১১ জুলাই ২০২০

বেতন ও ভাতা বাড়ানো

-

প্রতিটি দ্রব্যের দাম বেড়েছে। তাই সরকারি কর্মকর্তা বিশেষ করে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বেতন বৃদ্ধিসহ এগারো নম্বর গ্রেডে আনার প্রয়োজন বাড়ছে। অর্থাৎ প্রারম্ভিক বেতন ত্রিশ কিংবা পঁয়ত্রিশ হাজার টাকা দেয়া উচিত। এ জন্য আবেদন জানাচ্ছি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং সংশ্লিষ্ট মন্ত্রী, এমপি ও সচিবদের কাছে। একজন ঊর্ধ্বতন আমলা প্রাইমারি স্কুলের কিছু শিক্ষকের ‘গোপন কথা’ ফাঁস করে দিয়ে নিজেকে হয়তো ‘দুধে ধোয়া তুলসী’ পাতা মনে করছেন। আসলে বাস্তবতা আহামরি কিছু নয়। এর অন্যতম কারণ, ভূরিভূরি শিক্ষার্থী প্রাইমারি ও হাইস্কুল পরীক্ষায় কৃতিত্বের সাথে পাস করলেও অনভ্যাসের কারণে কিংবা সঙ্গদোষে বা অহমিকার কবলে পড়ে অঙ্কুরেই বিনষ্ট হয়ে যায়। প্রবাদ আছেÑ ‘অনভ্যাসে বিদ্যা হ্রাস।’ মরিচায় ধরা জিনিস দিয়ে যেমন ভালো কিছু করা যায় না, তেমনি ওই অল্প বিদ্যা দিয়ে বেশি কিছু করা যায় না। অতীতে শিক্ষিত পণ্ডিতদের অনেকে টেবিলে পা তুলে ঘুমাতেন, আজকের দিনে তা কল্পনাও করা যায় না। আজকের ডিগ্রিধারী শিক্ষকেরা অনেক সতর্ক। মোটকথা, তারা মোটা অঙ্কের বেতন আশা করতে পারেন। আশা করি, কর্তৃপক্ষ ভেবে দেখবেন।
মো: রফিকুল ইসলাম
লাকসাম, কুমিল্লা


আরো সংবাদ

ইতালির প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য কয়েকটি বাংলাদেশী গণমাধ্যমে ভুলভাবে প্রকাশিত হয়েছে রিসোর্টে ফুটবলারদের আইসোলেশন ক্যাম্প বিএনপিকে নিশ্চিহ্ন করতে সরকার ধারাবাহিক কূটকৌশল করছে : মির্জা ফখরুল মালয়েশিয়ায় নতুন শঙ্কায় প্রবাসী বাংলাদেশীরা মোদিকে মমতার চিঠি ইটনায় হাওরের পানিতে ডুবে ইউপি সদস্যের ছেলের মৃত্যু হালুয়াঘাটে বিদেশী মদসহ আটক ৩ চন্দনাইশে ষড়যন্ত্রমূলক মামলায় ২০ জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট প্রদানের প্রতিবাদে মানববন্ধন উখিয়ায় গোছের ডালে ঝুলন্ত অবস্থায় স্কুলছাত্রীর লাশ উদ্ধার গোবিন্দগঞ্জে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ও উদীচীর সভাপতি করোনায় আক্রান্ত

সকল