৩০ মার্চ ২০২০

নির্বাচনপরবর্তী মতবিনিময়ে ইশরাক কেউ ঝুঁকি নেবে, কেউ ঘুমিয়ে থাকবে এই নীতি থেকে বেরুতে হবে

নয়াপল্টনে গতকাল ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপি সমর্থিত কাউন্সিলর প্রার্থীদের সাথে মতবিনিময় সভা : নয়া দিগন্ত -

‘কেউ ঝুঁকি নেবে, কেউ ঘুমিয়ে থাকবে’ এই নীতি থেকে দলের নেতাকর্মীদের সরে আসতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন ইশরাক হোসেন। গতকাল রোববার দুপুরে সদ্য সমাপ্ত সিটি নির্বাচন পরবর্তী দলের এক মতবিনিময় সভায় ঢাকা দণি সিটি করপোরেশনের ধানের শীষের প্রার্থী এই মন্তব্য করেন।
তিনি বলেন, নির্বাচনের দিন সকাল বেলা ভোট দিয়ে আমি নিজেও কেন্দ্র থেকে কেন্দ্র ঘুরে বেড়িয়েছি। তখন আকাশ-পাতাল তফাৎ ল করেছি। কিছু কিছু এলাকায় আমি দেখেছি, সেখানকার কাউন্সিলর প্রার্থীরা নিজের জীবন ঝুঁকি রেখে তারা সেখানে চেষ্টা করছেন বিজয়কে ছিনিয়ে আনার জন্য। আবার কিছু কিছু জায়গায় দেখেছি সেখানে কাউন্সিলর প্রার্থীও নেই, স্থানীয় বিএনপির নেতাকর্মী যারা চেষ্টা করেছিল তাদেরকে সংগঠিতই করা হয়নি। সেই বিষয়গুলো আমাদের উঠিয়ে আনতে হবে। কারণ কেউ ঝুঁকি নেবে, কেউ ঘুমিয়ে থাকবেÑ তা হতে পারে না। এভাবে আমাদের সাফল্য আসতে পারে না।
ইশরাক বলেন, আমাদের এই নির্বাচনে অংশগ্রহণ করার মূল উদ্দেশ্য হচ্ছেÑ দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনা এবং দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করা। আমরা যদি সুসংগঠিত হয়ে সামনের দিনগুলোতে আন্দোলনকে বেগবান না করতে পারি তাহলে কিন্তু আমাদের প্রিয় নেত্রীর মুক্তিও শিগগিরই সম্ভব হবে না, দেশে গণতন্ত্রও ফেরত আসবে না।
নির্বাচনের দিন কার কি ভূমিকা ছিল তাদের নাম উল্লেখ না করার অনুরোধ জানিয়ে তিনি বলেন, নির্বাচনে অংশগ্রহণের মধ্য দিয়ে আমাদের মধ্যে যে দুর্বলতাগুলো ছিল সেগুলো নিয়ে আলোচনার জন্য এই মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়েছে। যাতে সামনের দিনগুলোতে আমরা আমাদের দুর্বলতাগুলো চিহ্নিত করে সেগুলোর সমাধান করতে পারি।
নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহ্বায়ক স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, আজকে নির্বাচন পরবর্তী বিশ্লেষণ করার জন্য আমরা এখানে বসেছি, যা বক্তব্য শুনেছি, নির্বাচনে ৭-৮% এর বেশি মানুষ ভোট কেন্দ্রে উপস্থিত হয়নি। তারপরেও দেিণ ২৯% এবং উত্তরে ২৫% ভোট কাস্টিং দেখানো হয়েছে ইভিএমের কারচুপির মাধ্যমে। এই মেশিন যে গ্রহণযোগ্য নয়, ত্রুটিপূর্ণÑ এটা প্রমাণিত হয়েছে এই নির্বাচনে।
তিনি বলেন, ১০% এর উপরে যে ভোট ঘোষণা করা হয়েছে সবটাই ইভিএমের মাধ্যমে কারসাজি করে করা হয়েছে। ইভিএম যে ক্রটিপূর্ণ, এটাতে জালিয়াতি করা যায় সেটা এই নির্বাচনে আমাদের প্রার্থীরা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে প্রমাণ করেছেন।
তিনি বলেন, এই নির্বাচনে আমাদের সফলতা গণতন্ত্র যে দেশে নেইÑ সেটা থপুনরায় প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। এই ভোটের প্রতি জনগণের অনীহা, এই সরকারের প্রতি অনাস্থা। দেশ ও জাতি একটা অশনি সঙ্কেত পাচ্ছে এবং আমরা একটা অন্ধকার গহ্বরের দিকে ধাবিত হচ্ছি। আমাদের নেত্রীকে মিথ্যা মামলায় সাজা দিয়ে কারাগারে রাখা হয়েছে। একমাত্র কারণ হলো তিনি গণতন্ত্রের প।ে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার যাতে না হয় সে জন্য তাকে কারাগারে রাখা হয়েছে। আজকে কাউন্সিলর প্রার্থীরা এখানে শপথ গ্রহণ করেছেন ওয়ার্ড-থানাসহ সব পর্যায়ে দলকে সুসংগঠিত করে, আরও শক্তিশালী করে আন্দোলনের মাধ্যমে আমাদের নেত্রীকে মুক্ত করবে। আমরা আশা করি, ঢাকা মহানগর সারা বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক আন্দোলনের নেতৃত্ব দিতে আজকে প্রস্তুত।
নির্বাচন পরিচালনা কমিটির প্রধান সমন্বয়কারী স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস বলেন, অনেক কথা আছে আপনাদের। যেখানে আওয়ামী লীগ লাঠিসোটা, র্যা ব-পুলিশ নিয়ে হানা দিয়েছে সেখানে আমাদের কমিশনার প্রার্থীরা টিকতে পারেনি। সেখানে আমার একটাই প্রশ্ন থাকবেÑ আমাদের সংগঠন কী এতই উইক যে আমরা কিছুই করতে পারলাম না। আমি বলি, আমাদের কিছু একটা করা উচিত ছিল। এমন একটা সংবাদ পেলাম না যে, ওখানে কিছু একটা হয়ে গেছে। হয় নাই। সুতরাং আমাদের সংগঠনকে আমাদের জন্য, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার জন্য এই নির্বাচনকে কেন্দ্র করেই সুন্দর ও সুসংগঠিত করতে হবে।
নয়া পল্টনে আনন্দ ভবন কমিউনিটি সেন্টারে ঢাকা সিটি দেিণর নির্বাচন পরিচালনা কমিটির উদ্যোগে কাউন্সিলর প্রার্থীদের রুদ্ধদ্বার এই মতবিনিময় সভা হয়। যাতে ঢাকা দেিণর কাউন্সিলর প্রার্থীসহ স্থানীয় নেতারা অংশ নেন। গণমাধ্যমের জন্য ১০ মিনিট সময় দিয়ে সিনিয়র নেতারা বক্তব্য রাখেন।
নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সমন্বয়কারী ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু, সদস্যসচিব আবদুস সালাম, সদস্য হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, ফজলুল হক মিলন, আফরোজা আব্বাস, শিরিন সুলতানা, শহিদুল ইসলাম বাবুল, সুরুজ মিয়া, আনিসুর রহমান তালুকদার খোকন, নবী উল্লাহ নবী, রফিক শিকদার প্রমুখ নেতৃবৃন্দ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।


আরো সংবাদ

রংপুরে ট্রেনের ধাক্কায় নিহত ৪ করোনা আতঙ্কে আত্মহত্যা করলেন ইতালির নার্স অক্সিজেনের অভাবে শ্বাসকষ্টে প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ ফমেক হাসপাতালে নাগরপুরে করোনা প্রতিরোধে এসিল্যান্ডের নেতৃত্বে জীবাণুনাশক স্প্রে জ্বর থাকায় বের করে দিলেন স্বজনরা, আশ্রয় দিলেন ইউএনও করোনা মোকাবিলায় ৯৯.৯ ভাগ কার্যকরী অস্ত্র প্রস্তুত চীনের! মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বিনামূল্যে পিপিই সরবরাহ করবে ইউএস-বাংলা সৈয়দপুরে মাস্ক বিক্রি করে সংসার চালাচ্ছে শিশু শিক্ষার্থী করোনা উপসর্গে শ্বাসতন্ত্রের চিকিৎসায় ঝুঁকি কমাবে ফিজিওথেরাপি লাখো মানুষ পথেঘাটে, লকডাউন করে চরম বিপাকে মোদি বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে হেল্প লাইন চালু

সকল