২৬ নভেম্বর ২০২০

অনলাইন দাবা অলিম্পিয়াডে যুগ্মচ্যাম্পিয়ন ভারত ও রাশিয়া

অনলাইন দাবা অলিম্পিয়াডে যুগ্মচ্যাম্পিয়ন ভারত ও রাশিয়া - ছবি -ইন্টারনেট

বিশ্বের প্রথম অনলাইন বিশ্ব দাবা অলিম্পিয়াডের আসরে যুগ্মচ্যাম্পিয়ন হলো ভারত ও রাশিয়া। রোববার অনুষ্ঠিত এই অলিম্পিয়াডের ফাইনালে হঠাৎ করেই ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। ততক্ষণে রাশিয়ার কাছে হেরে গেছে ভারত। কিন্তু ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়ার কারণে পুনর্বিবেচনার আবেদন জানায় ভারত। সেই আর্জিকে স্বীকৃতি দিয়ে দুই প্রতিদ্বন্দ্বী দেশকে যুগ্মচ্যামিপয়ন ঘোষণা করে আন্তর্জাতিক দাবা ফেডারেশন এফআইডিই।

রোববার চূড়ান্ত খেলার মাঝে হঠাৎ করেই নিহাল সারিন ও দিব্যা দেশমুখের ইন্টারনেট সংযোগ বিঘ্নিত হয়। সেই কারণে তাদের বেশ কিছু সময় নষ্ট হয়, যা পরে সামাল দেয়া অসম্ভব হয়ে দাঁড়ায়। এই প্রযুক্তিগত সমস্যার কারণে রুশ প্রতিদ্বন্দ্বীর কাছে শেষ পর্যন্ত হার স্বীকার করতে হয় দুই দাবাড়ুকেই।

বিতর্কিতভাবে খেলা শেষ হওয়ায় ফলাফলকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে এফআইডিই-এর কাছে আবেদন জানায় ভারত।

আন্তর্জাতিক দাবা ফেডারেশনের ডিরেক্টর জেনারেল এমিল সুতোভস্কি জানান, ভারতের আবেদন পর্যালোচনা করে দেখা হচ্ছে। তবে রাশিয়ার প্রতিনিধিত্ব করার জন্য বৈঠকে উপস্থিত থাকতে পারেননি এফআইডিই সভাপতি এ দর্কোভিচ। শেষ পর্যন্ত ভারত ও রাশিয়াকে যুগ্ম চ্যাম্পিয়ন হিসেবে ঘোষণা করা হয়।

প্রসঙ্গত, অলিম্পিয়াড কোয়ার্টার ফাইনালে আর্মেনিয়ার বিরুদ্ধে ভারতের জয়ের পরেও ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্ন হওয়ার অভিযোগ জানিয়েছিল আর্মেনিয়া। তবে সে আবেদন শেষ পর্যন্ত খারিজ করে দেয় এফআইডিই।

এবছর জুলাই মাসে রাশিয়ার মস্কোতে হওয়ার কথা ছিল বিশ্ব দাবার সবচেয়ে বড় আসর অলিম্পিয়াড প্রতিযোগিতা। কিন্তু করোনার কারণে নিয়মিত আসরটি পিছিয়ে নেয়া হয়েছে পরের বছর। তার বদলে এবার প্রথমবারের মতো অনলাইনে ভিন্নভাবে আয়োজিত হলো এই অলিম্পিয়াড। গত ২৪ জুলাই থেকে শুরু হয় অলিম্পিয়াড। গতকাল ৩০ আগস্ট ছিল ফাইনাল। বাংলাদেশসহ বিশ্বের মোট ১৬৩টি দেশ এতে অংশগ্রহণ করে।

বাংলাদেশ থেকে পুরুষ বিভাগে দেশের প্রথম গ্র্যান্ড মাস্টার নিয়াজ মোর্শেদ ও রিফাত বিন সাত্তার এবং আন্তর্জাতিক মাস্টার ফাহাদ রহমান খেলেন। অভিজ্ঞ দাবাড়ু রানী হামিদ ও শারমিন সুলতানা শিরিন এবং ওয়ালিজা আহমেদ ছিলেন তালিকায়। এর মধ্যে ফাহাদ ও ওয়ালিজা খেলেছেন অনূর্ধ্ব-২১ বিভাগে।


আরো সংবাদ