২০ আগস্ট ২০২২
`

নির্বাচনে ফায়দা নিতে গাজায় হামলা ইসরাইলের?

নির্বাচনে ফায়দা নিতে গাজায় হামলা ইসরাইলের? - ছবি : সংগৃহীত

ইসরাইলে আগামী নভেম্বরে অনুষ্ঠেয় নির্বাচনে ফায়দা হাসিল করতে শুক্রবার গাজা উপত্যকায় হামলা চালিয়েছে ইসরাইল। বিশ্লেষকেরা এমনটাই মনে করছেন। ওই হামলায় অন্তত ১০ জন নিহত হয়েছেন। নিহতদের মধ্যে পাঁচ বছরের একটি মেয়ে, ২৩ বছর বয়স্কা এক নারী এবং ইসলামিক জিহাদের সামারিক শাখার এক কমান্ডার রয়েছেন।

ইসলামিক জিহাদ গ্রুপ জানিয়েছে, ইসরাইলি বিমান হামলার প্রতিশোধ নিতে তারা ইসরাইলের অভ্যন্তরে শতাধিক রকেট নিক্ষেপ করেছে।

দোহা ইনস্টিটিউট অব গ্রাজুয়েটস স্টাডিজের তামার কারমত বলেন, গাজার 'সবাই নার্ভাস হয়ে পড়েছে। সেখানে যুদ্ধ করার কোনো আগ্রহই নেই।' উল্লেখ্য, তিনি গাজার অধিবাসী, এখনো সেখানে তার পরিবার বাস করে।

তিনি আলজাজিরাকে বলেন, গত ১৫ বছরে চার থেকে পাঁচটি বড় সঙ্ঘাত হয়েছে। আমরা এখনো গাজা উপত্যকার পুনঃনির্মাণ নিয়ে আলোচনা করছি। গাজা এখনো সেরে ওঠেনি। একটার পর একটা সঙ্ঘাত সেখানে চলছেই।'

গত সপ্তাহের প্রথম দিকে ইসলামিক জিহাদের সিনিয়র সদস্য বাসাম আল সাদিকে ইসরাইলি বাহিনী গ্রেফতার করার প্রেক্ষাপটে এই হামলা শুরু হলো। পশ্চিম তীরের নগরী জেনিনে এক কিশোর নিহত হওয়ার পর তাকে গ্রেফতার করা হয়।

ফিলিস্তিনি কর্তৃপক্ষের সাবেক মুখপাত্র ও রাজনৈতিক বিশ্লেষক নূর ওদেহ বলেন, এই হামলা রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত হতে পারে।

তিনি বলেন, 'গাজা সন্ত্রস্ত্র। এখনো আগের হামলা থেকে উদ্ধার পায়নি। হামাস ও জিহাদ শান্ত রয়েছে, তারা জনসাধারণকে স্বস্তিতে থাকতে দেয়ার সুযোগ দিতে চাইছে। লাপিদ ছঅড়া কেউ উত্তেজনা চায় না।'

তিনি বলেন, 'কে বেশি শক্তিশালী, তা প্রদর্শন করার প্রতিযোগিতা এটি। লাপিদ চান, তিনি বেশি শক্তিশালী- তা দেখাতে। যদিও তার কোনো সামরিক ব্যাকগ্রাউন্ড নেই।'

বিশ্লেষকেরা বলছেন, আরেকটি যুদ্ধ শুরু করার জন্য ইসরাইলের অভ্যন্তরীণ চাপ রয়েছে।

সূত্র : আলজাজিরা


আরো সংবাদ


premium cement