২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১
`

‘করোনা ভ্যাকসিনের সাথে মৃত্যুর সরাসরি সম্পর্ক নেই’

‘করোনা ভ্যাকসিনের সাথে মৃত্যুর সরাসরি সম্পর্ক নেই’ - ছবি - সংগৃহীত

করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন নেয়ার পরপরই কয়েক ডজন মানুষের মৃত্যু হলেও বিজ্ঞানীরা বলছেন, এখন পর্যন্ত যেসব আলামত পাওয়া গেছে তাতে ভ্যাকসিনের সাথে মৃত্যুর সরাসরি কোনো সংশ্লিষ্টতা মেলেনি। ইউরোপের স্বাস্থ্য সংস্থাগুলো জোর দিয়ে বলেছে, ভ্যাকসিন নেয়ার পর যারা মারা গেছেন; তাদের মধ্যে বেশিরভাগই প্রবীণ, আগে থেকেই ঝুঁকিপূর্ণ এবং প্রায় সময়ই অসুস্থ ছিলেন।

চলতি মাসের শুরুর দিকে ফাইজার-বায়োএনটেকের ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ নেয়ার পর অবসর নিবাস কেন্দ্রের ২০ হাজার বাসিন্দার মধ্যে ৩৩ জন মারা গেছেন বলে জানায় নরওয়ে। গত সপ্তাহে এই খবর ছড়িয়ে পড়ার পর বিশ্বজুড়ে ভ্যাকসিন নিয়ে মানুষের মধ্যে উদ্বেগ-উৎকণ্ঠা বৃদ্ধি পায়। নরওয়েতে ভ্যাকসিন নেয়ার পর মৃতদের মধ্যে অন্তত ১৩ জন অল্প বয়সী ছিলেন; নরওয়ে ইনস্টিটিউট অব পাবলিক হেলথ তাদের ব্যাপারে বলছে, এই ১৩ জন গুরুতর অসুস্থ ছিলেন।

যদিও তাদের মৃত্যুর কারণ জানতে এখন পর্যন্ত কোনো ধরনের বিশ্লেষণ করা হয়নি। তবে সংস্থাটি বলছে, প্রবীণ এবং ঝুঁকিপূর্ণদের মধ্যে জ্বর এবং বমি বমি ভাবের মতো ভ্যাকসিনের হালকা কিছু পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া স্বাভাবিক বিষয়।

নরওয়ের বাইরে এই খবর ব্যাপক উদ্বেগ তৈরি করে এবং ভ্যাকসিনবিরোধী সংশয়বাদীরা বিষয়টি নিয়ে তুমুল আলোচনা শুরু করলে কর্তৃপক্ষ জোর দিয়ে বলে, ভ্যাকসিন নেয়া এবং মৃত্যুর সরাসরি কোনো সম্পর্ক পাওয়া যায়নি।

ইউরোপের দেশগুলোর মধ্যে ফ্রান্সে এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন ৮ লাখের বেশি মানুষকে দেয়া হয়েছে। দেশটিতে শুক্রবার পর্যন্ত ভ্যাকসিন নেয়ার পর কেয়ার হোম এবং অবসর নিবাসের অসুস্থ বাসিন্দাদের ৯ জন মারা গেছেন।

দেশটির জাতীয় ওষুধ সংস্থা এএনএসএম বলছে, যেসব মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে; তদন্তে সেগুলোর সঙ্গে ভ্যাকসিনের সরাসরি সম্পৃক্ততা ছিল, এমন সিদ্ধান্তে পৌঁছানোর মতো প্রমাণ পাওয়া যায়নি। ইউরোপের অন্য দুই দেশ সুইডেনে ১৩ এবং আইসল্যান্ডে সাত প্রবীণ মারা গেছেন। তাদের মৃত্যুর সঙ্গেও করোনা ভ্যাকসিনের সংশ্লিষ্টতার প্রমাণ মেলেনি।

পর্তুগালে করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন নেয়ার মাত্র দু’দিন পর দেশটির এক স্বাস্থ্যসেবা কর্মী মারা গেছেন। দেশটির আইন ও বিচারবিষয়ক মন্ত্রণালয় বলছে, ময়না তদন্ত প্রতিবেদনে ওই স্বাস্থ্যকর্মীর মৃত্যুর সঙ্গে ভ্যাকসিনের সরাসরি কোনও ভূমিকা পাওয়া যায়নি।

গত ১৮ জানুয়ারি ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ইউরোপে করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন নেয়ার পর ৭১ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জানায়। নিজেদের পর্যবেক্ষণে ইউরোপে এই মৃত্যুর রেকর্ড প্রকাশ করলেও বিস্তারিত কোনও তথ্য দেয়নি দেশটি।

ইউরোপীয় মেডিসিনস সংস্থা (ইএমএ) বলছে, মৃত্যু সত্ত্বেও আজ পর্যন্ত কোমিরন্যাটির উদ্বেগজনক নির্দিষ্ট কিছু পাওয়া যায়নি। মার্কিন ওষুধপ্রস্তুতকারক কোম্পানি ফাইজার এবং জার্মানির বায়োএনটেকের তৈরি করোনা ভ্যাকসিনের বাণিজ্যিক নাম ‘কোমিরন্যাটি।’

তবে ভ্যাকসিন নেয়ার পর মৃত্যুর যেসব অভিযোগ উঠেছে; সেগুলোতে আদৌ ভ্যাকসিন দায়ী কিনা তা জানতে কর্তৃপক্ষ তদন্ত করেছে। স্বাস্থ্য কর্মকর্তা, ফার্মাসিউটিক্যালস কোম্পানি এবং রোগীদের কাছ থেকে ভ্যাকসিনের যেকোনও ধরনের সমস্যার অভিযোগ পেলেই তা তদন্ত করছে ইউরোপের বিভিন্ন দেশ এবং সংস্থা।

বিশ্বজুড়ে এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিনের ৬ কোটি ৩০ লাখের বেশি ডোজ ইতোমধ্যে মানবদেহে প্রয়োগ করা হয়েছে। বিশ্বের ৬৪টি দেশ ইতোমধ্যে এই ভ্যাকসিন পেয়েছে বলে ফরাসী বার্তাসংস্থা এএফপির পরিসংখ্যান বলছে। ২০১৯ সালের ৩১ ডিসেম্বর চীনের হুবেই প্রদেশের উহানের সামুদ্রিক খাবার বিক্রির একটি বাজারে উৎপত্তি হওয়া করোনাভাইরাসে বিশ্বজুড়ে আক্রান্তের সংখ্যা ৯ কোটি ৯৪ লাখ ১৭ হাজার ছাড়িয়েছে এবং প্রাণ গেছে ২১ লাখ ৩২ হাজারের বেশি মানুষের।

সূত্র : মেট্রো ডট ইউকে



আরো সংবাদ


ক্ষমতায় গেলে পিলখানা হত্যার পুনর্বিচারের উদ্যোগ নেবে বিএনপি জনসনের টিকা এক ডোজই যথেষ্ট ভাষা দিবস উপলক্ষে নারী অধিকার আন্দোলনের আলোচনা সভা ঢাকা-নিউ জলপাইগুড়ি রুটে ট্রেন, চলবে সপ্তাহে দুদিন আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ চায় সেনাবাহিনী পিলখানা হত্যাযজ্ঞ দেশ ও জাতির বিরুদ্ধে গভীর ষড়যন্ত্রের অংশ : গোলাম পরওয়ার ‘হারফি’র ৫ম আউটলেট ধানমন্ডিতে, উদ্বোধন করলেন সৌদি রাষ্ট্রদূত রুটের দুরন্ত ঘূর্ণি, ১৪৫ রানে গুটিয়ে গেল ভারত ঝালকাঠিতে হত্যা মামলায় ৩ জনের যাবজ্জীবন বিএম কলেজের শিক্ষার্থীদের ৩ ঘণ্টা সড়ক অবরোধ ফারমার্স ব্যাংকের মাহবুবুল হক চিশতীর স্ত্রীর জামিন বাতিলে রুল

সকল