০৭ জুলাই ২০২০

বগুড়ায় স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতার গুদাম থেকে ওএমএসের ৩৩ বস্তা চাল উদ্ধার

-

করোনা দুর্যোগ মোকাবেলায় সরকারের চালু করা বিশেষ ওএমএস কার্যক্রমের ১০ টাকা কেজি দরের ৩৩ বস্তা চাল উদ্ধার করেছে বগুড়া সদর থানা পুলিশ। শুক্রবার রাতে বগুড়া সদর থানার এসআই জহুরুল ইসলাম সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে বগুড়া সদর উপজেলার গোকুল ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন একটি মাল্টিপারপাস কোআরেটিভ সমিতির ঘর থেকে চালগুলো উদ্ধার করেন। তবে এ ঘটনার সাথে জড়িত কেউ আটক হয়নি।
স্থানীয় লোকজন জানান, বগুড়া সদর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক সাইফুল ইসলাম সরকার গোকুল ইউনিয়নের ডিলার। স্থানীয়রা জানান, যে পরিত্যক্ত ঘর থেকে সরকারি চালগুলো উদ্ধার করা হয়েছে সে ঘরটি ডিলার সাইফুল ইসলাম সরকার ব্যবহার করতেন। ডিলার সাইফুল ইসলাম সরকার গোকুল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সওকাদুল ইসলাম সরকার সবুজের বড় ভাই।
বগুড়া সদর উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো: মনিরুল হক জানান, বিশেষ ওএমএস কার্যক্রমের কার্ডধারীদের গত ৩১ মে ১০ টাকা কেজি দরের চাল বিতরণ শেষ করা হয়েছে। গোকুল ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন সমিতির ঘর থেকে যে সরকারি চাল উদ্ধার করা হয়েছে সে ব্যাপারে তিনি বলেন, চালগুলো অবশ্যই কালোবাজারের চাল। তদন্ত করলেই প্রকৃত ঘটনা বের হয়ে আসবে। শনিবার দুপুরে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত পুলিশের পক্ষ থেকে এ বিষয়ে উপজেলা খাদ্য বিভাগের কাউকে কিছু জানানো হয়নি বলেও তিনি জানান।
ডিলার সাইফুল ইসলাম সরকার বলেন, তিনি পরিত্যক্ত ওই ঘর ব্যবহার করেন না। উদ্ধার হওয়া সরকারি চালগুলোর ব্যাপারেও তিনি কিছু জানেন না।
গোকুল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সওকাদুল ইসলাম সরকার সবুজ বলেন, সম্প্রতি স্থানীয় কিছু অবৈধ বালু উত্তোলনকারীর বিরুদ্ধে শক্ত ব্যবস্থা নেয়ার কারণে কেউ শত্রুতা করে আমার এবং বড় ভাইয়ের মান সম্মানহানি করার উদ্দেশ্যে পুলিশকে দিয়ে এ কাজ করেছে।
এ ব্যাপারে বগুড়া সদর থানার এসআই জহুরুল ইসলাম জানান, স্থানীয়দের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে গোকুল ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন একটি পরিত্যক্ত ঘর থেকে ৩৩ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়েছে। তিনি জানান, এ ব্যাপারে এখনো আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হয়নি।

 


আরো সংবাদ