২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০

করোনার প্রভাব থাকবে কয়েক দশক ধরে: হু

করোনার প্রভাব থাকবে কয়েক দশক ধরে: হু -

করোনাভাইরাস থাবা বসিয়েছে ৬ মাস হয়ে গেল। এতদিন পরও প্রকোপ কমেনি। বরং আরও বেশি বিস্তার লাভ করেছে। এই পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্লেষণ করল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু)। হু এর ইমার্জেন্সি কমিটি জানিয়েছে যে আগামী কয়েক দশক ধরে করোনা মহামারীর প্রভাব অনুভূত হবে।

এখনও পর্যন্ত ৬ লাখ ৭৫ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে করোনা মহামারীতে। সংক্রমিত ১ কোটি ৭৩ লাখ মানুষ। গত বছরের শেষ অর্থাৎ ডিসেম্বরে চীনে এই ভাইরাসের প্রকোপ শুরু হয়। এরপর সারা বিশ্বে থাবা বসিয়েছে এই মারণ ভাইরাস।

১৮ জন সদস্য ও ১২ জন অ্যাডভাইজরকে নিয়ে সম্প্রতি বৈঠকে বসেছিল সংস্থার ইমার্জেন্সি কমিটি। এটা ছিল তাদের চতুর্থ বৈঠক। বৈঠকে হু প্রধান বলেন, ‘৬ মাস আগে যখন আমাকে পাবলিক হেলথ ইমার্জেন্সি ঘোষণা করতে বলা হয়েছিল, তখন আক্রান্ত ছিলেন ১০০ জনেরও কম, চীনের বাইরে কারও মৃত্যু হয়নি। এই মহামারী শতাব্দীতে একবার হয়। এর প্রভাব থাকবে অন্তত কয়েক দশক ধরে।

ইমার্জেন্সি ঘোষণা করতে দেরি হয়েছে বলে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলেছে আমেরিকা। পড়তে হয়েছে কড়া সমালোচনার মুখে।

এর আগে সোমবার করোনার সংক্রমণকে বিশ্বের ইতিহাসে ভয়ঙ্করতম মহামারী হিসেবে উল্লেখ করেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ডিরেক্টর-জেনারেল টেড্রোস আধানম ঘেব্রিয়েসুস। এর চেয়ে আপৎকালীন পরিস্থিতিতে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে এর আগে কখনও পড়তে হয়নি বলেও জানান।

তিনি বলেন, ‘এই নিয়ে ষষ্ঠবার স্বাস্থ্যক্ষেত্রে জরুরি অবস্থা জারি করল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। তবে নিশ্চিতভাবেই বলা যায়, এই ছ’বারের মধ্যে এটাই সবচেয়ে খারাপ অবস্থা।’

টেড্রোস আরও জানান, সংক্রমণ ছড়ানোর ৬ মাস পরেও এই ভাইরাস গতি বাড়াচ্ছে। শুধু গত ৬ সপ্তাহেই বিশ্বজুড়ে মোট আক্রান্তের সংখ্যাটা দ্বিগুণ হয়ে গেছে। আর বিপদ এখনও বাকি আছে। এই মহামারী থেকে বাঁচার একমাত্র উপায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা। যেখানে স্বাস্থ্যবিধি মানা হচ্ছে, সেখানে সংক্রমণ কমছে। যেখানে মানা হচ্ছে না, সেখানে বাড়ছে। অনেক দেশ ধরেই নিয়েছিল, করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণ করে ফেলেছে তারা। সেই সব দেশেও নতুন করে সংক্রমণ ছড়াচ্ছে।


আরো সংবাদ

নতুন বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্র সামনে আনলো ইরান (১৮৬৭০)ছাত্রাবাসে গণধর্ষণ : সেই রাতের ঘটনা আদালতকে জানালেন ভুক্তভোগী গৃহবধূ (১১২২১)ক্রিকেট ছেড়ে সাকিব এখন পাইকারি আড়তদার! (১০৩৭২)নর্দমা পরিষ্কার করতে গিয়ে ধরা পড়ল দৈত্যাকার ইঁদুর! (ভিডিও) (৮০৯৮)করোনার দ্বিতীয় ঢেউ : বাড়বে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছুটি (৭৮৮১)আজারবাইজানের পাশে দাঁড়ালেন এরদোগান, আর্মেনিয়াকে হুমকি (৭০৭০)যে কারণে আবারো ভয়াবহ যুদ্ধে জড়ালো আর্মেনিয়া-আজারবাইজান (৬১১৬)ড. কামাল ও আসিফ নজরুল ঢাবি এলাকায় অবা‌ঞ্ছিত : সন‌জিত (৫৫৪১)সিসিবিরোধী অব্যাহত বিক্ষোভে উত্তাল মিসর (৫৪৫৪)এবার মথুরা! ঈদগাহ মসজিদ সরিয়ে জমি ফেরানোর দাবিতে আদালতে ‘‌ভগবান শ্রীকৃষ্ণ’‌ (৫২৭২)