০৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৪ মাঘ ১৪২৯, ১৫ রজব ১৪৪৪
ads
`

রাজশাহীতে যুবদল কর্মীকে গুলি করার অভিযোগ ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে

-

রাজশাহীতে এক যুবদল কর্মী গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। তার নাম আরিফুল আলম ওরফে জন (৪৫)। গত মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে নগরীর রাজারহাতা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহতাবস্থায় আরিফুলকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। রাজশাহী মহানগর ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মাহমুদ হাসান রাজিব এ ঘটনার সাথে জড়িত বলে দাবি করছেন আরিফুলের স্বজনরা। আরিফুল আলম ওরফে জন গুলিবিদ্ধ হয়ে গুরুতর আহত হওয়ার বিষয়টি নয়া দিগন্তকে নিশ্চিত করেছেন রাজশাহী মহানগর বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক আসলাম সরকার।


আরিফুল আলম রাজশাহী সরকারি সিটি কলেজসংলগ্ন রাজারহাতা এলাকার বাসিন্দা আশরাফুল আলমের ছেলে। এ ছাড়া তিনি মহানগর বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক আসলাম সরকারের ভাতিজা ও যুবদলের কর্মী। মঙ্গলবার রাতে অস্ত্রোপচার শেষে আরিফুল বর্তমানে রামেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।
জানতে চাইলে আরিফুলের চাচা আসলাম সরকার বলেন, তার ভাতিজা এক সময় ছাত্রদল করতেন। তিনি রাজশাহী সিটি কলেজ ছাত্রদলের রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলেন। বর্তমানে তিনি যুবদল করেন। তবে যুবদলে আরিফুলের কোনো পদ-পদবি নেই।


আসলাম সরকার আরো বলেন, গত সোমবার সন্ধ্যায় রাজারহাতা এলাকায় রাস্তায় গাড়ি রাখা নিয়ে স্থানীয় কয়েকজন যুবকের সাথে আরিফুলের বাগি¦তণ্ডা হয়। এ ঘটনার পর ওই যুবকেরা প্রচার করে দেন যে তিনি আওয়ামী লীগকে গালাগাল করেছেন। এ কথা শুনে ওই দিন সাবেক ছাত্রলীগ নেতা রাজীব হাসান তার ভাতিজা আরিফুলকে মারতে এসেছিলেন। তবে আরিফুল ওই সময় সেখানে ছিলেন না। পরে মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে আরিফুলকে একা পেয়ে রাজীব তার দলবল নিয়ে এসে তার মাথায় পিস্তল ঠেকান। একপর্যায়ে আরিফুলকে পায়ে গুলি করেন।
অভিযোগের বিষয়ে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা মাহমুদ হাসান রাজীব সাংবাদিকদের বলেন, আরিফুল মাদকের কারবার করেন। মাদক কারবার নিয়ে তার কারবারে অংশীদারদের সাথে ঝামেলা চলছিল। এ নিয়ে তাদেরই (কারবার অংশীদার) কেউ গুলি করেছে বলে শুনেছি। এ ঘটনার সাথে নিজের কোনো সংশ্লিষ্টতা নেই বলে দাবি করেন রাজীব।


বোয়ালিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাজহারুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান, এলেই গুলি করার ঘটনা ঘটেছে কি না, সেটা এখনো নিশ্চিত নয়। আরিফুলের পরিবারের পক্ষ থেকে দাবি করা হচ্ছে, রাজীবই গুলি করেছেন। কিন্তু আরিফুলের পরিবার এখন পর্যন্ত থানায় কোনো লিখিত অভিযোগ দেননি।


আরো সংবাদ


premium cement