১৯ এপ্রিল ২০২১
`

অন্যকে ফাঁসাতে গিয়ে নিজেই ফেঁসে গেলেন

-

নোয়াখালীর সূবর্ণচরে পূর্বশক্রতার জেরে মাদক দিয়ে অন্যকে ফাঁসাতে গিয়ে নোবিপ্রবির ড্রাইভার নিজেই ফেঁসে গেলেন। শুক্রবার দুপুরে পুলিশ তাকে বিচারিক আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠিয়েছে। এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে পুলিশ মাদকসহ জামশেদ হোসেন সোহাগকে (৩৫) আটক করে। সে উপজেলার পূর্বচরবাটা ইউনিয়নের হাজীপুর গ্রামের মৃত সাহাব উদ্দিনের ছেলে এবং নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ব বিদ্যালয়ের গাড়িচালক।
জানা যায়, সোহাগের সাথে একই উপজেলার চর আমান উল্যা ইউনিয়নের নেয়াপাড়া গ্রামের কালা মিয়ার ছেলে জহিরুল ইসলামের জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। ঘটনার রাতে জহিরকে চালক সোহাগ তার বাড়ির পাশে একা পেয়ে আটক করে। পরে তার হাতে সাত বোতল বাংলা মদ দিয়ে থানা পুলিশকে খবর দেয়। সোহাগ মদ নিয়ে আসার সময় বিষয়টি এলাকার অনেক মানুষের দৃষ্টিতে পড়ে। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে উপস্থিত এলাকাবাসী মদগুলো সোহাগের বলে পুলিশকে জানায়। পুলিশ ঘটনাস্থলে সোহাগকে মদসহ আটক করে থানায় নিয়ে যায়।



আরো সংবাদ