১১ আগস্ট ২০২০

স্বাধীনতার বিরোধিতাকারীরাই ১৫ ও ২১ আগস্ট হামলায় জড়িত : কাদের

-
24tkt

১৫ আগস্ট এবং ২১ আগস্ট একই সূত্রে গাঁথা মন্তব্য করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, দুটি ঘটনাই ইতিহাসের জন্য কলঙ্কজনক। যারা বাংলাদেশের স্বাধীনতা চাননি, যারা স্বাধীনতার বিরোধিতা করেছেন, যারা বঙ্গবন্ধুকে হত্যার সাথে জড়িত, তারাই ২১ আগস্ট হামলা সংঘটিত করেছেন।
জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে গতকাল বৃহস্পতিবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে মহিলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি একথা বলেন। এ সময় বিএনপির উদ্দেশে তিনি বলেন, মুফতি হান্নান আদালতে স্বীকার করেছেন ২১ আগস্ট হামলার মাস্টারমাইন্ড এবং নির্দেশদাতা তারেক রহমান। আর তিনি যদি জড়িত না থাকেন তাহলে এফবিআই এবং স্কটল্যান্ড তদন্ত টিমকে কেন তখন আপনারা কাজ করতে দিলেন না। ২১ আগস্টের হামলায় বিএনপি জড়িত থাকলে পিলখানায় আওয়ামী লীগ জড়িত বিএনরি এমন দাবি প্রসঙ্গে কাদের বলেন, পিলখানা হত্যাকাণ্ডের সময় বেগম খালেদা জিয়া কোথায় ছিলেন, কোথায় লুকিয়ে ছিলেন।
মির্জা ফখরুলের প্রতি প্রশ্ন রেখে তিনি আরো বলেন, সিরাজউদ্দৌলাকে হত্যার সময় প্রধান সেনাপতি ষড়যন্ত্র করেছেন, বঙ্গবন্ধুকে হত্যার সময় সেনাপতি জিয়াউর রহমান ষড়যন্ত্র করেছেন। তা না হলে তিনি কেন বঙ্গবন্ধুর খুনিদের বিদেশে পালিয়ে যেতে সহযোগিতা করেছেন। মির্জা ফখরুল আপনাকে জবাব দিতে হবে।
আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন নারী ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রী ফজিলাতুন্নেসা ইন্দিরা, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সদস্য মেরিনা জাহান কবিতা ও পারভিন জামান কল্পনা। সভায় সভাপতিত্ব করেন মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাফিয়া খাতুন।


আরো সংবাদ

প্রদীপের জন্যই ব্যর্থ ইয়াবা অভিযান (১০৩০৯)প্রকাশ্যে সহকর্মীকে ওসির থাপ্পর, তদন্তে নেমেছে পুলিশের তদন্ত কমিটি (৭৫৯৪)দেশে যেসব কারণে এখন ধরা পড়ছে ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ (৪১৬০)শেষ রক্তবিন্দু থাকা পর্যন্ত বিচার চাইবেন শিপ্রা: র‌্যাব (৩৯৮৫)সিনহার মৃত্যুতে সরকার কষ্ট পেয়েছে : হানিফ (৩৩৪১)পবিত্র কাবা ও আয়া সোফিয়া মসজিদে নকশা করে গর্বিত এই চিত্রশিল্পী (৩০৮৩)গানের মধ্যে তিনি বেঁচে থাকবেন অনন্তকাল : রুনা লায়লা (২৯১৭)আবার মানবিক নজির শাহরুখের (২৭৭৩)এটাই যেন বিচারবহির্ভুত হত্যাকাণ্ডের শেষ ঘটনা হয় : সিনহার মা (২৭১৯)ভারতের বিরুদ্ধে সোচ্চার না হলে বাংলাদেশের মুক্তি নেই : ডা. জাফরুল্লাহ (২৬৫৭)