Naya Diganta

ওমরায় গিয়ে পাঁচজন দেশে না ফেরায় দুই এজেন্সিকে নোটিশ

পবিত্র ওমরা পালন করতে গিয়ে পাঁচজন যাত্রী দেশে না ফিরে আসায় দু’টি বেসরকারি ওমরাহ এজেন্সিকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দিয়েছে ধর্ম মন্ত্রণালয়। যাত্রীদের চারজনই বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) শিক্ষার্থী।
সংশ্লিষ্ট এজেন্সির বিরুদ্ধে হজ ও ওমরাহ নীতিমালা অনুযায়ী কেন শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে না সাত কর্মদিবসের মধ্যে তার জবাব দিতে বলা হয়েছে।
নোটিশে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের একটি পত্রের বিষয় উল্লেখ করে বলা হয়, চলতি বছরের ২৫ জানুয়ারি বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) চার ছাত্রসহ পাঁচজন ওমরা পালনের জন্য সৌদি আরব যান। এর মধ্যে সাদমান ট্রাভেলস (হজ লাইসেন্স নম্বর-১১৪৪) থেকে তিনজন ও বিএমএস ট্রাভেল (ওমরা লাইসেন্স নম্বর-৬৯) এজেন্সির মাধ্যমে দুইজন সৌদি আরব যান। ওমরা পালন শেষে তারা বাংলাদেশে ফিরে আসেননি।
জাতীয় হজ ও ওমরা নীতি-১৪৪০ হি./২০১৯ এর ২২.২.১ এবং ২০২০ সালের জন্য বৈধ প্রকাশিত এজেন্সির তালিকার শর্ত অনুযায়ী সংশ্লিষ্ট এজেন্সি কর্তৃক প্রেরিত ওমরাযাত্রীকে দেশে ফেরত আনা নিশ্চিত করার বাধ্যবাধকতা রয়েছে। অন্যথায় সংশ্লিষ্ট এজেন্সির বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করার বিধান রয়েছে।
সাদমান ট্রাভেলসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও স্বত্বাধিকারী ড. মো: হাসানুজ্জামান ও বিএমএস ট্রাভেলসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও মালিক এম এ খান বেলালের অফিসের ঠিকানায় শোকজ নোটিশ পাঠানো হয়েছে।