০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৯ মাঘ ১৪২৯, ১০ রজব ১৪৪৪
ads
`

আইফোনে ‘সি পোর্ট’ই ব্যবহার করতে হবে

আইফোনে ‘সি পোর্ট’ই ব্যবহার করতে হবে - ছবি : সংগৃহীত

বদলে যাচ্ছে অ্যাপলের আইফোনের চার্জার। ‘স্মার্টফোনের এক ধরনের চার্জার’ নীতি মেনে আইফোনের পরবর্তী সংস্করণগুলোতে সি পোর্টের চার্জারে চার্জ দেয়ার ব্যবস্থা থাকবে। এত দিন অ্যাপলের নিজস্ব লাইটেনিং পোর্টে চার্জ দিতে হতো আইফোনে। তবে মঙ্গলবার অ্যাপলের মার্কেটিং ডিরেক্টর গ্রেগ জস উইয়াক জানিয়েছেন, ইউরোপীয় ইউনিয়ন স্মার্টফোনের চার্জার-সংক্রান্ত যে নীতি এনেছে, তা মানতে বাধ্য হয়েছে তারা।

ইউরোপীয় ইউনিয়ন আগেই জানিয়েছিল, সমস্ত স্মার্টফোনের চার্জার একই রকম হতে হবে। এই নিয়ম আগামী বছরের গোড়া থেকেই কার্যকর হতে পারে বলে বিশেষজ্ঞদের অনুমান। তাই আইফোন নির্মাতারা আগে থেকেই প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছেন। তাঁরা জানিয়েছেন, আইফোন ১৫ হতে চলেছে অ্যাপলের প্রথম আইফোন, যাতে সি পোর্ট চার্জার ব্যবহার করা যাবে। যদিও বিশেষজ্ঞদের একাংশ এ-ও মনে করছেন, ইউরোপীয় ইউনিয়নের নির্দেশ কার্যকর হতে হতে আরো এক বছর লেগে যেতে পারে। সে ক্ষেত্রে হয়তো ২০২৪ সাল থেকেই ‘সব স্মার্টফোনের এক ধরনের চার্জার’ নীতি সব দিক থেকে কার্যকর হবে।

আলাদা চার্জিং পোর্টের জন্য আইফোনে চার্জ দিতে অনেক ক্ষেত্রেই বিপদে পড়তে হয় ব্যবহারকারীদের। তবে এ-ও ঠিক অন্যান্য স্মার্টফোনের থেকে অ্যাপলকে স্বতন্ত্রও করে তার চার্জিং পোর্ট। তা ছাড়া এতে ব্যবসারও সুবিধা হয়। কারণ চার্জার হারালে বা খারাপ হলে অ্যাপল থেকেই চার্জার কিনতে হয় আইফোন ব্যবহারকারীকে।

সম্প্রতি অ্যাপল তাদের ম্যাকবুক এবং আইপ্যাডের চার্জিংয়ের জন্যও সি পোর্ট বিশিষ্ট চার্জারের ব্যবহার শুরু করেছে। তবে অ্যাপলের চার্জিং পোর্ট বদলের ঘোষণায় আরও একটি প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। ব্যবহারকারীরা জানতে চেয়েছেন, সি পোর্ট বিশিষ্ট চার্জারের ব্যবহার কি শুধু ইউরোপেই সীমাবদ্ধ থাকবে? না কি মহাদেশের গণ্ডি পেরিয়ে অন্যত্রও একই নিয়ম চালু হবে?

উল্লেখ্য, ইউরোপ ছাড়া অন্যান্য দেশও ইদানীং সব ফোনের একই চার্জার নীতি কার্যকর করার কথা ভাবতে শুরু করেছে।
সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা


আরো সংবাদ


premium cement