Naya Diganta

কাজ খুঁজছেন অমিতাভ বচ্চন

কাজ খুঁজছেন অমিতাভ বচ্চন

করোনা মুক্ত হয়ে কাজ খুঁজছেন অমিতাভ বচ্চন। তবে সিনেমায় নয়! অন্য কোনও কাজ খুঁজছেন বিগ-বি। করোনা আক্রান্ত হওয়ার দিন থেকে নেটিজেনদের সঙ্গে ব্লগ ও সোশাল মিডিয়া মারফত যোগাযোগ রেখেছিলেন অভিনেতা। এদিন ব্লগে তিনি মহামারীর মধ্যে কাজের সুযোগ খুঁজে পাওয়ায় `উদ্বেগ' প্রকাশ করেছেন। শুক্রবার বম্বে হাইকোর্টের নির্দেশে মহারাষ্ট্র সরকার শুটিংয়ে বয়সের ঊর্ধ্বসীমা তুলে দিয়েছে। ফলে এখন থেকে ৬৫ বছরের বেশি বয়সীরাও শুটিং করতে পারবেন। করোনার সংক্রমণের দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর শুটিং চালু হলেও শুক্রবার পর্যন্ত শুটিংয়ে যেতে পারতেন না বিগ বি। সেই জন্যই এই উদ্বেগের কথা জানিয়েছেন তিনি।

“অবশ্যই আরও অনেক উদ্বেগ রয়েছে যা মনকে ঝামেলার মধ্যে দিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। করোনাভাইরাসের সংক্রমণের জেরে দীর্ঘদিন ধরে বলিউডে সমস্ত সিনেমা, টিভি ধারাবাহিকসহ যাবতীয় অনুষ্ঠানের শুটিং বন্ধ ছিল। কয়েক সপ্তাহ আগেই ফের শুটিং চালুর অনুমোদন দিয়েছে মহারাষ্ট্র সরকার। কিন্তু ৬৫ বছরের বেশি বয়সি অভিনেতা-অভিনেত্রী ও কলাকুশলীদের শুটিং সেটে যাওয়া যাবে না বলে নির্দেশিকায় বলা হয়েছিল। … আমার মতো ব্যক্তিদের জন্য, যাদের পেশা অভিনয় এবং আমার ৭৮ বছর। কী করনীয় তাহলে আমাদের! এই প্রশ্নে শনিবার উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন অভিনেতা।

আদালত দুটি আবেদনের শুনানি করছে, একটি ৭০ বছরের অভিনেতা প্রমোদ পান্ডে এবং অন্যটি ইন্ডিয়ান মোশন পিকচার্স প্রযোজক সমিতি (আইএমপিপিএ) দায়ের করা মামলা। শুনানির পর ৬৫ বছরের বেশি বয়সের অভিনেতা-অভিনেত্রী ও কলাকুশলীদের সিনেমা ও ধারাবাহিকের শুটিং সেটে যাওয়ার অনুমতি দিয়েছে বম্বে হাইকোর্ট। শুধুমাত্র বয়সের জন্য আলাদা করে কোনও নিয়ম হতে পারে না, পর্যবেক্ষণ উচ্চ আদালতের।

বচ্চন বলেন, `আমরা যে চলচিত্র জগতের সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে জড়িত তারা আদালতের রায়ের বিরোধিতা করেছিল এবং মাননীয় উচ্চ আদালত বয়সের সীমাবদ্ধতা বাতিল করে দিয়েছে এবং আমি মনে করি ৫০ বছরের বেশি বয়সীদের কাজ আসতে আসতে নিরাপদ হয়ে উঠবে ..কিন্তু আমি ভাবছি যে এর থেকে কী করে বেরিয়ে আসবে মানুষ'।

এরই মধ্যে, প্রবীণ অভিনেতা তার অনুরাগীদের বিকল্প কেরিয়ারের পরামর্শ দিতে বলেছেন। তিনি জানতে চান, আদালতের মধ্যেই যদি রফদফা হয়ে যায় তাহলে বলতে পারেন আমার জন্য আর কোন ধরনের কাজ রয়েছে যা আমি এখন করতে পারি। সূত্র: ইন্ডিয়ারন এক্সপ্রেস