১৬ জুন ২০২১
`

ঈশ্বরগঞ্জে বাকি নিয়ে সংঘর্ষে দোকানি নিহত, আহত ৪

ঈশ্বরগঞ্জে দোকান বাকি নিয়ে সংঘর্ষে দোকানি নিহত - ছবি- সংগৃহীত

ময়মনসিংহে ঈশ্বরগঞ্জে দোকানের বাকি নিয়ে ক্রেতা-বিক্রেতার মাঝে সংঘর্ষ হয়েছে। এতে এক মুদি দোকানি নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন আরো চারজন। শুক্রবার বিকেলে এ সংঘর্ষ হয়।

জানা গেছে, সংঘর্ষে আহত মুদি দোকানিকে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতে তার মৃত্যু হয়।

মৃত আজিজুল হক (৩৯) উপজেলার তারুন্দিয়া ইউনিয়নের পুনাইল গ্রামের আছর উদ্দিনের ছেলে। তিনি কৃষি কাজের পাশাপাশি বাড়ির সামনে ছোট একটি মুদি দোকান দিয়ে ব্যবসা করতেন। আজিজুলের ভাতিজা শাহ আলমেরও একটি মুদি দোকান রয়েছে একই ইউনিয়নের পলাশকান্দা ভারতী বাজারে। শাহ আলমের দোকান থেকে সাখুয়া গ্রামের হাফিজ উদ্দিনের ছেলে সোয়াইব আহমেদ সোহেল চার হাজার টাকার মালামাল বাকিতে নেন। কিন্তু বছর পেরিয়ে গেলেও তিনি বকেয়া টাকা দিচ্ছিলেন না। বিষয়টি নিয়ে দেন দরবার হলে সোহেলের প্রতিবেশী সবুজ টাকা দেয়ার দায়িত্ব নেন।

শুক্রবার বিকেলে শাহ আলমকে টাকা দেয়ার কথা ছিলো সবুজের। ওই দিন বিকেকলে সবুজ ভারতী বাজারে গেলে টাকা চান শাহ আলম। টাকা চাওয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে উঠেন সবুজ। এ নিয়ে বাগ্বিতণ্ডার একপর্যায়ে দু’পক্ষের লোকজন জড়ো হয় বাজারে। এরপর সবুজের লোকজন শাহ আলমের চাচা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান প্রার্থী মহিউদ্দিন আজাদ মানিকের ওপর হামলা করে। এ সময় আজিজুল হক উভয় পক্ষের লোকজনকে থামাতে গেলে তার ওপরও হামলা হয়। এতে গুরুতর আহত হন আজিজুল হকসহ পাঁচজন। আহত আজিজুলকে প্রথমে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ও পরে অবস্থার আরো অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে রাত সাড়ে ১০ টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

শনিবার সকালে ঈশ্বরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো: আবদুল কাদির মিয়া বলেন, দোকানের বাকি নিয়ে বিরোধে হত্যার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। হত্যায় জড়িতদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।



আরো সংবাদ