাণ হয় না !

খ্যাতির মোহর হাতে নিয়েও কৃতদাস হয়ে থাকি
এক নগ্ন চেতনার বলিদান আমি
জনসম্মুখে প্রকাশ হয় না কোনো করুণ কাহিনী
আমার জিহ্বা আড়ষ্ঠ হয়ে যায় নগ্নতা দেখে !

আমার ভেতর অসংখ্য চোখের জন্ম হয়
কেউ কেউ কাঁদে কেউ তীক্ষè দৃষ্টিতে দেখে
অযাচিতের কুৎসিত রূপ-
কেউ কেউ প্রকৃতির দিকে চেয়ে থাকে, আর
ভাবে- হায় প্রকৃতি, তুমি আমার হলে না !
আবার কেউ অন্ধকারের পেছনে দেখে আলো !
নিশ্চিত আলো-

তখন সকল পরাধীনতাকে তীব্র কষাঘাত করে
আমার বুকের ভেতর আবার উত্তোলিত হয়
স্বাধীন পতাকা-
সে শক্তিতে ফের ঘুরে দাঁড়ায় এই জীবন!!!